রাখিতে বোনের জন্য উপহার কিনবেন? রকমারি শাড়ির সম্ভার নিয়ে অপেক্ষায় ‘সুন্দরী’

0
sundari
সুন্দরীর কালেকশন

কলকাতা: সামনেই ইদ আর তারপরই অপেক্ষায় আছে রাখি পূর্ণিমা। এই দুই অনুষ্ঠানের মরশুমে উপহার দেওয়া-নেওয়ার ব্যাপারটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ হয়ে ওঠে। এই সময় যে বিষয়টি সব থেকে বেশি করে মাথায় ঘোরে কোন উপহার দিলে সব থেকে বেশি খুশি করা যাবে বা সব থেকে বেশি মানাবে ইত্যাদি ইত্যাদি। সে ক্ষেত্রে মহিলাদের জন্য শাড়ি হল একটি দারুণ উপহার।

সুন্দর শাড়ির প্রতি ঝোঁক সাধারণত সব মহিলারই থাকে। তাই সুন্দর শাড়ির সুন্দর কালেকশন থেকে যদি দু’-একটি উপহারের বাহানায় কারোর আলমারিতে জায়গা পায়, তা হলে ব্যাপারটি মন্দ হয় না। তবে এ ক্ষেত্রে দ্বিতীয় প্রশ্ন মাথায় আসে। কোথা থেকে কিনলে সব থেকে ভালোটি বাছাই করে নেওয়া যাবে। সে প্রশ্নের জবাবে একটি প্রতিষ্ঠান ৪০ বছর ধরে ইতিহাস তৈরি করেছে। তার নাম ‘সুন্দরী’। সুন্দর সুন্দর শাড়ির সম্ভারে বহু বছর ধরে মহিলাদের মনকে আনন্দে ভরিয়ে রেখেছে ‘সুন্দরী’। এখনও তার কোনো রকম খামতি নেই।

হালকা ধরনের সুতির শাড়ি থেকে ডিজাইনার শাড়ি, শিফন, বেনারসি, মটকা সিল্ক, জামদানি ইত্যাদি সব ধরনের শাড়ির কালেকশন রয়েছে ‘সুন্দরী’তে। রয়েছে সব বয়সের মহিলার জন্য উপযুক্ত রং ও ডিজাইনের শাড়ি।

সুন্দরী ক্রিয়েশন প্রাইভেট লিমিটেডের ডিরেক্টর গৌরব অগ্রওয়াল বলেন, তাঁরা পরম্পরাকে বহন করে নিয়ে চলেছেন। এই ব্যবসায় তিনি হলেন তৃতীয় প্রজন্ম।  ভারতীয় সৌন্দর্য্যকে প্রত্যেক মহিলার কাছে পৌঁছে দিচ্ছেন তাঁরা। সুন্দরীর শাড়িতে আরও সুন্দর হয়ে ওঠেন মহিলারা। আধুনিক ও ঐতিহ্যবাহী সব রকমের পছন্দের শাড়িই রয়েছে ‘সুন্দরী’র সম্ভারে।

‘সুন্দরী’তে বাকি সব ধরনের কালেকশনের সঙ্গে সঙ্গে রয়েছে বুটিকের কালেকশন ও ট্র্যাডিশন্যাল শাড়িও। তা ছাড়া গাউন, সালওয়ার সুট ইত্যাদিও পাওয়া যায়।

‘সুন্দরী’র শো রুম রয়েছে দুই জায়গায়। একটি মধ্য কলকাতার এম জি রোডে। রামমন্দিরের কাছে। এটি ৪০ বছরের পুরনো। আরও একটি আউটলেট রয়েছে দক্ষিণ কলকাতার গড়িয়াহাটে। এটি ২০১৫ থেকে শুরু হয়েছে।

পড়ুন – জামাইষষ্ঠীতে শাশুড়ির মন ভালো করে দেবে গড়িয়াহাটে ‘শ্যামলী’র শাড়ি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here