Connect with us

বাংলাদেশ

বঙ্গবন্ধু আঞ্চলিক সহযোগিতায় বিশ্বাসী ছিলেন: শেখ হাসিনা

শেখ হাসিনা বলেন, “২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে উন্নত-সমৃদ্ধ দেশ হিসেবে আমরা গড়ে তুলতে চাই।”

Published

on

মুজিব চিরন্তন মঞ্চে শেখ হাসিনা। ছবি এএনআই টুইটার থেকে নেওয়া।

ঋদি হক: ঢাকা

ভেদাভেদ ভুলে সবাইকে জনগণের মঙ্গলের জন্য কাজ করার জন্য আহ্বান জানালেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

Loading videos...

বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তির দিনে শুক্রবার জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডে মুজিব চিরন্তন মঞ্চ থেকে শেখ হাসিনা বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আঞ্চলিক সহযোগিতায় বিশ্বাসী ছিলেন। বিশ্বের নিপীড়িত মানুষের রাজনৈতিক মুক্তির পাশাপাশি তিনি স্বপ্ন দেখতেন অর্থনৈতিক মুক্তির। সে জন্য পারস্পরিক বিশ্বাস, আস্থা এবং সমতার ভিত্তিতে সহযোগিতার ওপর তিনি জোর দিতেন।

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর পাশাপাশি মুজিববর্ষ এবং বাংলাদেশ-ভারত কূটনৈতিক সম্পর্কের ৫০ বছর পালন করছে ঢাকা। এ উপলক্ষ্যে জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন ১৭ মার্চ থেকে ২৬ মার্চ টানা ১০ দিনের কর্মসূচি গ্রহণ করে। অনুষ্ঠানের শুরুর দিনে অতিথি ছিলেন মলদ্বীপের প্রেসিডেন্ট। এর পর শ্রীলঙ্কা, নেপাল, ভুটান এবং সর্বশেষে শুক্রবার সমাপনী অনুষ্ঠানের সম্মানিত অতিথি ছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

ভারত যে দক্ষিণ এশিয়ার সব চেয়ে বড়ো দেশ, সে কথা মনে করিয়ে দিয়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী বলেন, একটি স্থিতিশীল এবং রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক ভাবে শক্তিশালী দক্ষিণ এশিয়া গড়ে তুলতে ভারতকে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। তিনি বলেন, “আমরা যদি পরস্পরের সহযোগিতায় এগিয়ে আসি, তা হলে আমাদের জনগণের উন্নয়ন অবশ্যম্ভাবী। কারণ দক্ষিণ এশিয়াই হচ্ছে সব থেকে ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা। আমাদের অনেক সম্পদ রয়েছে, যা আমরা সকলে ব্যবহার করে এই দেশকে, এই অঞ্চলটাকেই ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত করে তুলতে সক্ষম হব।”

নানা প্রতিবন্ধকতা জয় করে বাংলাদেশের সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে চলার কথা তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, “গত ১২ বছরের চেষ্টায় বাংলাদেশে স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় উন্নীত হওয়ার স্বীকৃতি পেয়েছে। আমরা ২০৩১ সালের মধ্যে জাতিসংঘ ঘোষিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য অর্জন করতে চাই। অর্থাৎ উচ্চমধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠা লাভ করতে চাই। ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে উন্নত-সমৃদ্ধ দেশ হিসেবে আমরা গড়ে তুলতে চাই।”

সকলকে আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “এই শুভ মুহূর্তে আসুন আমরা প্রতিজ্ঞা করি, সকল ভেদাভেদ ভুলে আমরা জনগণের মঙ্গলের জন্য কাজ করব। আমাদের বিদেশনীতি অত্যন্ত স্পষ্ট, যা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব দিয়ে গেছেন। সকলের সঙ্গে বন্ধুত্ব, কারও সঙ্গে বৈরিতা নয়। সেই নীতি নিয়েই বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে এবং আমরা দক্ষিণ এশিয়াকে উন্নত, সমৃদ্ধ অঞ্চল হিসেবে প্রতিষ্ঠা করতে বদ্ধপরিকর।”

