প্রতীকী ছবি

কলকাতা: বস্ত্র রফতানির ক্ষেত্রে কলকাতা এবং হলদিয়া বন্দর ব্যবহার করার জন্য বাংলাদেশের কাছে আবেদন জানাল ভারত। যদিও এই ব্যাপারে বাংলাদেশের তরফ থেকে এখনও কিছু জানানো হয়নি।

এই মুহূর্তে চট্টগ্রাম বন্দর দিয়ে এই রফতানির কাজ হয়। কিন্তু সেখান দিয়ে রফতানির কাজে বিস্তর সমস্যা। সড়কপথে চট্টগ্রাম যাওয়া, তার পর সেখান থেকে জাহাজে রওনা হওয়া। সব মিলিয়ে দশ-বারো দিনের ধাক্কা। কিন্তু কলকাতা বা হলদিয়া বন্দর থেকে এই রফতানি হলে তিন-চার দিনের মধ্যে পুরো ব্যাপারটা সম্পন্ন করা যাবে।

সূত্রের খবর, ঢাকার অদূরে বুড়িগঙ্গা নদীর উপরে রয়েছে পানগাঁও বন্দর। সেই নদীবন্দর কার্যত খালি পড়ে থাকে। যদি বার্জে করে পানগাঁও থেকে হলদিয়ায় কন্টেনার আনা যায়, তা হলে সড়কপথ এড়ানো যাবে, জলপথেও পূর্ব উপকূলে এগিয়ে আসা যাবে অনেকটা। বেশ কিছু কন্টেনার জড়ো হলে হলদিয়া থেকে তা বড়ো জাহাজে চলে যেতে পারে ইউরোপ-আমেরিকায়। তাতে খরচও কমবে রফতানিকারীদের।

আরও পড়ুন দেওয়ালে ধাক্কা বিমানের, জোর রক্ষা ১৩০

ভারতের এই প্রস্তাবে রাজি হলে কলকাতা এবং হলদিয়া থেকে কলম্বো বা সিঙ্গাপুরের জাহাজে উঠে পড়তে পারে বস্ত্রসামগ্রী। কিন্তু এই প্রস্তাবে এখনও সম্মতি জানায়নি বাংলাদেশ। ওয়াকিবহাল মহলের মতে, এই মুহূর্তে নির্বাচনের প্রস্তুতি চলছে বাংলাদেশে। নির্বাচনের আগে বাংলাদেশ সরকার, আমদানি-রফতানিতে তৃতীয় দেশের হস্তক্ষেপের বিরুদ্ধে। নির্বাচন হয়ে গেলে এই নিয়ে ভাবা যেতে পারে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন