itr

ওয়েবডেস্ক: অনলাইনে আয়কর দাখিলের সময় কতটা সতর্ক থাকতে হয় তা ভুক্তভোগী মাত্রই জানেন। একটু উনিশ-বিশ হলেই যেমন আয়কর দফতরের কাছে ভুল তথ্য চলে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে, তেমনই সামান্য অসতর্কতার কারণে হতে পারে অর্থিক ক্ষতিও। সম্প্রতি হায়দরাবাদের এক বছর তিরিশের অ্ধ্যাপকের ক্ষেত্রে ঘটেছে যেমন।

শহরের রাচাকোন্দা সাইবার থানায় দায়ের করা অভিযোগে জানিয়েছেন, তিনি যখন অনলাইনে আয়কর জমা করার আবেদন করছিলেন তখন তাঁর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে এক লক্ষ টাকা কেটে নেওয়া হয়েছে।

এ কথা বলার অপেক্ষা রাখে না, অনলাইন ট্যাক্স রিটার্নে এ ভাবে কোনো মতেই তৎকালীন অর্থ কাটা হয় না। পুলিশ জানিয়েছে, ওই অধ্যাপক যখন অনলাইনে আয়কর তথ্য দেওয়ার কাজটি করছিলেন তখন তাঁর কাছে আসে একটি ফিশিং ই-মেল। যেটিতে আয়কর জমা করার আহ্বান জানিয়ে ক্লিক করতে বলা হয়। সেখানে ক্লিক করলেই খুলে যায় একটি পাতা, যা আয়কর দফতরের পেজের অনুকরণে তৈরি।

পুলিশের আশঙ্কা, আগামী কয়েক মাসে সতর্কতার অভাবে আর অনেককেই পড়তে হতে পারে এ রকম প্রতারণার ফাঁদে। কারণ জুলাই মাসের মধ্যে অনেকেই আয়কর জমার করার ব্যাপারে অধিক আগ্রহ প্রকাশ করবেন। ইতি মধ্যেই আরও ৩১ জনকে পাওয়া গিয়েছে, যাঁদের কাছে ওই একই ধরনের ফিশিং ই-মেল এসেছিল। স্বাভাবিক ভাবে পুলিশ সতর্ক করে দিয়ে বলেছে, আয়কর দাখিলের জন্য ইনকাম ট্যাক্স ডিপার্টমেন্টের মূল ওয়েবসাইটে গিয়ে তা করতে। এ ধরনের ফিশিং ই-মেলের ফাঁদ এড়িয়ে চললে কোনো ভীতির কারণ থাকবে না।

তবে বর্তমানে আয়কর দফতরের নিজস্ব ওয়েবসাইটটি খুললেও ফিশিং ই-মেলের ব্যাপারে একই রকমের সতর্কতা বার্তা দেখানো হচ্ছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here