আরও পড়ুন: Indian PM’s Bangladesh Visit: সাভার স্মৃতিসৌধের পরিদর্শক খাতায় কী লিখেছেন নরেন্দ্র মোদী

বাংলাদেশ

Bangladesh Covid Vacination: টিকা ট্রায়ালে চিন অর্থ চাওয়ায় রাজি হয়নি বাংলাদেশ

পাঁচ লাখ ডোজ করোনা টিকা আনতে চিনের উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছে বাংলাদেশ বিমানবাহিনীর পরিবহন বিমান সি-১৩০জে।

Published

on

চিনা টিকা ও বাংলাদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

নিজস্ব প্রতিনিধি, ঢাকা: বাংলাদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী (Bangladesh health minister) জাহিদ মালেক (Jahid Malek)  বলেছেন, বাংলাদেশে টিকার ট্রায়াল করতে চেয়েছিল চিন। আর এ জন্য অর্থ চেয়েছিল তারা। বাংলাদেশ তাতে রাজি হয়নি। ওই ট্রায়াল অন্য দেশে করতে বাংলাদেশের তরফে বলা হয়েছে। চিনের কাছ থেকে টিকা কেনা হবে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ।

মঙ্গলবার রাষ্ট্রীয় অতিথিভবন ‘পদ্মা’য় নেপালকে মেডিকেল সামগ্রী উপহার প্রদান অনুষ্ঠানে এ সব কথা জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী। বাংলাদেশের জনগণের কথা বিবেচনা করে সরকার এখন চিন থেকে টিকা আনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তাদের সঙ্গে দুটি চুক্তির বিষয়ে কথাবার্তা হচ্ছে। একটি চুক্তি সরাসরি টিকা ক্রয়-বিষয়ে এবং আরেকটি বাংলাদেশে চিনা টিকা উৎপাদন নিয়ে।

Loading videos...

চিনের টিকা (Chinese vaccine) কবে নাগাদ আসতে পারে জানতে চাওয়া হলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, “আমরা প্রস্তাব করেছি জুন-জুলাই থেকে আমাদের টিকা দেওয়ার জন্য। তাদের অনুমতি সাপেক্ষে আমরা ধীরে ধীরে টিকার চালান পাব। জুন-জুলাই মাস থেকে কিছু টিকা দিতে তারা রাজি হয়েছে।”

এ দিকে পাঁচ লাখ ডোজ করোনা টিকা আনতে চিনের উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছে বাংলাদেশ বিমানবাহিনীর পরিবহন বিমান সি-১৩০জে। মঙ্গলবার সকাল ৮টা ১২ মিনিটে বিমানটি চিনের পথে যাত্রা করে। বাংলাদেশকে সিনোফার্মের এই টিকা উপহার দিচ্ছে চিন।

আরও পড়ুন: Bangladesh-China Relation: চিনের এমন আচরণ আশা করেনি বাংলাদেশ

Continue Reading

বাংলাদেশ

Bangladesh-China Relation: চিনের এমন আচরণ আশা করেনি বাংলাদেশ

চিনের বক্তব্যকে ‘আগ বাড়িয়ে কথা বলা’ হিসেবে বর্ণনা করেছেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন

Published

on

ঋদি হক: ঢাকা 

যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন জোট কোয়াড (QUAD, Quadilateral Security Dialogue) নিয়ে চিনের বক্তব্যকে ‘আগ বাড়িয়ে কথা বলা’ হিসেবে বর্ণনা করেছেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী (Bangladesh foreign minister) ড. এ কে আবদুল মোমেন (Dr. A K Abdul Momen)।

Loading videos...

