নয়াদিল্লি: নেহরু কাপের ধাঁচে একটি আন্তর্জাতিক ফুটবল টুর্নামেন্ট আয়োজনের চিন্তাভাবনা শুরু করেছে ‘সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন’ (এআইএফএফ)। সব কিছু ঠিকঠাক চললে সামনের আগস্টে এই টুর্নামেন্ট আয়োজন করা হবে। নাম রাখা হবে চ্যাম্পিয়ন্স কাপ।

এআইএফএফের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, চার দেশীয় এই টুর্নামেন্টে ভারত ছাড়া অংশগ্রহণ করবে এশিয়া, আফ্রিকা এবং উত্তর আমেরিকা থেকে একটি করে দেশ। ফুটবল নিয়মক সংস্থা ফিফার স্বীকৃতেই এই টুর্নামেন্ট হতে চলেছে। একটি বিবৃতিতে এআইএফএফ জানিয়েছে, “বহু-মহাদেশীয় একটি আমন্ত্রণী টুর্নামেন্টের পরিকল্পনা করেছে এআইএফএফ। বার্ষিক এই টুর্নামেন্টের প্রথম সংস্করণ সামনের আগস্টেই আয়োজিত হবে। এই টুর্নামেন্টে ভারত ছাড়াও অংশগ্রহণ করার সম্ভাবনা রয়েছে এশিয়া, আফ্রিকা এবং উত্তর আমেরিকা থেকে একটি করে দেশের।”

এই প্রতিযোগিতা আয়োজনের অন্যতম কারণ হল ভারতীয় দলকে আরও বেশি করে আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলানো যাতে ফিফা তালিকায় র‍্যাঙ্কিং ক্রমশ উন্নত হতে পারে। এই প্রসঙ্গেই ফেডারেশন সচিব কুশল দাস জানান, “আমাদের জাতীয় দল যাতে বেশি সংখ্যক আন্তর্জাতিক ফ্রেন্ডলি এবং প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচ খেলার সুযোগ পায়, সেই কারণেই এই চ্যাম্পিয়ন্স কাপের আয়োজন করা  হচ্ছে। আমাদের লক্ষ্য ভালো প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে ম্যাচ খেলে ফিফা র‍্যাঙ্কিং-এ ক্রমশ নিজেদের উন্নত করা।” তিনি আরও জানান যে এই টুর্নামেন্ট আয়োজনের জন্য এশিয়ান ফুটবল সংস্থা (এএফসি), আফ্রিকান ফুটবল সংস্থা (সিএএফ) এবং উত্তর-সেন্ট্রাল আমেরিকা ও ক্যারিবিয়ান ফুটবলের যৌথ সংস্থার (কোনকাকাফ) সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে এআইএফএফ।

প্রসঙ্গত এই মুহূর্তে ১৩১ র‍্যাঙ্কে থাকলেও কাম্বোডিয়া এবং মায়ানমারে জয়ের পর গত কুড়ি বছরে শীর্ষে পৌঁছতে পারে ভারতের র‍্যাঙ্ক। ১০১ থেকে ১০৫-এর মধ্যে কোনো একটি জায়গা দখল করবে ভারত। কোচ স্টিফেন কন্সটান্টাইনের তত্ত্বাবধানে গত তেরোটা আন্তর্জাতিক ম্যাচের মধ্যে এগারোটা জিতেছে ভালো। এ রকম পারফর্মেন্স চলতে থাকলে বছর শেষের আগেই র‍্যাঙ্কিং একশোর মধ্যে ঢুকে যাবে ভারত।

 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here