Connect with us

শিল্প-বাণিজ্য

সস্তা হচ্ছে এসবিআই গৃহঋণ

গৃহঋণের সুদের হারে ২৫ বিপিএস ছাড় পাবেন গ্রাহকরা।

Published

on

sbi

খবর অনলাইন ডেস্ক: গৃহঋণের (home loan) সুদে ২৫ বেসিস পয়েন্ট (bps) পর্যন্ত ছাড়ের ঘোষণা করল দেশের বৃহত্তম রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া (SBI)।

বুধবার এসবিআই ঘোষণা করে, ৭৫ লক্ষ টাকার উপর গৃহঋণের সুদের হারে ২৫ বিপিএস ছাড় পাবেন গ্রাহকরা। তবে এর জন্য ব্যাঙ্কের ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম ইয়নো (YONO)-র মাধ্যমে আবেদনকারীর সিবিল স্কোর (CIBIL score)-এর উপর ভিত্তি করেই উপযুক্ত গ্রাহকরা এই ছাড় পেতে পারেন।

Loading videos...

উৎসবকালীন অফারে বেশ কয়েকটি সুযোগ ঘোষণা করেছে এসবিআই। ৩০ লক্ষ থেকে ২ কোটি টাকা পর্যন্ত গৃহঋণের ক্ষেত্রে ক্রেডিট স্কোর (credit score) ভিত্তিক ছাড়ের পরিমাণ ১০ বিপিএস থেকে বাড়িয়ে ২০ বিপিএস করা হয়েছে।

এই একই সুবিধার আওতায় দেশের আটটি মেট্রো শহরের গ্রাহকদের জন্য ৩ কোটি টাকা পর্যন্ত গৃহঋণের উপর আরও ৫ বিপিএস ছাড় ঘোষণা করেছে ব্যাঙ্ক। এই অতিরিক্ত ৫ বিপিএস ছাড়ের সুযোগ শুধুমাত্র ইয়নো-র মাধ্যমে গৃহঋণের আবেদনের ক্ষেত্রেই পাওয়া যাবে বলে জানানো হয়েছে।

এসবিআই জানিয়েছে, অফারের আওতায় কোনো গ্রাহক ৩০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত গৃহঋণের ক্ষেত্রে সর্বনিম্ন ৬.৯০ শতাংশ এবং ৩০ লক্ষ টাকার উপর গৃহঋণের ক্ষেত্রে সর্বনিম্ন ৭ শতাংশ পর্যন্ত সুদের হারে ঋণ নিতে পারেন।

প্রসঙ্গত, উৎসবকালীন অফারে গত মাসে খুচরো ঋণগ্রহীতাদের জন্য প্রসেসিং ফি-এর ১০০ শতাংশ পর্যন্ত মকুবের ঘোষণা করে এসবিআই। তবে সে ক্ষেত্রে গ্রাহককে গাড়ি, সোনা অথবা ব্যক্তিগত ঋণ নেওয়ার আবেদন জানানোর জন্য ইয়নো ব্যবহার করতে হবে।

আরও পড়তে পারেন: যে কোনো ঠিকানাতেই মিলবে এসবিআই চেকবুক, আবেদন জানাবেন কী ভাবে?

গাড়ি ও বাইক

মৃত্যুর পর গাড়ির মালিক কে? এ বার আগে থেকেই তা নির্ধারণ করা যাবে

ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের ক্ষেত্রে ঠিক যে ভাবে নমিনি বা মনোনীত ব্যক্তি বেছে নেওয়া যায়, একই রকম ভাবে গাড়ির ক্ষেত্রেও তা প্রযোজ্য হচ্ছে।

Published

on

Car dealer

খবর অনলাইন ডেস্ক: মালিকের মৃত্যুর পর গাড়ির মালিকানা কার হাতে যাবে? তা নিয়ে যাবতীয় ধন্ধ কাটানো যেতে পারে মৃত্যুর আগেই। গাড়ির মালিকেরা রেজিস্ট্রেশনের সময় অথবা তার পরে নিজের গাড়ির উত্তরসূরি মনোনীত করে সেই তথ্য আপডেট করতে পারবেন। কেন্দ্রের সড়ক পরিবহণ ও জাতীয় সড়ক মন্ত্রকের তরফে ৮ এপ্রিল গেজেট বিজ্ঞপ্তি দিয়ে সেন্ট্রাল মোটর ভেহিকলস রুলস, ১৯৮৯-এর সংশোধনী জারি করেছে।

জানানো হয়েছে, গাড়ির মালিক যানবাহনের রেজিস্ট্রেশনের সময় মনোনীত ব্যক্তির নাম রাখতে পারেন। তবে একটা অনলাইন অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে পরবর্তী সময়েও সেটা করা যেতে পারে।

Loading videos...

এই সংশোধনীর মাধ্যমে মালিকের মৃত্যুর ক্ষেত্রে যানবাহনটি মনোনীত ব্যক্তির নামে রেজিস্ট্রেশন বা ট্রান্সফার প্রক্রিয়াকে আরও সহজ করে তুলবে। ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের ক্ষেত্রে ঠিক যে ভাবে নমিনি বা মনোনীত ব্যক্তি বেছে নেওয়া যায়, একই রকম ভাবে গাড়ির ক্ষেত্রেও তা প্রযোজ্য হচ্ছে।

আইন সংশোধনের আগে অবশ্য এই সুবিধাটি পাওয়া যেত না। কারণ, এটা ছিল একটা জটিল প্রক্রিয়া। দেশের বিভিন্ন জায়গায় এ ব্যাপারে ভিন্ন ভিন্ন পদ্ধতি ছিল। যে কারণে, মালিকের মৃত্যুর পর তা হস্তান্তরের প্রক্রিয়াটি ছিল বেশ লম্বা। এর জন্য ঘন ঘন সংশ্লিষ্ট অফিসে গিয়ে তাগাদা দিতেও হতো।

কী ভাবে ঘটবে মালিকানা হস্তান্তর?

যানবাহনের মালিকের মৃত্যুর পরে মনোনীত ব্যক্তির কাছে মালিকানা হস্তান্তর কী ভাবে ঘটবে, তা সংক্ষেপে দেখে নেওয়া যাক।

প্রকৃত মালিকের মৃত্যুর পর মনোনীত ব্যক্তি পুরনো রেজিস্ট্রেশনেই গাড়িটি ব্যবহার করতে পারবেন। তবে এই সময়কাল মালিকের মৃত্যুর পর থেকে সর্বোচ্চ তিন মাস। এরই মধ্যে ৩০ দিনের ভিতর সংশ্লিষ্ট রেজিস্ট্রেশন কর্তৃপক্ষকে মালিকের মৃত্যুর ব্যাপারে নথি-সহ অবগত করতে হবে। পাশাপাশি মৃত্যুর আগে মালিক যে তাঁকে মনোনীত করে গিয়েছেন, সেটাও জানাতে হবে।

গাড়িটির দখল নিয়ে মামলাও হতে পারে। তবে মোটর গাড়ির মালিকের মৃত্যুর পরে তিন মাসের মধ্যে মালিকানা হস্তান্তরের জন্য ‘ফরম ৩১’ ব্যবহার করে আবেদন করতে হবে।

ফরমের পাশাপাশি কী কী দিতে হবে?

রুল নম্বর ৮১-তে উল্লিখিত উপযুক্ত ফি।

গাড়ি মালিকের মৃত্যুর শংসাপত্র।

রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট।

বিমা সার্টিফিকেট।

ড্রাইভিং লাইসেন্স এবং ই-রিকশা ও ই-কার্টের ক্ষেত্রে পারমিট।

রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেটে উল্লেখ করা হবে মনোনীত ব্যক্তির পরিচয়ের প্রমাণ।

আরও পড়তে পারেন: জীবন বিমা পলিসি কত রকমের হয়? কেনার সময় নিজের প্রয়োজনীয়তার কথা মাথায় রাখুন

Continue Reading

শিল্প-বাণিজ্য

জীবন বিমা পলিসি কত রকমের হয়? কেনার সময় নিজের প্রয়োজনীয়তার কথা মাথায় রাখুন

নিজের প্রয়োজনের কথা মাথায় রেখে জীবন বিমা পলিসি কেনা উচিত।

Published

on

insurance

খবর অনলাইন ডেস্ক: বিমা সংস্থা এবং বিমাকারী ব্যক্তির মধ্যে একটি চুক্তিই হল বিমা পলিসি। এই চুক্তির অধীনে বিমা সংস্থাকে একটি নির্দিষ্ট মেয়াদে নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা (প্রিমিয়াম) দিতে হয়। পরিবর্তে পলিসির শর্ত অনুযায়ী, প্রতিশ্রুতি রক্ষা করতে কোনো ক্ষতির ক্ষেত্রে বিমাকারীরা ক্ষতিপূরণ পেয়ে থাকেন। তা ছাড়া মেয়াদ শেষ হওয়া পর্যন্ত ক্ষতির মুখোমুখি না হলে এককালীন টাকা দেওয়ারও চল রয়েছে।

বিমার অন্যতম একটি অংশ হল, যে ব্যক্তি পলিসি কিনেছেন, মৃত্যুর পরে তার তাঁর উপর নির্ভরশীল ব্যক্তি বিমা কোম্পানির কাছ থেকে ক্ষতিপূরণ পান। মনে রাখবেন জীবন বিমা অনেক রকমের হয়। নিজের প্রয়োজনের কথা মাথায় রেখে জীবন বিমা পলিসি কেনা উচিত। সচরাচর এ দেশে সাত-রকমের জীবন বিমা পলিসি পাওয়া যায়। দেখে নেওয়া যাক সংক্ষেপে-

Loading videos...

১. মেয়াদী বিমা পরিকল্পনা

এই প্ল্যানটি একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য কেনা যায়। আপনি এটি ১০, ২০ বা ৩০ বছরের জন্য কিনতে পারেন। পলিসির মেয়াদে পলিসিধারকের মৃত্যুর পরে সুবিধাভোগীকে টাকা দেওয়া হয়।

২.মানিব্যাক বিমা পলিসি

বোনাস-সহ অ্যাসিওর্ড শুধুমাত্র পলিসির মেয়াদে কিস্তিতে ফেরত দেওয়া হয়। পলিসির শেষে শেষ কিস্তি পাওয়া যায়। পলিসিধারক যদি পলিসির মেয়াদ চলাকালীন মারা যান, তবে পুরো বিমাকৃত অর্থ মনোনীত ব্যক্তিকে দেওয়া হয়।

৩. এনডাউমেন্ট নীতি

এই বিমা পলিসিতে বিমা এবং বিনিয়োগ উভয়ই রয়েছে। একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য একটি রিস্ক কভারেজ রয়েছে। নির্ধারিত সময় শেষে, পলিসিধারক বোনাস-সহ নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা পান। পলিসির পরিমাণের মূল মূল্য পলিসিধারীর মৃত্যুর পরে বা একটি নির্দিষ্ট সংখ্যক বছর পরেও এনডাউমেন্ট পলিসির অধীনে দেওয়া হয়। কিছু পলিসি গুরুতর অসুস্থতার ক্ষেত্রেও টাকা দিয়ে থাকে।

৪. সঞ্চয় ও বিনিয়োগের পরিকল্পনা

এই প্ল্যানটি ঋণগ্রহীতা এবং তাঁর পরিবারকে ভবিষ্যতের জন্য একক পরিমাণ তহবিলের আশ্বাস দেয়। এই জাতীয় জীবন বিমা বিভাগে ট্র্যাডিশনাল এবং ইউনিট লিঙ্কযুক্ত উভয় পরিকল্পনা রয়েছে।

৫. অবসর পরিকল্পনা

এই পরিকল্পনায় জীবন বিমা কভারেজ নেই। এতে, আপনি আপনার ঝুঁকি মূল্যায়ন করে একটি অবসর তহবিল তৈরি করতে পারেন। একটি নির্দিষ্ট সময়ের পরে, আপনাকে পেনশন হিসাবে অথবা আপনার অবর্তমানে মনোনীত ব্যক্তিকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা দেয়। এই টাকা মাসিক, অর্ধ-বার্ষিক বা বার্ষিক ভিত্তিতে হতে পারে।

৬. আজীবন জীবন বিমা

আজীবন জীবন বিমা সারা জীবনের সুরক্ষা দেয়। পলিসিধারীর মৃত্যুর পরে, মনোনীত ব্যক্তি একটি বিমা ক্লেম পান। এটি অন্যান্য পলিসি থেকে এই অর্থে পৃথক যে অন্যান্য জীবন বিমা পলিসিতে সর্বাধিক বয়সের সীমা থাকে। যদি পলিসি ধারক নির্ধারিত বয়সসীমা শেষে মারা যান, তবে মনোনীত ব্যক্তি মৃত্যুর পর ক্লেম করতে পারবেন না। আজীবন জীবন বিমার আওতায় এ জাতীয় কোনো বয়সসীমা নেই। এর প্রিমিয়াম খুব বেশি। আংশিক ভাবে প্রত্যাহারের বিকল্প রয়েছে। পলিসি রেখে ঋণ পাওয়া যায়।

৭. ইউলিপ

ইউলিপ বা ইউনিট লিঙ্কযুক্ত বিমা পরিকল্পনা হল এমন এক ধরনের বিমা, যা একক পরিকল্পনায় সুরক্ষা এবং সঞ্চয়ের সুবিধা দিয়ে থাকে। প্রথাগত ভাবে সম্পদ বৃদ্ধির সরঞ্জামগুলির তুলনায় ইউলিপের সব থেকে বড়ো সুবিধা লাইফ কভারের সুবিধা।

যে কোনো ধরনের বিমায় বিনিয়োগের ব্য়াপারে সব শর্ত ভালো করে জেনে-বুঝে নিন।

Continue Reading

শিল্প-বাণিজ্য

কোভিডের চিকিৎসায় সহজ হল আয়কর আইন, নগদেই মেটানো যাবে ২ লক্ষ টাকার বেশি

রোগীর অথবা তাঁর আত্মীয়ের প্যান বা আধার এবং তাঁদের মধ্যে সম্পর্কের প্রমাণ হিসেবে প্রয়োজনীয় নথি দিতে হবে।

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: এ বার হাসপাতাল, নার্সিংহোম অথবা কোভিড কেয়ার সেন্টারে ভরতি কোভিডরোগীর চিকিৎসার খরচ ২ লক্ষ টাকার বেশি হলেও, তা নগদে মেটানোর অনুমতি দিল কেন্দ্রীয় সরকার।

কেন্দ্রীয় প্রত্যক্ষ কর বোর্ড (সিবিডিটি) একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলেছে, এই ধরনের ঘটনায় রোগীর অথবা তাঁর আত্মীয়ের প্যান বা আধার এবং তাঁদের মধ্যে সম্পর্কের প্রমাণ হিসেবে প্রয়োজনীয় নথি দিতে হবে।

Loading videos...

আয়কর আইনের ২৬৯টি ধারা অনুযায়ী, ২ লক্ষ টাকার বেশি অর্থ নগদ লেনদেন করা যায় না। কিন্তু অপ্রত্যাশিত এই মহামারি পরিস্থিতিতে মানুষের জীবন বাঁচানোই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। মানুষের কষ্ট লাঘব করতে চিকিৎসার খরচ ২ লক্ষ টাকা পার হয়ে গেলেও তা নগদে মেটানোর অনুমতি দিল সরকার।

সিবিডিটি বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, কেন্দ্রীয় সরকার স্থির করেছে হাসপাতাল, ডিসপেনসারি, নার্সিংহোম, কোভিড কেয়ার সেন্টার অথবা একই ধরনের অন্য চিকিৎসা প্রতিষ্ঠানে ভরতি কোভিডরোগীর চিকিৎসার খরচ মেটানোর জন্য আয়কর আইন ১৯৬১-র ২৬৯টি ধারায় সংযোজন করা হচ্ছে। আগামী ১ এপ্রিল ২০২১ থেকে ৩১ মে, ২০২১ পর্যন্ত এ ধরনের চিকিৎসার খরচ নগদে লেনদেন করা যাবে। তবে রোগী অথবা প্রদানকারীর প্যান এবং আধারের সঙ্গে তাঁদের মধ্যে সম্পর্কের নথিও প্রয়োজন হবে।

বর্তমান পরিস্থিতিতে বিভিন্ন হাসপাতাল, নার্সিংহোম কোভিড -১৯-এর চিকিৎসার জন্য নগদ লেনদেনের দাবি ইতিমধ্যেই জানিয়েছিল।

আরও পড়তে পারেন: Corona Update: দৈনিক সংক্রমণ কিছুটা কমলেও মৃতের সংখ্যায় রেকর্ড, তবুও মৃত্যুহার নিম্নমুখী

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
বাংলাদেশ8 hours ago

ভারতের সঙ্গে স্থলসীমান্ত আরও ১৪ দিন বন্ধ রাখছে বাংলাদেশ

রাজ্য11 hours ago

ভোট মিটতেই দিব্যেন্দু অধিকারীকে নিয়ে ‘সক্রিয়’ জেলা তৃণমূল

রাজ্য11 hours ago

Bengal Corona Update: সংক্রমণের হার ফের ৩০ শতাংশ পার, বাড়ল মৃতের সংখ্যাও, তবে কলকাতা-সহ ৯ জেলায় কমল সক্রিয় রোগী

Car dealer
গাড়ি ও বাইক11 hours ago

মৃত্যুর পর গাড়ির মালিক কে? এ বার আগে থেকেই তা নির্ধারণ করা যাবে

insurance
শিল্প-বাণিজ্য12 hours ago

জীবন বিমা পলিসি কত রকমের হয়? কেনার সময় নিজের প্রয়োজনীয়তার কথা মাথায় রাখুন

দেশ13 hours ago

কোভিডের মধ্যে অক্সিজেন বণ্টনে নজর রাখতে টাস্কফোর্স গঠন করল সুপ্রিম কোর্ট

রাজ্য13 hours ago

Covid Crisis: রাজ্যকে সাহায্য করুক কেন্দ্র, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি দিলেন অধীররঞ্জন চৌধুরী

দেশ14 hours ago

Covid Crisis: জলে গুলে খেতে হবে, করোনারোধী ওষুধে ছাড়পত্র দিল ডিজিসিআই

sourav ganguly
ক্রিকেট3 days ago

Covid Crisis in IPL: জৈব সুরক্ষা বলয়ে কোনো ফাঁক ছিল বলে মনে করেন না সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়

দেশ3 days ago

Corona Update: দু’তিনটে রাজ্যে সংক্রমণবৃদ্ধির জের, ভারতের দৈনিক সংক্রমণ ভেঙে দিল অতীতের রেকর্ড

ক্রিকেট2 days ago

England vs India 2021: ঋদ্ধি, শামি ছাড়াও ইংল্যান্ডগামী টেস্ট দলে ঠাঁই পেলেন বাংলার আরও এক

রাজ্য3 days ago

Post-Poll Violence: ইন্ডিয়া টুডে-র সাংবাদিকের ছবি পোস্ট করে হিংসায় মৃত হিসেবে বর্ণনা বিজেপির

রাজ্য3 days ago

সুখবর! রাজ্য সরকারি কর্মীরা পাচ্ছেন অ্যাড-হক বোনাস

দেশ2 days ago

Coronavirus Second Wave: নয়টি রাজ্যে চূড়ায় পৌঁছে গিয়েছে সংক্রমণ, জানাল স্বাস্থ্য মন্ত্রক

রাজ্য2 days ago

‘যা বলার পরে ডেকে বলব’, জল্পনা বাড়ালেন মুকুল রায়

রাজ্য2 days ago

Bengal Corona Update: দৈনিক সংক্রমণে স্থিতাবস্থা অব্যাহত, কলকাতায় সক্রিয় রোগীর সংখ্যায় বড়ো পতন

ভিডিও

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 months ago

বাজেট কম? তা হলে ৮ হাজার টাকার নীচে এই ৫টি স্মার্টফোন দেখতে পারেন

আট হাজার টাকার মধ্যেই দেখে নিতে পারেন দুর্দান্ত কিছু ফিচারের স্মার্টফোনগুলি।

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা4 months ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা4 months ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা4 months ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা4 months ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা4 months ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

নজরে