RBI

ওয়বেডেস্ক: সোমবার ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্কের বৈঠকে কী সিদ্ধান্ত গৃহীত হতে চলেছে, সে দিকেই অপলক দৃষ্টিতে তাকিয়ে রয়েছে শেয়ার বাজার। বৈঠকে যে সিদ্ধান্তই গৃহীত হোক তার নেতিবাচক প্রভাব পড়বে শেয়ার বাজারে।

আরও পড়ুন: লোকসভা ভোটের আগে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের দখল নিতে পারবে কি কেন্দ্র?

ব্যাপারটা বিসদৃশ হলেও সত্য। আরবিআই কর্তারা যদি কেন্দ্রীয় সরকারের ঋণনীতি সরলীকরণ, ব্যাঙ্কগুলিকে মূলধন জোগানো-সহ একাধিক ইস্যুকে মেনে নেন, তা হলেও ভবিষ্যৎ অর্থনীতির কথা ভেবে শেয়ার বাজারের বিনিয়োগকারীরা সাময়িক হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়তে পারেন। আবার যদি উল্টোটা হয়, অর্থাৎ যদি কেন্দ্রীয় সরকারের কোনো আবেদনেই সাড়া দিল না আরবিআই, তা হলেও সরকারের জনমুখী এবং ভোটমুখী নীতিতে আঘাত লাগার আশঙ্কায় বিনিয়োগকারীরা মুষড়ে পড়বেন।

আরও পড়ুন: মিটিংয়ের আগেই রয়টার্সের কাছে কেন্দ্রের চাপের কথা স্বীকার করলেন দুই আরবিআই বোর্ড সদস্য!

ফলে এ দিনের বৈঠকে যে সিদ্ধান্তই নেওয়া হোক না, বিনিয়োগকারীদের নিস্তার নেই। উল্টো দিকে প্রত্যাশার পারদ চড়িয়ে শেয়ার বাজার খোলার মুখেই সেনসেক্স ১৭২.৪৬ পয়েন্ট বেড়ে যায়। কিছুক্ষণের মধ্যেই যা ২০০ পয়েন্টে পৌঁছে যায়। বাজারে একটা নেতিবাচক প্রভাব ছিল-ই। তারই সঙ্গে যুক্ত হয়েছে আরবিআই ফ্যাক্টর।

যদিও শেয়ার বাজারে আগাম ভবিষ্যদ্বাণী মূল্যহীন। তবে বেলা যত বাড়বে ততই স্পষ্ট হবে সেই ইঙ্গিত। আর ততই সেরার টানে নিকৃষ্টতম ফলাফলের দিকে এগোতে পারে বাজার।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here