সম্পর্ক কতটা ঘনিষ্ঠ হলে পাসওয়ার্ড শেয়ার করবেন?

0

খবরঅনলাইন ডেস্ক: স্বামী-স্ত্রী বা প্রেমিক-প্রেমিকার মধ্যে পাসওয়ার্ড শেয়ার করাটাই কি পারস্পরিক বিশ্বাসের পরাকাষ্ঠা, আস্থার প্রতীক নাকি আসলে এটা পরস্পরের প্রতি দখলদারিরই একটা রূপ? এই প্রশ্নের উত্তর এক কথায় দেওয়া কঠিন।

তবে ব্যক্তিগত স্পেসে কিছুটা গোপনীয়তা রাখলে আসলে সম্পর্কটাকেই সম্মান জানানো হয় বলে অনেকেই মনে করেন। আবার উলটো মতবাদের লোকও আছেন। 

Loading videos...

কিন্তু দিন বদলেছে আমূল, ফোনের পাসকোড দেওয়ার আগে তাই কয়েকশো বার ভাবতে হবে। কারণ কোনো কালেই সম্পর্কে স্বচ্ছতা রাতারাতি আসেনি, এখনও আসে না। তা ছাড়া বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই বিশ্বাস গড়ে উঠতে সময়ও লাগে বহু বছর। সেই সময়টা দিতে তো হবেই, তার পরেও অবশ্যই সচেতন থাকা দরকার।

প্রথমত,

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, নতুন সম্পর্কে পাসওয়ার্ড শেয়ার না করাই ভালো। সদ্য প্রেমে পড়ে আবেগে ভেসে নিজের যাবতীয় গোপন তথ্য ফাঁস করবেন না। কারণ সম্পর্কটির স্থায়িত্ব বিষয়ে কোনো গ্যারেন্টি নেই। সম্পর্ক ভেঙে গেলে পাসওয়ার্ডগুলো বেহাত হয়ে যাবে।

দ্বিতীয়ত,

পার্টনারের সঙ্গে সম্পর্ক ঘনিষ্ঠতা গাঢ় হলেও কোনো পাসওয়ার্ডই জানিয়ে দেওয়া ঠিক নয়। এর মানে আইডেন্টিটি চুরির সুযোগ করে দেওয়া। আপনার অ্যাকাউন্ট থেকে এমন কিছু পোস্ট শেয়ার হতে পারে যা হয়ত আপনার মতবিরোধী। বা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের পিন ব্যবহার করে টাকা ফাঁকা হবে না, সে ব্যাপারেও কোনো নিশ্চয়তা নেই।

তৃতীয়ত,

শুধু তা-ই নয়, দীর্ঘদিনের সম্পর্কেও পাসওয়ার্ড শেয়ার করা যায় কিনা, তা নির্ভর করে পারস্পরিক রসায়নের ওপর। দশ বছর এক সঙ্গে থাকলেও সেই সমঝোতা নাও থাকতে পারে। তেমন হলে পাসওয়ার্ড শেয়ারের প্রশ্নই নেই।

চতুর্থত,

অনলাইন অ্যাকাউন্টের প্রাইভেসির ক্ষেত্রে সকলের মত আলাদা হতেই পারে। এক জন পাসওয়ার্ড দিতে রাজি থাকলেও অন্য জন দিতে নাও চাইতে পারেন। এটা খুব স্বাভাবিক। তাই এই সব নিয়ে কোনো রকম ঝগড়াঝাঁটি বা দোষারোপ না করাই শ্রেয়। এতে খুব বড়ো সমস্যা তৈরি হয়। পাসওয়ার্ডের চেয়ে সম্পর্কে সুস্থতা অনেক বেশি কাম্য। তাই পাসওয়ার্ডে বাড়তি মাথা না ঘামিয়ে সম্পর্কের বন্ধন দৃঢ় করাই ভালো।

পড়ুন – সম্পর্কের মধ্যে দৃঢ়তা বাড়াতে চান? মেনে চলুন এই পদ্ধতি

আরও – সন্তানের সঙ্গে এই ৫টি ভুল কখনওই করবেন না

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.