dating
প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক : মহিলাদের মধ্যে ২৩% থেকে ৩৩%-ই এখন ভালোবাসার স্বার্থে ডেটিং করে না। ডেটিং করে কেবল বিনা পয়সায় খাবার লোভে! এমনটাই বলছে একটি গবেষণা।

ক্যালিফোর্নিয়ার আজুসা প্যাসিফিক ইউনিভার্সিটি এবং ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফর্নিয়া মার্সেডের গবেষকরা দেখেছেন যাঁদের চরিত্রের মধ্যে বিশেষ তিনটি বৈশিষ্ট্য থাকে তাঁরাই এই রকমের মানসিকতার। তাঁরাই বেশি করে এই ভাবে ডেটিং-এর ছলে বিনা পয়সায় খেতে আসেন।

বিশেষ ধরনের তিন বৈশিষ্ট্যের মধ্যে রয়েছে মানসিক অস্থিরতা, প্রতারণা করার মানসিকতা, নিজের সম্বন্ধে অহংকার। এর সঙ্গে প্রাচীন প্রথাগত যৌন সম্পর্কে বিশ্বাসী। এই ধরনের মানসিকতার সঙ্গে যুক্ত থাকে ভালোবাসার নামে অন্য মানুষকে ব্যবহার করা এবং তার সঙ্গে ছলনা করার মানসিকতাও। এই ছলনার এর মধ্যে রয়েছে এক রাত্রির সম্পর্ক স্থাপন, প্রচণ্ড উত্তেজনা জাগানো, অসামাজিক যৌন ছবি পাঠানো। আজুসা প্যাসিফিক ইউনিভার্সিটির ব্রিয়ান কলিসন ‘সোশ্যাল সাইকোলজিক্যাল অ্যান্ড পার্সোনালিটি সায়েন্স’ পত্রিকায় এ কথা বলেছেন।

প্রথম গবেষোণাতে ৮২০ জন মহিলাকে কাজে লাগানো হয়। তাঁদের বেশ কিছু প্রশ্নের উত্তর দিতে হয়। সেই উত্তর থেকেই বেরিয়ে এসেছে তাঁদের চরিত্রের ধরন। তার থেকেই দেখা গিয়েছে ২৩% মহিলাই এই ক্যাটেগরিতে রয়েছেন। তবে বেশির ভাগই অনুষ্ঠান সাপেক্ষে বা খুবই কম এমনটা করে থাকেন।  

আরও পড়ুন – ‘বিশ্বের সব থেকে ক্ষমতাশালী নেতা’ মোদী! ভোটাভুটিতে জানাল ব্রিটিশ সংবাদ মাধ্যম

দ্বিতীয় দফায় ৩৫৭ জন মহিলাকে গবেষণায় রাখা হয়েছিল। তাঁরা ছিলেন হেটরোসেক্সুয়াল। এঁদের মধ্যে ৩৩% বিনা পয়সায় খাবার জন্য ডেটিং-এ যান।

এই দুই ধরনের যৌন প্রবৃত্তির মহিলার মধ্যে যাঁরা কেবল খাওয়ার জন্য ডেটিং করেন তাঁদের বেশির ভাগের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যেই মানসিক অস্থিরতা, প্রতারণা করার মনভাব, নিজের সম্বন্ধে অহংকারবোধ বেশি।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here