ঢাকা: যাত্রীবাহী লঞ্চে বিধ্বংসী আগুনের জেরে প্রাণ হারালেন অন্তত ৩৬ জন। আহত হয়েছেন ৯০ জন। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে এই ঘটনাটি ঘটেছে বাংলাদেশের ঝালকাঠিতে। মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলে আশংকা করা হচ্ছে। ওই লঞ্চের বেশ কয়েক জন যাত্রী এখনও নিখোঁজ।

‘এমভি-১০ অভিযান’ নামে একটি লঞ্চ হাজার খানেক যাত্রী নিয়ে ঢাকা থেকে বরগুনা যাচ্ছিল। সুগন্ধী নদীতে যাওয়ার সময় আগুন লাগে ওই লঞ্চে। পরে লঞ্চটিকে দিয়াকুল গ্রামে নোঙর করানো হয়। আগুন লাগার পর অনেক যাত্রী নদীতে ঝাঁপ দেন।

আহতের মধ্যে ৭৫ জনকে বরিশালের শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল এবং ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে আরও ১৫ জনকে ভর্তি করা হয়েছে।

খবর পেয়ে দমকলের পাঁচটি ইউনিট আগুন নেভানোর কাজ শুরু করে। ভোর ৫টা থেকে সাড়ে ৫টার মধ্যে লঞ্চের আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়েছে বলে জানিয়েছেন সে দেশের দমকল কর্তারা। যদিও ঘন কুয়াশার কারণে উদ্ধারকাজ করতে বেগ পেতে হয়েছে বলে জানিয়েছেন তাঁরা।

কী কারণে আগুন লাগল সে বিষয়ে এখনও পর্যন্ত কিছু জানা যায়নি। তবে লঞ্চের ইঞ্জিন থেকেই আগুন লেগেছে বলে প্রাথমিক অনুমান দমকল কর্তাদের।

আরও পড়তে পারেন:

ফোঁসফাঁস করছেন রাজ্যপাল! বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য পদ থেকে সরানোর ভাবনা রাজ্যের

তৃণমূলের শক্তিবৃদ্ধি পাহাড়ে, ঘাসফুলে যোগ বিনয় তামাং ও রোহিত শর্মার

কলকাতায় তাপমাত্রা থাকল চোদ্দোর নীচেই, তবে একের পর এক পশ্চিমী ঝঞ্ঝায় বছর শেষে স্তব্ধ হবে শীত

ফের কিছুটা কমল দৈনিক সংক্রমণ, কমল সক্রিয় রোগীর সংখ্যাও

পশ্চিমবঙ্গের কোন পুরসভায় ভোট কবে, এক নজরে দেখে নিন

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন