ওয়েবডেস্ক: প্রায় শেষ হতে চলল রাশিয়া বিশ্বকাপ। অঘটনের বিশ্বকাপকে নিয়ে নতুন কিছু বলার নেই। পুতিনের দেশে চলা কাপ-যুদ্ধ যে ইতিহাসের অন্যতম সেরা তা বলতে কেউ দ্বিধা করবে না। বিশ্বকাপ মানেই নতুন তারকার সৃষ্টি। চলতি বিশ্বকাপের মহাতারকারা অনেকেই ব্যর্থতা নিয়ে রশিয়া ছেড়েছেন। কিন্তু তাঁদের জায়গা ভরাট করার জন্য পাদপ্রদীপের আলোয় উঠে এসেছেন এমবাপে, গোলোভিনের মতো তরুণ খেলোয়াড়রা। তাঁদের মধ্যেই অন্যতম সেরা আকর্ষণ বেলজিয়াম দলের অধিয়ানক এডেন হ্যাজার্ড। দলকে ফাইনালে না তুলতে পারলেও, গ্রুপ পর্যায়ে ইংল্যান্ড, প্রিকোয়ার্টারে জাপান এবং সর্বোপরি কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাজিলের বিরুদ্ধে তাঁর খেলা কিন্তু রীতিমতো দেখার মতো।

ফুটবল এখন পুরোপুরি পেশাদারি। ফলে ভালো পারফরমেন্স করলে যে ক্লাবগুলির নজরে খেলোয়াড়রা চলে আসবে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। হলও তাই। হ্যাজার্ডকে নেওয়ার জন্য রীতিমতো ঝাঁপিয়ে পড়ল স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়ন বার্সেলোনা। শোনা যাচ্ছে, গত সপ্তাহেই তাঁর প্রতিনিধিদের সঙ্গে কথা হয়েছে বার্সা কর্তৃপক্ষের। এবং হ্যাজার্ড যে চেলসি ছাড়তে চান তা এক কথায় জানিয়ে দিয়েছেন তাঁর প্রতিনিধিরা।

hazard600

তবে চেলসি থেকে তাঁকে আনা যা মোটেই সহজ হবে না তা ভালো মতনই জানে বার্সা।

শুধু তা-ই নয়, রেয়াল মাদ্রিদের র‍্যাডারেও কিন্তু রয়েছেন হ্যাজার্ড, যে হেতু ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো ইতিমধ্যেই স্পেন ছেড়ে ইতালির জুভেন্তাসে সই করেছেন। অবশ্য হ্যাজার্ড নিজেও কিছুটা ইচ্ছুক রেয়াল বা আতলেতিকো মাদ্রিদে আসতে।

এখন দেখার শেষমেশ কোন জার্সিতে নতুন মরশুম শুরু করেন হ্যাজার্ড।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন