ঋদি হক: ঢাকা

টিকা-কূটনীতিতে (vaccine dipolmacy) ভারত যখন এগিয়ে, সেই মুহূর্তে বাংলাদেশকে (Bangladesh) করোনা-প্রতিরোধী টিকা সহায়তা দিতে আলোচনা করছে চিন (China)। তবে এটা ঠিক, টিকা-কূটনীতিতে রাশিয়া ও চিনকে ছাড়িয়ে গিয়েছে ভারত।

শুক্রবার চিনের নববর্ষ। এই উপলক্ষ্যে ঢাকায় নিযুক্ত দেশটির রাষ্ট্রদূত (Chinese ambassador) লি জিমিং (Li Jiming) এক ভিডিও বার্তায় জানান, টিকা নিয়ে বাংলাদেশের সঙ্গে চিনের বিশদ আলোচনা হয়েছে। চিনা ঐতিহ্য হিসেবে এ বছরের নববর্ষ ষাঁড় বা গোরুর বছর হিসেবে চিহ্নিত হয়েছে।  

ওই ভিডিও বার্তায় রাষ্ট্রদূত আরও বলেন, “ভ্যাকসিন সহায়তা নিয়ে আমরা এখন বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে গভীর আলোচনা করছি। আজকের দিনটি চিনের সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন। উন্নয়নশীল দেশের জন্য কোভ্যাক্স উদ্যোগের আওতায় ১ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন দেওয়ার ঘোষণা করেছে চিন।”

উল্লেখ্য, এরই মধ্যে ভারতের সেরাম থেকে তিন কোটি ডোজ অক্সফোর্ড টিকা  কিনছে বাংলাদেশ। যার মধ্যে ৫০ লাখ ডোজ ইতিমধ্যেই দেশে পৌঁছে গেছে। বাকি টিকা পর্যায়ক্রমে আসবে।

এ দিকে ভারতের উপহার হিসেবে দেওয়া ২০ লাখ ডোজ টিকা এবং ভারত থেকে কেনা ৫০ লাখ ডোজ, মোট ৭০ লাখ ডোজ টিকার মজুত নিয়ে ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে দেশব্যাপী একযোগে টিকাপ্রদান উৎসব শুরু করেছে বাংলাদেশ। ভারত থেকে ৩ কোটি ডোজ টিকা কেনার পাশাপাশি রাশিয়া, চিন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র-সহ বিভিন্ন দেশের কাছ থেকে টিকা সংগ্রহের ব্যাপারে যোগাযোগ করে চলেছে বাংলাদেশ।

৩৪২ দিনে সব চেয়ে কম মৃত্যু

বাংলাদেশে করোনা সংক্রমণ শুরুর তারিখ ধরা হয় ৮ মার্চ, ২০২০। তার ১০ দিনের মাথায় প্রথম মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়। বাংলাদেশে করোনা ছড়িয়ে পড়ার ৩৪২ দিনের মাথায় শুক্রবার মারা গেছেন মাত্র ৫ জন। সংক্রমণের হারও নেমে এসেছে ২.৮২ শতাংশে। সুস্থতার হারও বেড়েছে।

সরকারি হিসাবে এ পর্যন্ত করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৮২৫৩ জনের। এ পর্যন্ত মোট শনাক্তর সংখ্যা ৫ লাখ ৩৯ হাজার ৯৭৫ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ৪ লাখ ৮৬ হাজার ৩৯৩ জন। স্বাস্থ্য অধিদফতর জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত সংক্রমণের সামগ্রিক হার ১৪,১৩ শতাংশ। সুস্থতার হার ৯০.০৮ শতাংশ আর মৃত্যুর হার ১.৫৩ শতাংশ।

দেশে বর্তমানে ২১০টি পরীক্ষাগারে করোনার নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে। আরটি-পিসিআরের মাধ্যমে পরীক্ষা হচ্ছে ১১৬টি পরীক্ষাগারে, জিন-এক্সপার্ট মেশিনের মাধ্যমে পরীক্ষা হচ্ছে ২৯টি পরীক্ষাগারে। র‍্যাপিড অ্যান্টিজেনের মাধ্যমে পরীক্ষা হচ্ছে ৬৫টি পরীক্ষাগারে।

২৪ ঘণ্টায় ১৪৩২৮টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এখন পর্যন্ত দেশে করোনার মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৩৮,২২,৩৪৫। মৃতদের মধ্যে পুরুষ ৬২৫২ জন, নারী ২০০১ জন। শতকরা হিসাবে পুরুষ ৭৫.৭৫, আর নারী ২৪.২৫ শতাংশ।

ভ্যাকসিন নিলে কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে না

করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন নেওয়া কেউ করোনা-আক্রান্ত ব্যক্তির সংস্পর্শে এলেও কোয়ারেন্টাইনের প্রয়োজন নেই বলে জানিয়েছে মার্কিন রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ সংস্থা সিডিসি। করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন নেওয়া হলেও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার নির্দেশনা বিশেষজ্ঞরা আগেই দিয়েছিলেন। তবে এ বার মার্কিন গবেষকরা টিকা নেওয়া ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টাইনের প্রয়োজনীয়তা নিয়ে ব্যাখ্যা দিয়েছেন।

মার্কিন রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ সংস্থা সিডিসি জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রে যাঁরা ভ্যাকসিনের পূর্ণ ডোজ সম্পন্ন করেছেন তাঁরা কেউ কোভিড আক্রান্ত ব্যক্তির সংস্পর্শে এলেও ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে যেতে হবে না। তবে এই ১৪ দিনে করোনার কোনো লক্ষণ দেখা দেয় কিনা খেয়াল রাখতে হবে। লক্ষণ দেখা দিলে অবশ্যই কোয়ারেন্টাইনে যেতে হবে।

আরও পড়ুন: টিকা নিলেন বাংলাদেশের নৌ প্রতিমন্ত্রী, প্রধান নির্বাচন কমিশনার

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন