Connect with us

পরিবেশ

বাতাসে বিষ, অহর্নিশ! মৃত্যু ডাকছে যে পথে

Published

on

জয়ন্ত মণ্ডল

পাশের লোকটা ঘন ঘন ধোঁয়া ছাড়ছিল সিগারেটের। অস্বস্তি, বিরক্তি নিয়ে কেটে পড়াই ভালো মনে হল দ্য ৪২-র উলটো দিকে এস-নাইনের অপেক্ষায় দাঁড়ানো আমার মতো অ-ধূমপায়ীর। এবড়ো-খেবড়ো ফুটপাতে একটু সরে দাঁড়াতেও রক্ষে নেই, সেখানেও ধোঁয়া। সিগারেটের। এ ভাবেই ধোঁয়া এড়ানোর খেলা চলতে চলতেই বিকট শব্দে ধোঁয়া উড়িয়ে চলে এল একটা লজঝড়ে বেসরকারি বাস।

পরিবেশ দিবস নিয়ে লিখতে বসা প্রতিবেদনের মুখবন্ধে এই ছোট্ট ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতার অবতারণা এই কারণেই, ভারতে ধূমপানজনিত কারণে যত মানুষের মৃত্যু হয় এক বছরে, তার থেকে অনেক বেশি মানুষের জীবনদীপ নিভে যাচ্ছে বায়ু দূষণের কারণে। তাই বলে, ‘ক্যান্সারের কারণ’ ধূমপান মোটেই সাধুবাদ প্রাপ্য নয়।

Loading videos...

সরকারি তথ্য বলছে, গত ২০১৭ সালে বায়ুদূষণ থেকে সৃষ্ট রোগের প্রকোপে পড়ে মৃত্যু হয়েছে ১২ লক্ষ ভারতবাসীর। কথা বলেছিলাম রাজ্য দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদের এক কর্তাব্যক্তির সঙ্গে। বিষয়টা ছিল দুর্গাপুরে স্পঞ্জ আয়রন কারখানার দূষণ নিয়ে। তিনি পক্ষান্তরে বলেছিলেন, মালিকরা জানেন, জনবহুল এলাকা থেকে নির্দিষ্ট দূরত্বে স্পঞ্জ আয়রন কারখানা করলেও দূষণের প্রকোপে পড়বে জনজীবন। তাঁরা লাইসেন্সের আবেদন করেন। কেউ কেউ লাইসেন্সও পেয়ে যান। কিন্তু লাইসেন্স দেওয়ার পাশাপাশি কারখানার মালিকদের যে যে শর্ত মেনে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়, পরে সে সব লাটে ওঠে।

দেশে শিল্পের আকাল। কোনো ব্যক্তি বা সংস্থা যখন গাইডলাইনে উল্লেখিত নির্দিষ্ট দূরত্বের থেকে জনবহুল এলাকায় তার থেকে কম দূরত্বে শিল্পস্থাপনের আবেদন জানান, তখন কর্তাদেরও বিষয়টা অন্য ভাবে ভাবায় বলেও তিনি জানিয়েছিলেন।

স্পঞ্জ আয়রন কারখানার ধোঁয়ায় মিশে থাকা কয়লা বা লোহার গুঁড়ো কী মারাত্মক ক্ষতিকারক হয়ে ওঠে বাতাসে মিশে, তা ভুক্তভোগী মাত্রই জানেন। তবে বিষয়টা এমন নয় যে শুধু মাত্রা স্পঞ্জ আয়রন কারখানাই বাতাসে দূষণ ছড়াচ্ছে। শহরাঞ্চলের গাড়ির ধোঁয়া তো দূষণ ছড়ানোর দৌড়ে কম যায় না। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ফি বছরের রিপোর্টে উঠে আসছে সেই তথ্য।

প্রায় এক দশক আগেই সংস্থা সতর্ক করে দিয়ে বলেছিল, ভারতের রাজধানীর ভবিষ্যৎ কী হতে চলেছে। এখন প্রায়শই দিল্লির দূষণ খবরের শিরোনামে উঠে আসছে। বাদ পড়ছে না কলকাতাও। রাজ্য সরকার অবশ্য আশ্বাস দিয়ে জানিয়েছে, চলতি বছরের শীতকালের মধ্যেই মহানগরীর বায়ু দূষণ অনেকটাই নিয়ন্ত্রণের মধ্যে চলে আসবে। ১৫ বছরের গাড়ি বাতিল-সহ একাধিক কার্যকর পদক্ষেপের সূত্রেই এ ধরনের ইতিবাচক আশ্বাস দিয়েছে সরকার। সঙ্গে রয়েছে শহরের ১০টি জায়গায় কার্বন ডাই অক্সাইড নিয়ন্ত্রণের জন্য বিশেষ যন্ত্র বসানোর উদ্যোগও।

তবে রাস্তায় ক্রমশ বেড়ে চলা ছোটো-বড়ো, যাত্রীবাহী-পণ্যবাহী গাড়ির সংখ্যাই শুধু নয়। রাস্তা তৈরি অথবা মেরামতে হটমিক্স প্লান্টও দূষণ ছড়াচ্ছে হুহু করে। গ্রীষ্মের এই তীব্র দাবদাহের মধ্যেই শহর কলকাতা, বিধাননগর এবং হাওড়ায় হটমিক্স ব্য়বহার করে রাস্তা তৈরির ফলে দূষণের মাত্রা ছুঁয়ে ফেলছে দিল্লিকেও।

একই সঙ্গে রয়েছে বাতাসে ধুলোর পরিমাণ বৃদ্ধি। সরকারি ভাবে উদ্যোগ নিয়ে নির্মাণ কাজগুলিকে পুরোপুরি ঢেকে করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু রাস্তার ধুলো। সভ্যতা যে পথে এগোচ্ছে, তাতে বাড়ছে রাস্তা, রাস্তা থাকলে সেখানে থাকবে খানাখন্দ, বাড়বে ধুলো। রাস্তার কোনো জায়গা থেকে পিচ-পাথর উঠে গিয়েই খন্দের সৃষ্টি। সেটাই ধুলোর উৎসস্থল। তবে রাস্তায় জল ঢেলে ধুলো নিবারণ করা সম্ভব হলেও সেটাও যথেষ্ট ব্যয়বহুল। আবার নির্মাণকাজের মতো রাস্তাকে ঢেকে ফেলা তো আর যায় না!

সব মিলিয়ে যানজটে আটকে পড়া রাস্তায় ধুলো-ধোঁয়ায় প্রাণ ওষ্ঠাগত। যে কারণে এখন অনেকেই রাস্তায় বেরোন মাস্ক পরে। কিন্তু ঘরের ভিতরেও মাস্ক পরে জীবনযাপনের দিন তা হলে কি এল বলে!

দেশ

আগুনে পুড়তে থাকা সিমলিপালে স্বস্তির বৃষ্টি, আনন্দে নেচে উঠলেন মহিলা বন আধিকারিক

শনিবার পর্যন্ত আরও বৃষ্টির সম্ভাবনা।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: প্রকৃতিকে রক্ষা করার দায়িত্ব প্রকৃতিই নিয়ে নিল। আর সেই আনন্দে নেচে উঠল মানুষ। এমনই ঘোষণা ঘটেছে বুধবার ওড়িশার সিমলিপাল জাতীয় উদ্যানে।

গত দুই সপ্তাহ ধরে ভয়াবহ আগুনের গ্রাসে ছিল এই জাতীয় উদ্যান। দাবানলে পুড়ে ছারখার হয়ে গিয়েছে এই ন্যাশনাল পার্কের অনেকটা অংশ। কতো যে বন্যপ্রানের মৃত্যু হয়েছে তার হিসেব নেই। সেই আগুন নেভাতে গিয়ে বন আধিকারিক এবং দমকল যখন অসহায়, তখনই নামল স্বস্তির বৃষ্টি।

Loading videos...

বুধবার দুপুরের পর থেকে সিমলিপালের অনেকটা অংশ জুড়ে জোর বৃষ্টি হয়েছে। কোথায় কোথাও শিলাবৃষ্টিও হয়েছে। এতে আগুন অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে এসে গিয়েছে।

সিমলিপালে বৃষ্টি শুরু হওয়ার পর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে একটি ভিডিও। সেখানে দেখা গিয়েছে,  বনবিভাগের এক মহিলা আধিকারিক আনন্দে নাচতে শুরু করেছেন। আকাশের দিকে হাত তুলে নাচতে নাচতে উদাত্ত কণ্ঠে তিনি বলছেন, “বহুত যাদা বর্ষা দে”, অর্থাৎ আরও বেশি বৃষ্টি দাও।

ইন্ডিয়ান ফরেস্ট অফিসার রমেশ পাণ্ডে এই ভিডিও শেয়ার করেছেন টুইটারে। ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, “এই রকম পরিস্থিতিতে বৃষ্টি হওয়া ঈশ্বরের অসীম কৃপা। ওই মহিলা অফিসার কেন এতটা খুশি সেটা আমরা সবাই আন্দাজ করতে পারছি। আগুন অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে এসে গিয়েছে। সাম্প্রতিক স্যালেটাইট ডেটা থেকে তেমনটাই জানা গিয়েছে।”

প্রাথমিক ভাবে টুইটারে এই ভিডিয়ো শেয়ার করেছিলেন ডক্টর যুগল কিশোর মহান্ত। তিনি জানিয়েছিলেন, এই মহিলা আধিকারিকের নাম স্নেহা ঢাল। সিমলিপাল জাতীয় উদ্যানে দাবানলের পর আগুন নেভানোর কাজে সর্বক্ষণের জন্য রয়েছেন স্নেহা।

আরও আনন্দের কথা হল শনিবার পর্যন্ত প্রায় রোজই দুপুরের পর সিমলিপাল অঞ্চলে ঝড়বৃষ্টি হতে পারে। ফলে আগুন যে একদমই নিভে যাবে তা বলাই বাহুল্য।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

৫ বছরে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সম্পদ কমে প্রায় অর্ধেক!

Continue Reading

দেশ

ওড়িশার সিমিলিপাল টাইগার রিজার্ভে এক সপ্তাহ পরেও জ্বলছে আগুন, ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর

প্রায় এক সপ্তাহ আগে আগুন লাগে। রাজকন্যার টুইটের পরে প্রশাসনিক পদক্ষেপ!

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: প্রায় এক সপ্তাহ আগে আগুন লাগে ওড়িশার সিমিলিপাল ফরেস্ট রিজার্ভে। যে আগুন এখন জ্বলে চলেছে। সমালোচনায় সরব হয় বিভিন্ন মহল। এর পরই রাজ্য প্রশাসন আগুন নেভানোর পদক্ষেপ নিয়েছে।

ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েক অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা নিয়ে বুধবার একটি উচ্চপর্যায়ের পর্যালোচনা বৈঠক করেন। ওই বৈঠকে তিনি সিমিলিপাল বনাঞ্চলকে বিশ্বের মূল্যবান সম্পদ হিসাবে বর্ণনা করে সরকারি আধিকারিকদের বনের সংরক্ষণ নিশ্চিত করতে এবং বনের আগুনের ঘটনা এড়াতে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশও দেন।

Loading videos...

বন্য প্রাণীদের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি ও মৃত্যু!

ইন্ডিয়া টুডের প্রতিবেদন অনুযায়ী, সিমিলিপাল ফরেস্ট রিজার্ভ ২,৭৫০ বর্গকিলোমিটার এলাকা জুড়ে বিস্তৃত। আগুনের বীভৎস শিখাগুলি এক অংশ থেকে অন্য অংশে ছড়িয়ে পড়ে। বুধবার পর্যন্ত সিমিলিপাল বন বিভাগের মোট ২১টি রেঞ্জের মধ্যে আটটিতে জ্বলতে দেখা যায় আগুনের শিখা। এতে বন্য প্রাণীদের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি ও মৃত্যু হয়েছে।

রাজকন্যার টুইটের পরে প্রশাসনিক পদক্ষেপ

ময়ূরভঞ্জের রাজপরিবারের রাজকন্যা অক্ষিতা এম ভঞ্জদেও সিমিলিপাল আগুন নিয়ে টুইট করেছিলেন। জানা যায়, তার পরেই ওড়িশা প্রশাসন পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ এবং মোকাবিলার পদক্ষেপ করেছিল।

গত ১ মার্চ টুইট করেছিলেন অক্ষিতা। তিনি লেখেন, “ময়ূরভঞ্জে গত সপ্তাহে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এক সপ্তাহ আগে ৫০ কেজির মতো গজদন্ত দেখা গিয়েছিল। কয়েক মাস আগেই সিমলিপালের স্থানীয় যুবকরা বালি ও কাঠের মাফিয়াদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছিলেন। রাজ্যের কয়েকটি সংবাদমাধ্যম ছাড়া, কোনো জাতীয় সংবাদমাধ্যম এশিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম বায়োস্ফিয়ারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনার খবর করছে না”।

তার এই টুইটের পরে পেট্রোলিয়ামমন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান এবং কেন্দ্রীয় পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী প্রকাশ জাভাড়েকর এই বিষয়টিতে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন। আগুন নেভাতে রাজ্য প্রশাসন দল পাঠায়।

আগুন এখন নিয়ন্ত্রণে, দাবি প্রশাসনের

ওড়িশার বন ও পরিবেশ দফতরের অতিরিক্ত মুখ্যসচিব মোনা শর্মা জানিয়েছেন, সিমলিপালের আগুন এখন নিয়ন্ত্রণে এসেছে। মুখ্যমন্ত্রীর ডাকা উচ্চ-পর্যায়ের বৈঠকেও তিনি অংশ নেন। তিনি বলেন, বনের আগুনে কোনো প্রাণহানি হয়নি।

আগুন নিয়ন্ত্রণে রাখতে বিশেষ অপারেটিং পদ্ধতি (এসওপি) জারি করা হয়েছিল। তিনি আরও বলেছেন, বড়ো গাছ ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি। বিভাগীয় বন কর্মকর্তাদের (ডিএফও) নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, তাঁরা যেন রাজ্য সরকার এবং জেলাশাসকদের অগ্নিকাণ্ডের সতর্কতার বিষয়ে অবহিত করেন।

সিমিলিপালে বনের আগুন নিয়ন্ত্রণে আড়াইশো ফরেস্ট গার্ড-সহ এক হাজারের মতো কর্মী নিযুক্ত রয়েছেন। এ ছাড়াও, আগুন নিয়ন্ত্রণে রাখতে ৪০টি দমকল এবং ২৪০ ব্লোয়ার মেশিন ব্যবহার করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন বন বিভাগের এক আধিকারিক।

সূত্র: ইন্ডিয়া টুডে

Continue Reading

দেশ

উত্তরাখণ্ডের বিপর্যয়ের পেছনে কি এক হারানো তেজস্ক্রিয় যন্ত্র?

