e-way bill

ওয়েবডেস্ক: ১ এপ্রিল,২০১৮ থেকেই চালু হয়ে গেল ই-ওয়ে বিল। এ দিন থেকে আন্ত:রাজ্য পণ্য সামগ্রী পরিবহণের জন্য এই ই-ওয়ে বিল বাধ্যতা মূলক। কিন্তু সেটাও শর্ত সাপেক্ষ। মনে রাখতে হবে, ৫০ হাজার টাকার বেশি পণ্য একত্রে পরিবহণের জন্য এই ই-ওয়ে বিল প্রযোজ্য।

ই-ওয়ে বিলের বৈধতা বজায় থাকবে এক দিনের জন্য, এবং তা অবশ্য ১০০ কিমি দূরত্বের জন্য। ফলে ১০০ কিমি পথ অতিক্রমের জন্য অতিরিক্ত এক দিনের বিল প্রযোজ্য হবে। রেলওয়ে, বিমানে বা জাহাজে-সর্বত্রই ই-ওয়ে বিল বাধ্যমূলক। তবে পরিবহণকারী এই বিলের ঝক্কি নেবেন না। প্রেরক এবং গ্রাহককেই সংশ্লিষ্ট তফতর থেকে বিল তৈরি করাতে হবে। অর্থাৎ পণ্য সামগ্রী পাঠানোর সময়েই এই বিল তৈরি করে নিতে হবে।

এক নজরে কিছু শর্ত:

  • ৫০ হাজারের বেশি মূল্যের পণ্য পরিবহণেই ই-ওয়ে বিল প্রযোজ্য এবং বাধ্যতামূলক।
  • খালি/ ফাঁকা পণ্য আধারের জন্য ই-ওয়ে বিল প্রয়োজন নেই।
  • নেপাল এবং ভুটান থেকে পণ্য নিয়ে আসা বা পাঠানোর জন্য এই বিলের প্রয়োজন নেই।
  • বিল তৈরির জন্য প্রাথমিক ভাবে কোনো একটি সম্ভাব্য গাড়ির নাম্বার ব্যবহার করা যাবে।
  • জিএসটির সাধারণ পোর্টালকেই ই-ওয়ে বিলের জন্য ব্যবহার করা যাবে।
  • রেলওয়ের মাধ্যমে পরিবহণের জন্য পণ্যের সঙ্গে বিল পাঠানোর দরকার নেই।
  • একজন ব্যবহারকারী তিন জন উপ-ব্যবহারকারীর মাধ্যম নিতে পারবেন।
  • আরও পড়ুন: ১ এপ্রিল চালু হয়ে গেল নতুন কর পদ্ধতি, জেনে নিন খুঁটিনাটি

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here