RBI Repo Rate

ওয়েবডেস্ক: আশঙ্কা ছিলই। ফলে মঙ্গলবার সকাল থেকে ভারত-সহ গোটা এশিয়ার শেয়ার বাজারে পতনের ছবি মোটেই অমূলক নয়। ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক যদি কেন্দ্রীয় সরকারের আর্জি মতো ব্যাঙ্কের পরিচালন পর্ষদের পাশাপাশি প্যানের গড়ার সিদ্ধান্তে সায় দেয়, তাতে গোটা বিশ্ব অর্থনীতিতেই ছাপ পড়বে বলে আগেই আশঙ্কা করা হয়েছিল। আদতে মঙ্গলবারের শেয়ার বাজার সেটাই দেখছে। যার সূচনা হয়েছিল ওয়াল স্ট্রিটের হাত ধরে!

এ দিন বাজার খোলার শুরু থেকেই মুষড়ে পড়েন বিনিয়োগকারীরা। রিজার্ভ ব্যাঙ্কের বৈঠকের দিন যখন সেনসেক্স ৩০০ পয়েন্টের উপর উঠে বন্ধ হয়, তখন মঙ্গলবার বাজার খোলে ৪৪ পয়েন্টে নীচে নেমে। কিছুক্ষণের মধ্যেই ২০০ পয়েন্ট নীচে নেমে যায় সেনসেক্স। একই অবস্থা ৫০ স্টকের নিফটি-রও। ফলে বিনিয়োগাকারীদের মনে যে হতাশার পূর্বাভাস গত সোমবারই মিলেছিল, তার বহির্প্রকাশ শুরু হয়েছে বলেই মনে করছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা।

আরও পড়ুন: মাথায় চড়ে না বসলেও রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ঘাড়ে চেপে বসল মোদী সরকার!

আরবিআইয়ের পরামর্শদাতা প্যানেল গঠনের বিষয়টির সঙ্গেই যুক্ত হয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের হাতে থাকা উদ্বৃত্ত অর্থের অংশিদারিত্ব কেন্দ্রের হাতে তুলে দেওয়া। ওই বৈঠকেই স্থির হয়েছে, আরবিআই ৮,০০০ কোটি টাকার সরকারি বন্ড কিনবে। একই সঙ্গে রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক এবং ব্যাঙ্ক নয় এমন আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলির ঋণনীতি নিয়েও নমনীয় হওয়ার ইঙ্গিত দিয়েছে আরবিআই। ফলে সব মিলিয়ে বর্তমান কেন্দ্রীয় সরকারের চাপিয়ে দেওয়া নীতি আরবিআই হজম করতেই বিনিয়োগকারীরা সূদুরপ্রসারী প্রভাব নিয়ে যথেষ্ট চিন্তিত বলে জানা গিয়েছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here