ড. মোমেন বলেন, চিনের কাছ থেকে এমন বক্তব্য দুঃখজনক। বিদেশমন্ত্রী ড. মোমেনের সাফ কথা, আগ বাড়িয়ে কথা বলেছে চিন। তবে এ নিয়ে এখনই চিনকে আনুষ্ঠানিক ভাবে কিছু বলা হবে কিনা তা স্পষ্ট করেননি বিদেশমন্ত্রী।

চিনের মন্তব্যের ঠিক পরের দিনই রাষ্ট্রীয় অতিথিভবন ‘পদ্মা’য় এক সাংবাদিক বৈঠকে ড. মোমেন এ বিষয়ে কথা বলেন। তিনি বলেন, “দেশের মঙ্গলের জন্য আমরা কী কাজ করব না করব, আমাদের মৌলিক অবস্থানের ভিত্তিতে সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেব।”

এ সময় ড. মোমেন উদাহরণ টেনে বলেন, এক সময় ভারতকে গ্যাস দিতে বাংলাদেশকে চাপ দিয়েছিল যুক্তরাষ্ট্র। বিদেশমন্ত্রী বলেন, আমেরিকানরা জোর দিয়ে বলেছিল ইন্ডিয়াকে গ্যাস দিতে হবে। সে সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমেরিকার মতো শক্তিকে বলেছিলেন, ‘আমি আমার দেশের লোকের ৫০ বছরের গ্যাস মজুত করার পরে চিন্তা করব কাকে দেব, কাকে দেব না। আপনারা বলার কে?’  

বিদেশমন্ত্রী বলেন, “অন্যরা যা-ই বলুক না কেন আমরা আমাদের মতো চলব। আমরা খুব ভাগ্যবান যে, এ রকম একজন লিডার পেয়েছি। প্রধানমন্ত্রী দেশের স্বার্থেই কাজ করবেন। চিনের কাছ থেকে আমরা এ ধরনের আচরণ আশা করিনি। এটা দুঃখজনক।”

চিনকে এ ব্যাপারে কোনো বার্তা দেওয়া হবে কিনা জানতে চাওয়া হলে বিদেশমন্ত্রী বলেন, “আমরা কী করি, না করি সব মিডিয়াকে বলি না। আমরা জানি, আমরা কী করব। সব কিছু বলে দিলে তো হয় না।”

বিদেশমন্ত্রী বলেন, “এমনিতে চিন কখনও অন্যের বিষয়ে নাক গলায় না। আর এ রকম কখনও কাউকে বলতে শুনিনি। আমরা কী করব, না করব সেটা আরেক জন বড়ো করে বলছেন। চিনের কাছ থেকে আমরা এই ব্যবহার আশা করিনি।”

উল্লেখ্য, সোমবার সাংবাদিকদের সঙ্গে ভার্চুয়াল মতবিনিময় সভায় বাংলাদেশে নিযুক্ত চিনের রাষ্ট্রদূত লি জিমিং বলেন, কোয়াডে বাংলাদেশের যুক্ত হওয়া ঠিক হবে না। যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন জাপান, ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার কৌশলগত জোট কোয়াডকে চিনবিরোধী একটি ছোটো গোষ্ঠী হিসেবে বিবেচনা করে বেজিং। তাই চিন মনে করে, এতে যে কোনো ভাবে বাংলাদেশের যোগদান ঢাকা-বেজিং সম্পর্ককে যথেষ্ট খারাপ করবে।

আরও পড়ুন: Bangladesh-China relation: বিরোধী জোটে যুক্ত হলে সম্পর্কের অবনতি হবে, বাংলাদেশকে হুঁশিয়ারি চিনের

Continue Reading

বাংলাদেশ

Bangladesh Covid Situation: স্বাস্থ্যবিধি না মেনে বেপরোয়া চলাচল সুইসাইডের শামিল, মনে করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী

মার্কেট, বিপণী-বিতান, যানবাহন, বিভাগীয় শহরের মার্কেট – সর্বত্রই মানুষের মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি না-মানার প্রতিযোগিতা।

Published

on

ঈদে ঘরে ফেরার ভিড়।

ঋদি হক: ঢাকা

ঈদে (Eid) ঘরমুখো মানুষের স্রোত নেমেছে কয়েক দিন আগে থেকেই, যার সাক্ষী দেশের ফেরিঘাটগুলো। মানুষের চাপে শববাহী গাড়ি ও অ্যাম্বুলেন্স-সহ জরুরি যানের পারাপারে সমস্যা দেখা দিচ্ছে। ঘরমুখো মানুষ স্বাস্থ্যবিধি তোয়াক্কা না করে এতটাই গাদাগাদি করে পদ্মা পার হচ্ছে, করোনা-দুনিয়ায় তা রীতিমতো ভয়ানক চিত্র। মার্কেট, বিপণী-বিতান, যানবাহন, বিভাগীয় শহরের মার্কেট – সর্বত্রই মানুষের মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি না-মানার প্রতিযোগিতা।

Loading videos...

এ অবস্থায় ঘরমুখো মানুষের বেপরোয়া চলাচলকে সুইসাইডের শামিল বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী (Bangladesh health minister) জাহিদ মালেক (Zahid Malek)। তিনি আক্ষেপের সুরে বলেন, লকডাউনের সামান্য শিথিলতার সুযোগ নিয়ে স্বাস্থ্যবিধির তোয়াক্কা না করে যাতায়াত চলছে। তাতে ঈদের পর করোনার প্রাদুর্ভাব ঠেকানো কষ্টসাধ্য ব্যাপার হয়ে উঠবে। এটি রীতিমতো সুইসাইডের শামিল।

ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট রুখতে করণীয় বিষয় নিয়ে বৈঠক

ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট রুখতে করণীয় বিষয় নিয়ে বাংলাদেশের চারটি সীমান্ত জেলার বিভাগীয় উচ্চপদন্থ কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠককালে এ সব কথা তুলে ধরেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, সারা দেশের শহরাঞ্চলের মানুষ বেপরোয়া। ও দিকে পড়শি দেশ ভারতে নতুন ভ্যারিয়েন্টের কারণে প্রতি দিন বহু মানুষ মারা যাচ্ছে। আরেক দেশ নেপালের অবস্থাও খারাপ। সেখানেও ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়েছে। এরই মধ্যে ভারত-ফেরত বাংলাদেশি মানুষের মাধ্যমে ভাইরাস চলে এসেছে। এই রকম জটিল সময়ে মানুষ গ্রামে গিয়ে পরিবার পরিজন-সহ আরও মানুষজনকে গণহারে আক্রান্ত করতে পারে, এমনই আশঙ্কা প্রকাশ করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

আলোচনায় যোগ দিয়ে খুলনার বিভাগীয় কমিশনার জানান, ভারতে যাতায়াত করেছেন এমন ২৭০০ জনকে হোম কোয়ারান্টাইনে রাখা হয়েছে। তাঁদের ওপর সর্বক্ষণ নজরদারি চলছে। তা ছাড়া ভারত থেকে স্থলবন্দর দিয়ে আসা পণ্যবাহী ট্রাকের ড্রাইভার-হেল্পারদেরও কঠোর ভাবে আইসোলেশন রাখার ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

ভারত থেকে যে সব ব্যক্তি ফিরে এসেছেন, জরুরি ভিত্তিতে তাঁদের পরিবার-সহ সকল সদস্যকে বাধ্যতামূলক করোনা পরীক্ষার আওতায় আনার নির্দেশ দেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। সীমান্ত এলাকার যানবাহনের অন্য জেলায় যাতায়াত বন্ধ করার নির্দেশ দেন। দেশের নিরাপত্তার স্বার্থে সীমান্ত সংশ্লিষ্ট আধিকারিকদের সঠিক ভাবে দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি কঠোর সিদ্ধান্ত নেওয়ারও নির্দেশ দেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

আরও পড়ুন: Bangladesh-China relation: বিরোধী জোটে যুক্ত হলে সম্পর্কের অবনতি হবে, বাংলাদেশকে হুঁশিয়ারি চিনের

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
বাংলাদেশ7 hours ago

Bangladesh Covid Vacination: টিকা ট্রায়ালে চিন অর্থ চাওয়ায় রাজি হয়নি বাংলাদেশ

বাংলাদেশ7 hours ago

Bangladesh-China Relation: চিনের এমন আচরণ আশা করেনি বাংলাদেশ

দেশ10 hours ago

G-7 Summit: পর্তুগালের পর ইংল্যান্ড যাচ্ছেন না প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

বিজ্ঞান10 hours ago

জানেন কি, কোভিড থেকে সুস্থ হওয়ার পর অ্যান্টিবডিগুলি কত দিন পর্যন্ত রক্তে থেকে যায়

রাজ্য11 hours ago

Bengal Corona Update: কুড়ি হাজারের গণ্ডি পেরোল দৈনিক সংক্রমণ, প্রচুর টেস্টর ফলে সংক্রমণের হার ৩০ শতাংশের নীচে

coronavirus test
দেশ12 hours ago

আক্রান্তদের ফের আরটি-পিসিআর নয়, কোভিড টেস্টে নয়া নির্দেশ কেন্দ্রের

বিনোদন12 hours ago

‘রাধে’র বক্স অফিস কালেশন হতো ‘জিরো’, হল মালিকদের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী সলমন খান

দেশ13 hours ago

Vaccination Drive: জোগান নেই, মহারাষ্ট্রে বন্ধ হয়ে গেল কমবয়সিদের টিকাকরণ

বিজ্ঞান3 days ago

কোভিডের ভাইরাস বায়ুবাহিত, ৬ ফুট পর্যন্ত ছড়াতে পারে, দাবি শীর্ষ মার্কিন সংস্থার

রাজ্য2 days ago

Bengal Corona Update: নতুন করে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় একই, রাজ্যে বাড়ল সুস্থতা

ক্রিকেট2 days ago

বিরাট-রোহিত ছাড়াই এক নতুন ভারতীয় দলকে জুলাইয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলতে দেখা যাবে!

দেশ23 hours ago

Covid Crisis: অক্সিজেনের অভাবে ১১ কোভিডরোগীর মৃত্যু অন্ধ্রপ্রদেশের হাসপাতালে

প্রবন্ধ3 days ago

এমনই বৈশাখের একটি দিনে মুখোমুখি হয়েছিলেন রবীন্দ্রনাথ ও শ্রীরামকৃষ্ণ

Madhyamik examination west bengal
শিক্ষা ও কেরিয়ার15 hours ago

Madhyamik 2021: আপাতত সম্ভব নয় মাধ্যমিক পরীক্ষা, সরকারের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় পর্ষদ

দেশ22 hours ago

Covid Crisis: সংক্রমণের ধার কমাতে একটি বিশেষ ওষুধে ছাড়পত্র দিল গোয়া, খেতে হবে সবাইকে

দেশ3 days ago

ভ্যাকসিন এবং কোভিডের চিকিৎসা সরঞ্জামে ট্যাক্স কেন? মমতার চিঠির পর ১৬টা টুইট কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর

ভিডিও

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 months ago

বাজেট কম? তা হলে ৮ হাজার টাকার নীচে এই ৫টি স্মার্টফোন দেখতে পারেন

আট হাজার টাকার মধ্যেই দেখে নিতে পারেন দুর্দান্ত কিছু ফিচারের স্মার্টফোনগুলি।

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা4 months ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা4 months ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা4 months ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা4 months ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা4 months ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

নজরে