২০০ বছরে এই প্রথমবার, বড়োদিনের উৎসব হবে না বিশ্ববিখ্যাত এই গির্জায়

0

প্যারিস: দুই বিশ্বযুদ্ধ চলাকালীনও যে ঘটনাটি ঘটেনি, সেটাই এ বার ঘটতে চলেছে বিশ্ববিখ্যাত নোত্রে দামে গির্জায়।

দুশো বছরে এই প্রথমবার বড়োদিনের প্রার্থনা হবে না প্যারিসের এই বিখ্যাত গির্জায়।

এ বছর এপ্রিলে ভয়াবহ আগুন লেগেছিল এই গির্জায়। সেই স্মৃতি এখনও টাটকা প্যারিসবাসীর মধ্যে। এখনও ক্ষয়ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে পারেনি এই গির্জা। সে কারণেই এ বার বড়োদিনের প্রার্থনা হবে না।

গত এপ্রিল মাসের ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে প্রভূত ক্ষতি হয়েছে ৮৫৫ বছরের প্রাচীন এই গির্জাটির। যদিও গির্জার রেক্টর প্যাট্রিক শোভে জানিয়েছেন, নোত্রে দামের ‘আত্মা’কে বাঁচিয়ে রাখতে বড়োদিন উপলক্ষে বিশেষ প্রার্থনার আয়োজন করেছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন ‘নাগরিকত্ব আইনের প্রভাব নয়’, দাবি বিজেপির

তবে এ বার এই প্রার্থনার জন্য জমায়েত হবে নোত্রে দামে থেকে কিছুটা দূরে অন্য একটি গির্জায়। ফরাসি বিপ্লবের পরে এই প্রথম বড়োদিনের রাতে কোনো প্রার্থনা হবে না গির্জাটিতে।

নোত্রে দামের অগ্নিকাণ্ড ফ্রান্সের ইতিহাসে অন্যতম বড়ো দুর্যোগ বলেই গণ্য হচ্ছে। ঘটনার পর আবেগতাড়িত হয়ে গির্জাটিকে স্বমহিমায় ফিরিয়ে আনতে বিপুল অর্থসাহায্যের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন ফরাসি শিল্পপতিরা।

১১৬৩ খ্রিস্টাব্দে রাজা লুইয়ের আমলে শুরু হয়েছিল নোত্রে দামে গির্জা তৈরির কাজ। ১০০ বছরের বেশি সময় ধরে বানানো এই বিশাল ঐতিহ্যমণ্ডিত গির্জাটি প্রকৃত অর্থেই পৃথিবীর স্থাপত্যের ইতিহাসের এক অনন্য স্থাপত্য হিসেবে গণ্য হয়।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন