Petrol price hiked

কলকাতা: গত ২৪ এপ্রিল থেকে বাড়েনি জ্বালানি তেলের দাম। যদিও বিশ্ববাজারে অপরিশোধিত তেলের ব্যারেল পিছু দাম দাঁড়িয়েছে ৭৫ ডলার। ২০১৪ সালের পর থেকে পেট্রোল বা ডিজেলের দাম একটি বারের জন্যও ছুঁতে পারেনি এই দামকে। তা হলে ঠিক কী কারণে থমকে গিয়েছে এ দেশের জ্বালানি তেলের দর?

সরকার নির্ধারিত পন্থা অনুযায়ী, বিশ্ববাজারের সঙ্গে সাযুজ্য রেখেই প্রতিদিন নতুন দাম ঘোষণা করে থাকে তেল সরবরাহকারী সংস্থাগুলি। কিন্তু বিশ্ববাজারে দাম বাড়লে সরকারি কোনো এক নির্দেশে তারা নিতে পারছে না তেলের দাম বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত। উল্টে এ বছরেই তিনটি ধাপে লভ্যাংশ থেকে এক টাকা করে ছেঁটে ফেলার নির্দেশেও লোকসান করতে হচ্ছে সংস্থাগুলিকে। দেশের বৃহৎ এক তেল সরবরাহকারী সংস্থা থেকেই বেরিয়ে এসেছে একটি গোপন তথ্য। কী বলছে সেই তথ্য?

বলা হচ্ছে, আগামী ১২ মে কর্নাটক বিধানসভার ভোট। তার আগে যাতে তেলের দাম বাড়িয়ে কেন্দ্রের প্রতি ক্ষোভের বহর বৃদ্ধি না করা হয়, সে বিষয়ে যথেষ্ট মনোযোগ সহকারে তদারকি করছে সরকার।

একটি সূত্র বলছে, আগামী ১৫-১৬ মে মধ্যরাত থেকে ইন্ডিয়ান ওয়েল কর্পোরেশন তেলের দাম বাড়ানোর পরিকল্পনা নিয়েছে। অমসর্থিত সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই দিন এক লপ্তে প্রায় এক টাকার কাছাকাছি বাড়তে পারে জ্বালানি তেলের দাম।

উল্লেখ্য, গত ২৩ এপ্রিল কলকাতায় ডিজেলের লিটার প্রতি দাম ৬৮.৪৮ টাকা। পর দিন ২৪ এপ্রিল সেই দাম দাঁড়ায় ৬৮.৬৬ টাকায়। একই ভাবে ২৩ ও ২৪ এপ্রিল কলকাতায় পেট্রোলের দাম ছিল ৭৭.২৩ টাকা এবং ৭৭.৩৬ টাকা। গত ২৪ এপ্রিলের সেই দামই স্থির হয়ে রয়েছে ৫ মে পর্যন্ত।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here