বাচ্চাদের পোশাক ডেলিভারির মাধ্যমে ছড়াতে পারে করোনা, সতর্কতা চিনের

0
প্রতীকী ছবি: লাইভমিন্ট/এএফপি-র সৌজন্যে

কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে চরম পদক্ষেপ নিয়েছে চিন। করোনা নতুন করে চোখ রাঙানোয় বেজিংয়ের শপিং মল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। রাজধানী জুড়ে জারি হয়েছে হাই-অ্যালার্ট। সতর্ক করা হয়েছে দেশের সবচেয়ে বড়ো বার্ষিক অনলাইন শপিং উৎসব নিয়েও। বলা হয়েছে, শপিং মলে পাঠানো পার্সেলের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়তে পারে করোনাভাইরাস।

উত্তর-পূর্ব হেবেইপ্রদেশের একটি শিশুদের পোশাক প্রস্তুতকারী সংস্থার তিনজন কর্মী করোনা সংক্রামিত হওয়ার পরই উদ্বেগ চেপে বসেছে। এর জেরে ওই সংস্থা থেকে ১,২০০ মাইলেরও বেশি দূরে বসবাসকারী মানুষের উদ্দেশে এমন সতর্কতা জারি করেছেন কর্তৃপক্ষ। যে সব ক্রেতা ইতিমধ্যেই ওই কোম্পানির কাছ থেকে পোশাক কিনেছেন এবং সেগুলো ব্যবহার করছেন, তাঁদের অবিলম্বে নমুনা পরীক্ষা করানোর নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। এই পরিস্থিতিকে “কোভিড-সম্পর্কিত মেল চেইন” হিসাবে বর্ণনা করেছে চিনের দক্ষিণ-পূর্বে গুয়াংজিতে স্বাস্থ্য কমিশন।

উল্লেখ্য, ফের নতুন করে করোনা ছড়াতে শুরু করেছে চিন জুড়ে। বিশেষ করে চিনের রাজধানী শহর বেজিংয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ বাড়ছে। কোভিড যে ভাবে বেজিং জুড়ে ডালপালা বিস্তার করছে, তার জেরে চিনের রাজধানী শহরের শপিং মল-সহ একাধিক হাউজিং কমপ্লেক্স ‘সিল’ করে দেওয়া হচ্ছে।

বেজিং সংলগ্ন হেবেইতে হাওহুই ইকমার্স কোম্পানির প্রায় ৩০০টি পোশাকের প্যাকেজ পরীক্ষা করেছেন কর্মকর্তারা। সরকার এক বিবৃতিতে বলেছে, সব পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। এ ছাড়া আরও দু’টি শহর – জিনজি এবং জিনঝোর পাশাপাশি প্রাদেশিক শেনজে শহরে পার্সেল-ডেলিভারি পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

আন্তর্জাতিক স্বাস্থ্য সংস্থাগুলি প্যাকেটজাত পণ্যে সংক্রমণের ঝুঁকি হ্রাস করলেও চিন ইতিমধ্যে আমদানি করা হিমায়িত খাবারের মতো পণ্যগুলি পরীক্ষা করছে। চিনা কর্তৃপক্ষ বলেছেন, বিদেশি বা উচ্চ-ঝুঁকিপূর্ণ অভ্যন্তরীণ অবস্থান থেকে আসা পার্সেলগুলি স্যানিটাইজ করা উচিত। এমনকী কম কোভিড ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে পণ্য নেওয়ার ক্ষেত্রে প্যাকেট খোলার সময় ক্রেতাকে মাস্ক এবং গ্লাস পরার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

এ দিকে, মঙ্গোলিয়ার জিলিনহট শহরের প্রশাসনিক কর্তৃপক্ষও পোশাক কেনাকাটা নিয়ে বিশেষ নির্দেশ দিয়েছেন। বলা হয়েছে, গত মাসে অন্য জায়গা থেকে পণ্য আসা জামাকাপড়ের দোকানে যাঁরা কেনাকাটা করেছেন, এমন লোকেরা কোভিড আক্রান্ত হলে অবশ্যই স্থানীয় রোগ প্রতিরোধ বিভাগে রিপোর্ট করতে হবে। তবে এখনও পর্যন্ত এ ধরনের ঘটনায় কারও কোভিড আক্রান্ত হওয়ার তথ্য অমিল।

এ দিকে, আলিবাবা গ্রুপ হোল্ডিং লিমিটেডের আয়োজিত বিশ্বের বৃহত্তম অনলাইন শপিং উৎসব “সিঙ্গলস ডে”-র জন্য নিজেদের প্রস্তুত করেছেন চিনা ক্রেতারা। গত বছর এই ইভেন্ট থেকে প্রায় ৫০,০০০ কোটি ইউয়ান (৭,৮০০ কোটি ডলার) মূল্যের পণ্য বিক্রি হয়েছিল। তারই মধ্যে এসেছে পোশাক ডেলিভারির মাধ্যমে করোনা ছড়ানো রুখতে চিনের এই সতর্কতা।

আজকের আরও কিছু উল্লেখযোগ্য খবর পড়তে পারেন এখানে:

‘ধর্মীয় বিশ্বাসে আঘাত লাগতে পারে’, প্রকাশ্যে আমিষ খাবার বিক্রির বন্ধ করার বিতর্কিত নির্দেশিকা ভারতের এই শহরে

আপনি কি সাইবার জালিয়াতির শিকার? অভিযোগ জানানোর জন্য নতুন পরিষেবা চালু করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

হাওড়া পুরসভা থেকে বিচ্ছিন্ন হল বালি, বিধানসভায় পাশ প্রস্তাব

মেঘ ঢকালো তামিলনাড়ু উপকূলের নিম্নচাপ, আগামী ৩-৪ দিন দফায় দফায় হালকা বৃষ্টি দক্ষিণবঙ্গে

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন