ভারতের ছোটো এবং মাঝারি উদ্যোগগুলিকে অনুদান দিচ্ছে ফেসবুক! কারা, কী ভাবে আবেদন জানাবে?

0

খবর অনলাইন ডেস্ক: চলমান কোভিড-১৯ মহামারির জোরালো প্রভাব পড়েছে ছোটো এবং মাঝারি মাপের উদ্যোগগুলিতে (SME)। এ ধরনের সংস্থাগুলিকে অক্সিজেন জোগাতে বিশ্ব জুড়ে অনুদান কর্মসূচি চালু করেছে অন্যতম সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম ফেসবুক ( Facebook)। মঙ্গলবার ভারতে সেই কর্মসূচিতে আবেদন জানানোর পদ্ধতি শুরু হল।

করোনা আবহে বিশ্বের প্রায় ৩০টি দেশের ৩০ হাজার ছোটো এবং মাঝারি উদ্যোগের জন্য অনুদান হিসেবে ১০ কোটি ডলার বরাদ্দ করেছে ফেসবুক।

কী উদ্দেশে অনুদান?

গুডএরার সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে এই অনুদান তুলে দিচ্ছে ফেসবুক। ছোটো অথবা মাঝারি উদ্যোগ নিজের কর্মীদের বেতন, অফিস বা কারখানার ভাড়া মেটানোর মতো কাজগুলিতে অনুদানের টাকা ব্যবহার করতে পারবে। অন্য দিকে এ ধরনের উদ্যোগের যে সম্মিলিত গোষ্ঠীগুলি রয়েছে, সেখানেও শামিল হতে পারবে।

আবেদন জানানোর সময়সীমা

ভারতের ছোটো এবং মাঝারি উদ্যোগগুলি ১৫-২১ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত অনুদানের জন্য আবেদন জানাতে পারবে।

কত টাকা অনুদান?

অনুদান পাওয়ার জন্য নির্বাচিত উদ্যোগীরা ৬৩ হাজার টাকা এবং পেসবুকে বিজ্ঞাপনের জন্য ঐচ্ছিক ভাবে আরও ৩৮ হাজার টাকা পেতে পারেন। তবে কোনো সংস্থা যদি ফেসবুকে না থাকে, তা হলেও এই অনুদান পাওয়ার যোগ্য হিসেবে বিবেচিত হতে পারে।

কারা আবেদন জানাবে?

১. যে উদ্যোগে ১ জানুয়ারি, ২০২০ থেকে ২-৫০ জন কর্মী রয়েছেন।

২. এক বছরের বেশি সময় ধরে ব্যবসাটি চলছে।

৩. ফেসবুক যে এলাকা থেকে কাজ করে থাকে, যেমন নয়াদিল্লি, গুরুগ্রাম, মুম্বই, হায়দরাবাদ, বেঙ্গালুরুর কাছাকাছি অবস্থান হতে হবে।

৪. জিএসটি রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট থাকতে হবে।

৫. উদ্যোগের প্যান থাকতে হবে।

৬. একটি লাভজনক সংস্থা হতে হবে।

আবেদন জানানোর সাত-সতের

১. একটি উদ্যোগ শুধুমাত্র একটি ব্যবসার জন্যেই আবেদন জানাবে। একাধিক ছোটো উদ্যোগের মালিকরা যে কোনো একটিকেই বেছে নেবেন। নইলে ফেসবুক সেগুলিকে নকল বা একাধিক আবেদন হিসেবে ধরে নেবে।

২. ফেসবুক আবেদনগুলি যাচাই করবে। ফলে কোনো আবেদনকারীর নাম অবশ্যই ব্যবসার নথিতে উল্লেখ থাকতে হবে।

৩. আবেদনের পরেও ফেসবুক আবেদন যাচাইয়ের জন্য অতিরিক্ত তথ্য জানতে চাইতে পারে। আবেদনকারীকে নিজের মোবাইল এবং আধার কার্ড নম্বর দিতে হবে।

৪. যে কোনো ধরনের বার্তা মোবাইলে এসএমএস এবং ই-মেল মারফত পাঠাবে ফেসবুক।

৫. অতিরিক্ত তথ্যের জন্য একটি কঠোর সময়সীমা নির্ধারণ করেছে ফেসবুক। আবেদনকারীকে ই-মেলে জানতে চাওয়া তথ্য ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে পাঠাতে হবে।

আরও পড়তে পারেন: আচমকা কাজ হারানোর সম্ভাবনা রয়েছে? প্রস্তুতি নিতে এই ৫টি টিপসে চোখ বুলিয়ে নিন

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন