sensex nifty share
স্টক এক্সচেঞ্জ, মুম্বই

বিশেষ প্রতিনিধি:  গত সোমবার সকালে সেনসেক্স অথবা নিফটির কাণ্ডকারখানা দেখে বিনিয়োগকারীদের কেউ কেউ অতিরিক্ত আগ্রহী হয়ে উঠছেন। কিন্তু আশঙ্কার কারণ যে একেবারেই কিছু নেই, তেমনটাও নয়। গত মাসখানেক সময় ধরে নিফটির সেই দম অনেকটাই অস্তমিত হয়েছে। কিন্তু আগামী লোকসভা ভোটের দিকে তাকিয়ে শেয়ার বাজার নতুন একটা মাইলস্টোন ছুয়ে ফেলার লক্ষ্য নিয়ে এগোচ্ছে। ফলে বিনিয়োগকারীদের সামনে এটাই সম্ভবত মোক্ষম একটা সময়।

বাজার এখন যে জায়গায় দাঁড়িয়ে আছে তাতে কোনো একদিন কোনো এক ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে সেনসেক্স আড়াইশো-তিনশো পয়েন্ট বেড়ে গেলে কী হবে? হ্যাঁ, যেমনটা হল গত সোমবার। বিনিয়োগকারীরা দীর্ঘদিন ধরেই হতাশায় ভুগছেন। গত সোমবার, দেশের ১০টি কেন্দ্রের উপনির্বাচন ছিল, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী দাবি করছেন, ওই ১০টি কেন্দ্রেই বিজেপি ভালো ফল করবে। কারণ তাঁর সরকার গত চার বছরে সে রকমই কাজ করেছে। এর ফলেই না কি বাজার আবার ঘুরে দাঁড়াচ্ছে। যদিও গত তিনটি ট্রেডিং ডে ধরেই বাজার একটু একটু করে ঘুরছে।

রাজনীতির সঙ্গে অঙ্গাঙ্গি ভাবে জড়িয়ে থাকা এ দেশের শেয়ার বাজারের বিনিয়োগকারীদের এখন সংস্থার বিবরণের থেকে বেশি করে মাথায় রাখতে হচ্ছে রাজনৈতিক ঘটনাবলির। ২০১৯-এর ভোট যত এগিয়ে আসবে, ততই বাড়বে এই প্রবণতা। তবে একটা কথা মাথায় রাখা ভালো-বাজারের যে কোনো সূচকের উত্থান বা পতনকে এক-দু’দিনের নিরিখে বিচার করা মোটেই কাম্য নয়। হাতে কম করে পাঁচটা ট্রেডিং ডে রাখতে হয়। আর গত সোমবারের উত্থানে যখন ঘণ্টা খানেকের মধ্য়েই ক্ষত মেরামত হয়ে গেল, তখন আর দু:শ্চিন্তার কী কারণ থাকতে পারে। এমন চিন্তাকে নিমেষে মুছে দিতে পারে মঙ্গলবার সেনসেক্স-নিফটির লালাভ সূচনা।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here