করোনাভাইরাস: ভারতের পড়শি দেশগুলির কী অবস্থা?

প্রতীকী ছবি

খবর অনলাইনডেস্ক: ভারতে তো করোনাভাইরাস (Coronavirus) তার জাল বিস্তার করছেই। একবার দেখে নেওয়া যাক ভারতের পড়শি দেশগুলোর কী অবস্থা। এই তালিকা থেকে অবশ্য চিনকে বাদ রাখা হল।

পাকিস্তান – আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে ভারত আর পাকিস্তান (Pakistan) সেয়ানে সেয়ানে। কিন্তু জনসংখ্যা বিচার করলে পাকিস্তানের পরিস্থিতি বেশ খারাপ। সে দেশে এখনও পর্যন্ত কোভিড ১৯-এ আক্রান্ত হয়েছেন ২,১০৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ২৬ জনের। পঞ্জাব প্রদেশে ৭৪০ জন আক্রান্ত, সিন্ধু প্রদেশে আক্রান্ত ৭০৪। খাইবার-পাখতুনখোয়াতে ২৫৩, বালুচিস্তানে ১৫৮, গিলগিট-বালটিস্তানে ১৮৪, ইসলামাবাদে ৫৪ আর পাক অধিকৃত কাশ্মীরে আক্রান্ত ৬।

আফগানিস্তান (Afghanistan) – আক্রান্তের সংখ্যা ১৯৬। মৃত্যু হয়েছে তিন জনের। এর মধ্যে শুধুমাত্র হেরত প্রদেশেই আক্রান্ত ১৪৩। আগামী দিনে আক্রান্তের সংখ্যা বিপুল ভাবে বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

শ্রীলঙ্কা (Sri Lanka) – আক্রান্তের সংখ্যা ১৪৩। তবে মঙ্গলবার ২১ জন আক্রান্ত হয়েছিলেন, যা এখনও পর্যন্ত সে দেশে এক দিনের সর্বোচ্চ। কোভিড ১৯-এ এখনও পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে এক জনের।

বাংলাদেশ (Bangladesh) – জনসংখ্যার বিচার করলে বুঝতে হবে এই দেশে করোনা পরিস্থিতি অনেকটাই ভালো। এখনও পর্যন্ত বাংলাদেশ কোভিড ১৯-এ আক্রান্তের সংখ্যা ৫৪, যাঁদের মধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২৬। তবে মৃত্যু হয়েছে ৬ জনের।

মালদ্বীপ (Maldives) – আক্রান্তের সংখ্যা মাত্র ১৭। এর মধ্যে রোগমুক্ত হয়েছেন ৯ জন। মৃত্যু নেই।

নেপাল (Nepal) – আক্রান্তের সংখ্যা পাঁচ। মৃত্যু নেই। তবে ঝুঁকি না নিয়ে ভারতের সঙ্গে সঙ্গেই লকডাউন ঘোষণা করেছিল নেপাল সরকারও। ফলে করোনা পরিস্থিতি নেপালে বেশি খারাপ হবে না বলেই আশা করছে স্থানীয় সরকার।

আরও পড়ুন বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম বস্তিতে ঢুকে পড়ল করোনাভাইরাস, চিন্তায় প্রশাসন

ভুটান (Bhutan) – আক্রান্তের সংখ্যা মাত্র চার। কারও মৃত্যু হয়নি।

মায়ানমার (Myanmar)- মায়ানমারের মতো বড়ো দেশে আক্রান্তের সংখ্যা মাত্র ১৫। মৃত্যু হয়েছে ১ জনের। তবে ওয়াকিবহাল বহলের বক্তব্য, প্রথম দিকে ইচ্ছে করেই করোনাভাইরাস সংক্রান্ত খবর চেপে যায় এই দেশটি।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.