১৯৬৫ সালে নন্দাদেবীতে যৌথভাবে একটি গোপন অভিযান চালায় ভারতের ইন্টেলিজেন্স ব্যুরো ও আমেরিকার সেন্ট্রাল ইন্টেলিজেন্স এজেন্সি।

Published

on

জল চলে গিয়েছে, কিন্তু রেখে গিয়েছে প্রচুর কাদা। ছবি: সৌমিশ্র মিত্র।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: বহুকাল আগে হিমালয়ের বুকে হারিয়ে যাওয়া এক তেজস্ক্রিয় যন্ত্রই কি উত্তরাখণ্ডে মহাবিপর্যয় ডেকে এনেছে? এমনই একটা ব্যাপার কিন্তু বিশ্বাস করছেন ক্ষতিগ্রস্ত অঞ্চলের গ্রামগুলির বাসিন্দারা।

পরিবেশ বিশারদরা হয়তো নিজেদের মতো করে এই ঘটনার ব্যাখ্যা দেবেন। কিন্তু প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে ওই এলাকা ও সন্নিহিত অঞ্চলে যাঁদের বাস, সেই গ্রামবাসীরা কিন্তু এই ঘটনার পেছনে তেজস্ক্রিয়তাকে দায়ী করছেন।

Loading videos...

চামোলি জেলার যে অংশে গত রবিবার এই বিপর্যয় ঘটেছিল, তার ঢিলছোঁড়া দূরত্বে থাকা রেইনি গ্রামের বাসিন্দাদের বিশ্বাস, রবিবারের বিপর্যয়ের নেপথ্যে আসলে রয়েছে কয়েক দশক আগে হারিয়ে যাওয়া একটি তেজস্ক্রিয় যন্ত্র।

তাঁদের দাবি, ওই যন্ত্র থেকে উৎপন্ন তাপই হিমবাহে ধরিয়েছিল চিড়। যা বাড়তে বাড়তে ফাটলে পরিণত হয়। হিমবাহ ভেঙে পড়ে। তার পর প্রবল শব্দে এবং বেগে সেই হিমবাহের দৈত্যাকার চাঙড়ই মাটি-কাদা ও নুড়িপাথরের স্রোত সঙ্গে নিয়ে নীচের দিকে নামতে থাকে। বিশাল জলধারা পরিণত হয় হড়পা বানে, যা ভাসিয়ে নিয়ে চলে যায় বাঁধ এবং লাগোয়া জনবসতির একাংশকে।

কিন্তু কী ভাবে এই তেজস্ক্রিয় যন্ত্র এল? জানা গিয়েছে, ১৯৬৫ সালে নন্দাদেবীতে যৌথভাবে একটি গোপন অভিযান চালায় ভারতের ইন্টেলিজেন্স ব্যুরো (IB) ও আমেরিকার সেন্ট্রাল ইন্টেলিজেন্স এজেন্সি (CIA)। ওই পাহাড়ে চিনের উপর নজরদারি চালাতে একটি আণবিক শক্তিচালিত অত্যাধুনিক যন্ত্র বসানোর কথা ছিল অভিযাত্রী দলটির। কিন্তু আবহাওয়া প্রচণ্ড খারাপ হয়ে যাওয়ায় সে বার যন্ত্রটিকে ফেলে চলে আসেন তাঁরা।

পরে বেশ কয়েক বার অভিযান চালালেও খোঁজ মেলেনি ওই আণবিক যন্ত্রটির। কিন্তু স্থানীয়দের বিশ্বাস, এখনও বরফের নীচে চাপা পড়ে কাজ করে চলেছে ওই যন্ত্রটি। শতাব্দী ছোঁয়া সেই আণবিক যন্ত্রটির জন্যই নেমে আসে ভয়াবহ বিপর্যয়।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরে তীব্র ভূমিকম্প, অস্ট্রেলিয়ার এক দ্বীপে সুনামি

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
মুর্শিদাবাদ21 mins ago

Coronavirus Second Wave: কোভিডে আক্রান্ত হয়ে মারা গেলেন রাজ্যের আরও এক প্রার্থী

রাজ্য39 mins ago

Bengal Polls Live: শুরু পঞ্চম দফার ভোটগ্রহণ, সংক্রমণের ভয় নিয়েই ভোটের লাইনে জনতা

বাংলাদেশ6 hours ago

Mujibnagar Day: ঠিক ৫০ বছর আগের ১৭ এপ্রিল যিনি গার্ড অব অনার দিয়েছিলেন সেই মাহবুব উদ্দিন বীর বিক্রমের স্মৃতিচারণ

বাংলাদেশ8 hours ago

Bangladesh Corona Update: একদিনে শতাধিক মৃত্যুর রেকর্ড, আক্রান্তের শীর্ষে যুবকরা হলেও মৃত্যুর দিক দিয়ে বয়স্ক মানুষ

শিক্ষা ও কেরিয়ার9 hours ago

ICSE And ISC Exams: দশম ও দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষা পিছিয়ে দিল আইসিএসই বোর্ড

ক্রিকেট10 hours ago

IPL 2021: দীপক চাহরের বিধ্বংসী বোলিং, চেন্নাইয়ের সামনে মুখ থুবড়ে পড়ল পঞ্জাব

দেশ11 hours ago

Nirav Modi’s Extradition: নীরব মোদীকে ভারতের হাতে তুলে দিতে সম্মতি ব্রিটিশ সরকারের

রাজ্য12 hours ago

Bengal Polls 2021: ভোটের দিনক্ষণ পালটাচ্ছে না, প্রচারে ‘নৈশ কার্ফু’ জারি নির্বাচন কমিশনের

শিক্ষা ও কেরিয়ার3 days ago

CBSE Exam 2021: দশম শ্রেণির পরীক্ষা বাতিল করল সিবিএসই, স্থগিত দ্বাদশের পরীক্ষা

দেশ3 days ago

Kumbh Mela 2021: কুম্ভের হরিদ্বারে গত দু’দিনে আক্রান্ত ১ হাজার, মুখ্যমন্ত্রী বললেন, ‘মারকাজের সঙ্গে তুলনা অর্থহীন’

রাজ্য2 days ago

স্বাগত ১৪২৮, জীর্ণ, পুরাতন সব ভেসে যাক, শুভ হোক নববর্ষ

কলকাতা3 days ago

Bengal Corona Update: সংক্রমণের প্রথম চূড়াকে পেরিয়ে গেল কলকাতা, পরিস্থিতি আরও খারাপের দিকে

পয়লা বৈশাখ
কলকাতা2 days ago

মাস্ক থাকলেও কালীঘাট-দক্ষিণেশ্বরে শারীরিক দুরত্ব চুলোয়, গা ঘেষাঘেঁষি করে হল ভক্ত সমাগম

দেশ3 days ago

ফের লকডাউনের আশঙ্কায় ভীত-সন্ত্রস্ত অভিবাসী শ্রমিকরা, কন্ট্রোল রুমে ফোনের পর ফোন ঝাড়খণ্ডে

রাজ্য2 days ago

Bengal Polls 2021: ভয়াবহ কোভিড সংক্রমণের মধ্যে কী ভাবে ভোট, শুক্রবার জরুরি সর্বদল বৈঠক ডাকল কমিশন

কোচবিহার2 days ago

Bengal Polls 2021: শীতলকুচির গুলিচালনার ভিডিও প্রকাশ্যে, সত্য সামনে এল, দাবি তৃণমূলের

ভোটকাহন

কেনাকাটা

কেনাকাটা4 weeks ago

বাজেট কম? তা হলে ৮ হাজার টাকার নীচে এই ৫টি স্মার্টফোন দেখতে পারেন

আট হাজার টাকার মধ্যেই দেখে নিতে পারেন দুর্দান্ত কিছু ফিচারের স্মার্টফোনগুলি।

কেনাকাটা2 months ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা2 months ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা3 months ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা3 months ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা3 months ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা3 months ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা3 months ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা3 months ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা3 months ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

নজরে