us fed reserve

ওয়েবডেস্ক: চলতি বছরে তৃতীয়বারের জন্য সুদের হার বাড়াল আমেরিকার কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক ফেডারেল রিজার্ভ। ২০১৯ আসতে বাকি আর মাত্র মাস তিনেক। এরই মধ্যে আগামী বছরের আর্থিক সংস্কারের জোরালো ইঙ্গিত দিয়েই ফেড রিজার্ভ কর্তারা কালক্ষেপ করলেন না। দেশের রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রবল সমালোচনাকেই শিরোধার্য করে দেশের আর্থিক সংস্কারের মোড়কে বাণিজ্যযুদ্ধের অস্ত্র প্রয়োগ করল আমেরিকা।

ফেড রিজার্ভ জানিয়েছে, চলতি বছরের শেষ ত্রৈমাসিকের জন্য সুদের হার করা হয়েছে ২-২.৫ শতাংশ। এর আগে যা ছিল ১.৭৫-২.২৫ শতাংশ। মাস দুয়েক আগে বাণিজ্যযুদ্ধ সংক্রান্ত বিষয়ে প্রবল আলোড়ন শুরু হয় গোটা বিশ্ব জুড়ে। সে সময় আমেরিকার মূল অর্থনৈতিক আক্রমণের নিশানা হয়ে দাঁড়ায় চিন। ট্রাম্পের সেই যুদ্ধে জয়লাভের জন্য যাবতীয় ব্যবস্থা নিয়েছিলেন। যার মধ্যে একটি ছিল ফেড রিজার্ভের সুদের হার বাড়ানোর প্রস্তাবও ছিল তাঁরই।

আমেরিকার কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক সুদের হার বাড়ালে যে বিশ্ব অর্থনীতিতে তার প্রকট প্রভাব পড়বে,তা বলার অপেক্ষা রাখে না। ডলারের দাম বাড়বে। সে বিনিয়োগ বাড়বে। এর ফলে ভারতে কী হতে পারে? পড়ুন নীচের লিঙ্কে-

টাকার দাম আরও পড়তে পারে, সুদের হার বাড়াচ্ছে ফেড রিজার্ভ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন