নয়াদিল্লিতে হামলার নেপথ্যে হাত ছিল নিহত ইরানি কম্যান্ডার সোলেইমানির: ট্রাম্প

donald trump and qassem soleimani

লস অ্যাঞ্জেলস: নয়াদিল্লিতে হামলার নেপথ্যে হাত ছিল নিহত ইরানের রেভোলিউশনারি গার্ড কর্পসের কাদ্‌স ফোর্সের কম্যান্ডার জেনারেল কাসেম সোলেইমানির। এমনই চাঞ্চল্যকর মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। নিহত ইরানি সামরিক নেতা সোলাইমানিকে নয়াদিল্লিতে সন্ত্রাসবাদী চক্রান্তের জন্য অভিযুক্ত করেছেন তিনি।

ফ্লোরিডায় একটি রিসর্ট থেকে ট্রাম্প বলেন, “সোলেইমানি নিরপরাধ মানুষের মৃত্যুকে তার অসুস্থ আবেগ হিসাবে পরিণত করেছিল এবং এটি নয়াদিল্লি ও লন্ডন পর্যন্ত সন্ত্রাসবাদী চক্রান্তে ঘুঁটি সাজিয়েছিলেন”।

সোলাইমানিকে হত্যা করার নির্দেশ দিয়ে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার কথা বলতে গিয়ে ট্রাম্প বলেন, “আজ আমরা সোলাইমানির বহু অত্যাচারের শিকারদের স্মরণ করি এবং শ্রদ্ধা জানাই এবং তাঁর সন্ত্রাসের রাজত্ব শেষ হয়েছে, তা জেনে আমরা স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করছি”।

যদিও ট্রাম্প ভারতের মাটিতে সোলেইমানির হামলার ছক নিয়ে নির্দিষ্ট করে কিছু বলেননি, তিনি সম্ভবত ভারতে ইজরায়েলের এক প্রতিরক্ষা আধিকারিকের স্ত্রীর গাড়িতে ২০১২ সালের বোমা হামলার কথা উল্লেখ করেছেন।

ওই হামলায় তাল ইহোশুয়া কোরেন আহত হয়েছিলেন এবং তাঁর অস্ত্রোপচার করা হয়েছিল। ২০১২ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি একটি গাড়ির সঙ্গে চুম্বক দিয়ে একটি বোমা আটকে রেখে সেটিকে বিস্ফোরক হিসাবে ব্যবহার করা হয়। ওই দুর্ঘটনায় চালক এবং দু’জন যাত্রীও আহত হয়েছিলেন।

[আরও পড়ুন: কাসেম সোলেইমানি নিধন: এর পর কী ঘটতে চলেছে?]

ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু সে সময় বলেছিলেন, জর্জিয়ায় এই একই ধরনের হামলার পিছনে ইরান ছিল এবং অনুরূপ কৌশল ব্যবহার করে নয়াদিল্লিতে অন্য একটি হামলার চেষ্টা করেছিল।

নয়াদিল্লির ওই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত মীমাংসিত হয়নি। এমনকী ওই ঘটনার সঙ্গে ইরানের যোগসূত্র রয়েছে, তেমন কোনো চূড়ান্ত উপসংহারেও পৌঁছায়নি ভারত।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.