SEBI

ওয়েবডেস্ক: হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে বিভিন্ন কোম্পানি শেয়ারের দর সংক্রান্ত সংবেদনশীল তথ্য ছড়িয়ে দেওয়ার বিষয়ে চারটি নির্দিষ্ট সংস্থার বিরুদ্ধে অভিযোগ জমা পড়েছিল সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ বোর্ড অব ইন্ডিয়া (সেবি)-র কাছে। এ বার সেই সংস্থাগুলি রিপোর্ট জমা করল সেবির কাছে। সেবির চেয়ারম্যান অজয় ​​ত্যাগী  জানান, এই তদন্তে এগিয়ে নিয়ে যাবে সংস্থা।

ত্যাগীর মতে, এই ধরনের হাই প্রোফাইল মামলায় জড়িত রয়েছে স্বনামধন্য চারটি সংস্থার নাম। তিনি স্বীকার করেন, “আমরা চারটি সংস্থার কাছ থেকেই রিপোর্ট পেয়েছি”। সেই মোতাবেক এইচডিএফসি ব্যাঙ্ক, টাটা মোটরস, অ্যাক্সিস ব্যাঙ্ক এবং বাটা ইন্ডিয়ার বিরুদ্ধে প্রাথমিক আদেশ পাস করা হয়েছে। এই সংস্থাগুলিকেও অভ্যন্তরীণ তদন্ত পরিচালনা করতে বলা হয় এবং তাদের পাঠানো রিপোর্ট নিয়ন্ত্রক সংস্থার কাছে পাঠানো হয়।

ত্যাগী বলেন, ওই সংস্থাগুলিকে প্রাথমিক ভাবে অভ্যন্তরীণ তদন্ত করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল, সেই রিপোর্ট পাওয়ার পর তা নিয়ন্ত্রক সংস্থা খতিয়ে দেখবে। ওই রিপোর্টে যদি তেমন কোনো তথ্যের হদিশ পাওয়া যায়, তা পুনরায় তদন্ত করে দেখা হবে। ত্যাগী জোরের সঙ্গে বলেন, “এই ঘটনার তদন্তে যা যা করণীয় আমরা করব”।

প্রাথমিক আদেশ হিসাবে ওই চারটি সংস্থাকে অভ্যন্তরীণ তদন্তের নির্দেশ পাঠানোর পর সংস্থাগুলি জানিয়েছে, তারা নিয়ন্ত্রক সংস্থার যাবতীয় নির্দেশ মেনেই চলবে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here