খবর অনলাইন: জমি-ব্যবসায়ীরা ফিলম্‌ প্রযোজনা করেছেন, প্রযুক্তিবিদরা ফিলমে টাকা ঢেলেছেন। এ বার এগিয়ে এলেন অটো-ড্রাইভাররা। বেঙ্গালুরুর ৪০০ অটোচালক ফিলম্‌ প্রযোজনা করছেন। এবং নামমাত্র বাজেটের ফিলম্‌ নয়, বেশ বড়ো বাজেটের ফিলম্‌ । এক হাজার টাকা থেকে কেউ কেউ দু’ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ঢেলেছেন ওই ফিলমে। ফলে কন্নড় ফিলম্‌ ইন্ডাস্ট্রিতে অটোচালকদের টাকায় দু’ কোটি টাকা বাজেটে ফিলম্‌ তৈরি হচ্ছে। ছবিটির পরিচালনা করছেন প্রবীণ কন্নড় চিত্রপরিচালক এ আর বাবুর পুত্র এ আর শান। অভিনয়ে আছেন ‘মুড্ডু মানসে’ খ্যাত আরু গৌড়া।

‘অটো’ নাগরাজ শুধু এক জন অটোচালক নন, তিনি এক জন ফিলম্‌ প্রচারকও বটে। তাঁরই কাছে শান এক দিন কথায় কথায় একটি চিত্রনাট্যের কথা বলেছিলেন। বলেছিলেন, প্রযোজনা করতে কেউ এগিয়ে আসছে না। তার পরের ঘটনা শানের মুখ থেকেই শোনা যাক – “ আমার কথা শুনে নাগরাজ যে জবাব দিয়েছিলেন তার জন্য আমি প্রস্তুত ছিলাম না। বললেন, তিনি এটি প্রযোজনা করবেন। তিনি তাঁর সমস্ত অটোচালক বন্ধুর সঙ্গে যোগাযোগ করলেন। অচিরেই শ’ চারেক অটোচালক ফিলমে টাকা ঢালতে এক কথায় রাজি হয়ে গেল।”

‘অটো’ নাগরাজের কাছেও এই ঘটনায় স্বপ্ন সত্যি হওয়ার মতো – “আমি ১৫ বছর ধরে অটো চালাচ্ছি। ইচ্ছা ছিল অভিনেতা হব। তাই ফিলমের সঙ্গে যুক্ত এমন বহু  মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতাম। আর এই করে বেশ কয়েকটা ছবিতে আমি অভিনয় করার সুযোগ পেয়েছি। প্রতি দিনই শুনি হয় অমুক রিয়ালটর ফিলম্‌ প্রোডিউস করছেন আর না হয় অমুক সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার অভিনেতা বা পরিচালক হয়েছেন। তা হলে অটোচালকরা কেন কিছু করবে না ? যখন কোনও কন্নড় ছবি রিলিজ করে এঁরাই তো আগে ছুটে যান হলে।

পরিচালক শান জানিয়েছেন, নির্বিঘ্নে শুটিং চলছে। ফিলম্‌টির প্রতিটি বিভাগে কন্নড় চিত্রজগতের প্রথিতযশা মানুষজন কাজ করছেন। একটা বড়ো বাজেটের বাণিজ্যিক ফিলম্‌ হয়ে উঠছে ‘আরজিভি’।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here