পুজোর আগে যত্ন নিন ত্বকের

ওয়েবডেস্ক: আর বাকি মাত্র ৮ দিন! পুজো মানেই সাজগোজ আর খাওয়া-দাওয়া। প্যান্ডেল ঘুরে ঘুরে ঠাকুর দেখাও। তাই নিজের যত্ন নেওয়া খুব জরুরি। পুজোর দিন ফ্রেশ লুক পাবেন কী ভাবে? এই ৮টা দিন বরং নিজেকে সময় দিন। শুধু ঘরোয়া ভাবে ত্বকের যত্ন নিন ব্যস, তাহলেই হবে।

কলার স্বাস্থ্যগুণের কথা কম-বেশি সবাই জানেন। কিন্তু ত্বকের যত্নে কলার অসাধারণ উপকারিতার কথা জানা আছে এমন মানুষের সংখ্যা নেহাতই কম। কলা প্রাকৃতিকভাবেই গুরুত্বপূর্ণ অনেক ভিটামিন এবং মিনারেল দ্বারা পরিপূর্ণ। তাই এটি ত্বকের ফ্রি রেডিকেলসের সঙ্গে লড়াই করে এবং ত্বকের এজিং প্রক্রিয়ার গতিকে কমিয়ে দেয়।

ঘরে থাকা কিছু সাধারণ উপাদানে ফেসপ্যাক তৈরি করে নিজেই নিজের ত্বকের যত্ন নিতে পারবেন। তার মধ্যে পাকা কলা অন্যতম। পাকা কলা শুধু স্বাস্থ্যের জন্যই উপকারী নয়, ত্বকের জন্যও অনেক উপকারী।

১) কলা, মধু ও লেবুর প্যাক

উপকরণ-

অর্ধেক পাকা কলা, ১ চামচ মধু, ১ চামচ লেবুর রস।

পদ্ধতি-

প্রথমে কলা নিয়ে খুব ভালো করে ম্যাশ করে নিতে হবে। এ বার কলার সঙ্গে মধু ও লেবুর রস খুব ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। এই প্যাকটি মুখে লাগিয়ে রাখুন ২০ মিনিট। এর পর ভালো করে মুখ ধুয়ে-মুছে নিন। ত্বকের উজ্জ্বলতা আর কোমলতা দেখে নিজেই অবাক হয়ে যাবেন।

২) কলা, বেকিং পাউডার ও হলুদের প্যাক

উপকরণ-

অর্ধেক পাকা কলা, অর্ধেক চামচ বেকিং পাউডার, ১ চামচ হলুদ।

পদ্ধতি-

কলা ম্যাশ করে এতে হলুদ ও বেকিং পাউডার মেশাতে হবে। এ বার একটা ব্রাশের সাহায্যে মুখে সমানভাবে লাগাতে হবে। ২০ মিনিট রাখার পর উষ্ণ গরম জল দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত ব্যবহার করলে ব্রণ হওয়ার সম্ভাবনাও অনেক কমে আসবে।

৩) কলা, টকদই ও কমলালেবুর রস

উপকরণ-

অর্ধেক পাকা কলা, ১ চামচ টকদই, ১ চামচ কমলালেবুর রস।

পদ্ধতি-

ম্যাশ করা পাকা কলা, টকদই ও কমলালেবুর রস ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে মুখে দিয়ে রাখুন ২০-২৫ মিনিট। প্যাকটি শুকিয়ে আসলে হালকা হাতে ম্যাসাজ করুন ২-৩ মিনিট। এ বার ভালো করে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

আরও পড়ুন: পুজোর আগে করুন নখের পরিচর্যা

৪) কলা ও ওটমিল স্ক্রাব

উপকরণ-

ছোট পাকা কলা ১টি, ওটমিল ১ চামচ।

পদ্ধতি-

কলাটি খুব ভালো করে ম্যাশ করে নিন। ওটমিল ম্যাশ করা কলার মধ্যে ভিজিয়ে রাখুন ৫ মিনিট। এ বার এটি মুখে স্ক্রাব করুন ৫ মিনিট। এই স্ক্রাবটি ত্বকের মরা কোষ দূর করার সঙ্গে সঙ্গে ত্বককে ময়েশ্চারাইজও করবে।

৫) কলা, টকদই ও মধু

উপকরণ-

২ চামচ ম্যাশড কলা, ১ চামচ টকদই, ১ চামচ মধু

পদ্ধতি-

সব উপকরণ এক সঙ্গে মিশিয়ে নিতে হবে এবং মুখে লাগিয়ে রাখতে হবে ১৫ থেকে ২০ মিনিট। এর পর ভালোভাবে মুখ ধুয়ে তোয়ালে দিয়ে মুছে নিলেই দেখবেন মুখের ত্বক কেমন ঝকঝক করছে।

৬) শুধু কলার প্যাক

যাঁদের হাতে রূপচর্চার জন্য একেবারেই সময় নেই তাঁরা এই প্যাকটি ব্যবহার করতে পারেন ত্বকের পুষ্টির জন্য। মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার করে এক টুকরো কলা নিয়ে হালকা হাতে মুখে ম্যাসাজ করে নিন। এটি নিয়মিত করলে ত্বকের পুষ্টির ঘাটতি দূর হবে এবং নির্জীব ত্বক নতুন প্রাণ ফিরে পাবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন