রাত ১০টায় বিপুল হাততালি, রাজপুত্রকে আবেগপ্রবণ বিদায় জানাতে তৈরি হচ্ছে আর্জেন্তিনা

0

খবরঅনলাইন ডেস্ক: গোটা বিশ্বকেই নাড়িয়ে দিয়েছে ফুটবলের সম্রাট দিয়েগো আর্মান্দো মারাদোনার (Diego Maradona) আকস্মিক মৃত্যু। কিন্তু স্বাভাবিক ভাবেই আর্জেনিন্তায় শোক সব থেকে বেশি। এখনও কিংবদন্তির মৃত্যুসংবাদের ঘোর কাটিয়ে উঠতে পারেনি সে দেশের মানুষ। বুধবার রাত দশটায় হাততালিতে ফেটে পড়ল গোটা আর্জেন্তিনা।

তবে এরই মধ্যে ফুটবলের রাজপুত্রকে বিদায় জানানোর প্রস্তুতি জোরকদমে শুরু হয়ে গিয়েছে আর্জেন্তিনায়। প্রশাসনের অনুমান আগামী দু’ দিন মারাদোনাকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে দশ লক্ষ মানুষের আগমন হতে পারে রাজধানী বুয়েনোস আইরেসে।

বুয়েনোস আইরেসের প্রেসিডেন্ট ভবন কাসা রোসাদায় মারাদোনার দেহ শায়িত থাকবে বলে জানাচ্ছে আর্জেন্তিনার দৈনিক বুয়েনোস আইরেস টাইমস

প্রেসিডেন্ট ভবনের তরফে বিবৃতিতে বলা হয়েছে যে স্থানীয় সময় সকাল ছ’টা থেকে বিকেল ৪টে পর্যন্ত ভক্তরা আসতে পারবেন কাসা রোসাদায়। রাত তিনটের খবর, ইতিমধ্যেই কাসা রোসাদায় ভিড় করতে শুরু করেছেন ভক্তরা।

এ দিকে মারাদোনা স্মরণে বুধবার রাত ১০টায় হাততালিতে ফেটে পড়ে গোটা আর্জেন্তিনা। হাততালির পাশাপাশি, গাড়ির হর্ন, সাইরেন বাজানো হয়। গানে গানে সুর মেলান আর্জেন্তিনার বাসিন্দারা। দেশের সব ক’টি ফুটবল স্টেডিয়ামের আলো জ্বালিয়ে দেওয়া হয় রাত দশটায়।

মারাদোনার পরিবার তাঁর পাবলিক ফেয়ারওয়েলে সম্মতি হয়েছেন। সে কারণে দেশের প্রেসিডেন্ট তাঁর বাসভবনকে সাধারণ মানুষের জন্য খুলে দিতে রাজি হয়েছেন। আগামী তিন দিন দেশ জুড়ে জাতীয় শোক পালন করা হবে বলে বুধবারই জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট আলবের্তো ফের্নান্দেজ।

বুধবার, মারাদোনার মৃত্যুর দু’ঘণ্টার পর থেকেই তাঁর আবেগপূর্ণ বিদায়ের প্রস্তুতি শুরু হয়ে যায়। কাসা রোসাদায় প্রচুর মানুষের সমাগম হবে, এই আন্দাজ করে ইতিমধ্যেই ব্যবস্থা নিতে শুরু করে প্রশাসন। কোভিডের কারণে শারীরিক দূরত্ববিধি যাতে বজায় থাকে সে দিকেও নজর দিতে হচ্ছে।

কাসা রোসাদাকে কেন্দ্র করে শহরের একটা বড়ো অংশে যান চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হবে সকাল ছ’টা থেকে বিকেল ৪টে পর্যন্ত। মেট্রো রেলের তিনটে স্টেশনও বন্ধ থাকবে। ভক্তদের হেঁটেই শেষ বিদায় জানাতে আসতে হবে। বিভিন্ন পয়েন্টে জীবাণুনাশক এবং স্যানিটাইজ করার ব্যবস্থাও রাখা হচ্ছে।

জানা গিয়েছে, স্থানীয় সময়ে মঙ্গলবার রাতে ঘুমের মধ্যেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন মারাদোনা। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার রাত ১১টায় তাঁকে শেষ বার দেখেছিলেন তাঁর পাশের বাড়িতে থাকা ভাইপো। বুধবার সকাল সাড়ে ১১টায় মারাদোনার নিথর দেহ উদ্ধার করা হয়। বার বার চেষ্টা করা সত্ত্বেও ফুটবলের রাজপুত্রকে বাঁচানো যায়নি।

ফুটবলের রাজপুত্র দিয়েগো মারাদোনার মৃত্যু নিয়ে আরও খবর পড়ুন এখানে।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন