sensex

বিশেষ প্রতিনিধি: ২০১৮-১৯ বাজেট পেশের সময় বোঝাতে এখন ঘণ্টার হিসাব চলছে। শেয়ার বাজারের বিনিয়োগকারীদের চোখের পাতার পলক ফেলা ছেড়ে দিতে বসেছে এখন থেকেই। যতক্ষণ পর্যন্ত না অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি সংসদে বাজেটের বাক্স খুলছেন, যেন ততক্ষণ নিষ্পলক দৃষ্টিতে তাকিয়ে থাকতে চাইছে। বাজেটে কী হতে চলেছে বা হতে পারে, সে সব নিয়ে সংবাদ মাধ্যমে চলছে রাত জাগা বিশ্লেষণ। রাজনীতির কারবারিদের কাছে তো এর একটা আলাদা গুরুত্ব বহন করছেই। কিন্তু বাজেটের সঙ্গে সরাসরি স্বার্থ দেখছেন বাজারে বিনিয়োগকারীরা। শেয়ার বাজারের সূচকগুলি যে একান্ত ভাবেই নির্ভর করছে সরকারি ঘোষণার গতিপ্রকৃতির উপর। প্রত্যাশা পূরণ হলে সূচকের পারদ চড়বে আর উল্টো হলে পারদও শীতল হয়ে নিম্নাঙ্কের দিকে নেমে আসবে।

তবে শেয়ার বাজারের মতিগতি নিয়ে ভবিষ্য়দ্বাণী করাকে মুর্খামির ছাড়া অন্য কোনো আখ্য়া দিতে চান না অনেকেই। তাঁদের সেই মত যে নিছকই মনগড়া কথা নয়, তারও প্রমাণ রয়েছে। কোনো কোনো ক্ষেত্রে ডাহা ফেল করে গিয়েছে এই ধরনের আগাম বার্তা। কিন্তু ভারতীয় বাজেট নিয়ে ভারতীয় বাজারের আবেগ সম্পর্কে এই ধরনের আগাম ইঙ্গিতকে মান্যতা দিচ্ছেন প্রায় প্রত্যেকেই এ বার বাকি বাজারের।

নিফটি নিয়ে আশ্বস্ত হওয়া যেতে পারে-বাজেট ঘোষণা হওয়ার আগেই সে আর একবার ১১২০০-১১৩০০ পয়েন্টের ঘরে ঘোরাফেরা করবে। এ বছরের নির্ধারিত লক্ষ্য় মাত্রা ১১৫০০-র চুড়া ছুঁতে হাতে সময় রয়েছে অনেক। ফলে ১১৩০০ ছুঁয়ে বাজেট নেতিবাচক ঘোষণায় সে যদি পিছলেও যায়, তা হলেও দুশ্চিন্তার কিছু নেই। বিনিয়োগ আপনার সুরক্ষিতই থাকবে। তবে এই চড়া বাজারে একটু রয়েসয়ে বিনিয়োগ করাই ভালো।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here