donald trump

ওয়েবডেস্ক: ক্ষমতায় আসার পর থেকে বিতর্ক পিছু ছাড়েনি আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের। শেষ কয়েক মাস ধরে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট কিম জং উনের নিরবচ্ছিন্ন হুমকি ট্রাম্পকে সর্বদা তটস্থ করে রেথেছে। পাশাপাশি রয়েছে এইচ ওয়ান বি এবং এল ওয়ান ভিসা নিয়ে সমস্যা। এরই মাঝে ট্রাম্পের নজরে এল তিনি টেকো বুড়ো হয়ে যাচ্ছেন। ঘনিষ্টদের প্রশ্ন করেছেন, খারাপ দেখাচ্ছে না তো?

গত শুক্রবার ওয়াশিংটন থেকে অদূরে একটি বিশেষ বৈঠকে যোগ দিতে যান আমেরিকার প্রেসিডেন্ট। সেখানে রক্ষণশীল নেতাদের সামনে তিনি বলেন, ‘বেশ কয়েক দিন ধরে লক্ষ্য করছি আমার চুল উঠে যাচ্ছে। তাই চুল আঁচড়ানোর সময় টাক ঢাকা দিতে গিয়ে সময় লাগছে। সব রকম ভাবে চেষ্টা করছি টাক ঢাকার।’

পর মুহূর্তেই তিনি বলেন, ‘এটা খুব একটা খারাপ লাগছে না বোধহয়।’

মনে করা যেতে পারে ট্রাম্পের এই উক্তি নিছক কৌতুকের ছলেই। কিন্তু ফেব্রুয়ারির গোড়া থেকেই তাঁর টাক নিয়ে ইতিউতি আলোচনা চলছে। ওই সময় বিমান বন্দরে তাঁর বিশেষ বিমানে ওঠার সময়, হালকা হাওয়ার চুল সরে গিয়ে বেশ বড়ো আকারেরই টাক ক্যামেরা বন্দি হয়ে যায়। সে খবর তিনি তাঁর কন্যা ইভাঙ্কার কাছ থেকে শুনেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এর পরই টাক ঢাকার কৌশলের কথা নিজের মুখেই স্বীকার করলেন ট্রাম্প।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন