কাবুল বিমানবন্দরে বড়োসড়ো হামলার আশঙ্কায় বিশেষ সতর্কতা আমেরিকার

0
কাবুল বিমানবন্দরের বাইরে অপেক্ষা। ছবি: এনডিটিভি থেকে

খবর অনলাইন ডেস্ক: কাবুল বিমানবন্দরের আশেপাশের এলাকায় হাজার হাজার মানুষ অপেক্ষা করছেন আফগানিস্তান ছেড়ে যাওয়ার। বৃহস্পতিবার মার্কিন গোয়েন্দা সূত্রে খবর, সেখানে বড়োসড়ো জঙ্গি হামলা হতে পারে। যে কারণে, অপেক্ষারতদের এলাকা ছেড়ে যাওয়ার জন্য সতর্ক করা হয়েছে।

কাবুল বিমানবন্দরে সম্ভাব্য জঙ্গি হামলার বিষয়ে সতর্ক করেছে আমেরিকা এবং অন্য মিত্র দেশগুলো। তালিবানদের হাত থেকে নিষ্কৃতি পাওয়ার জন্য কয়েক হাজার মানুষ বিমানবন্দরের বাইরে উড়ানের অপেক্ষায় ঘণ্টার ঘণ্টার পর কাটিয়ে দিচ্ছেন।

গত ১৫ আগস্ট কাবুলের নিয়ন্ত্রণ নেয় কট্টর ইসলামপন্থী তালিবান। তার পর থেকে প্রায় ৯০ হাজার আফগান এবং বিদেশি বিভিন্ন উপায়ে আফগানিস্তান ছেড়ে পালিয়েছেন। মার্কিন বিমান বা অন্য কোনো মিত্র দেশের বিমানে তাঁদের ঘুরপথে নিজের গন্তব্যে পৌঁছে দেওয়া হয়েছে।

বিমানবন্দরে এবং আশেপাশের এলাকায় বিপুল জনসমাগমের আরও একটি কারণ আফগানিস্তান থেকে সেনা প্রত্যাহারের ব্যাপারে আমেরিকার সময়সীমা মেনে চলার বিষয়টি। ৩১ আগস্টের মধ্যেই মার্কিন প্রশাসন সেনা প্রত্যাহার করবে কি না, তা নিয়ে ধোঁয়াশা রয়ে গিয়েছে। যে কারণে, অন্য কিছু দেশ উড়ান স্থগিত করে দেয়।

এ দিকে একটি সূত্রের দাবি, আমেরিকার গোয়েন্দারা আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন, তালিবানের সঙ্গে মতবিরোধের জেরে এই সুযোগে হামলা চালাতে পারে ইসলামিক স্টেট-খোরাসান (আইসিস-কে) জঙ্গিগোষ্ঠী। তা ছাড়া আফগানিস্তানে আইএস-এর প্রচুর স্লিপার সেল রয়েছে। এই বিষয়গুলি হামলার আশঙ্কাকে এক ধাক্কায় অনেকটাই বাড়িয়েছে।

জানা গিয়েছে, মার্কিন সরকার এবং তার মিত্রশক্তিগুলো বৃহস্পতিবার নিজের নাগরিকদের বিমানবন্দর এড়িয়ে চলার জন্য একটি সতর্কতাবার্তা দিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের বিদেশ দফতর বলেছে, “অ্যাবি গেট, ইস্ট গেট বা নর্থ গেটে যাঁরা আছেন, তাঁদের এখনই ওই জায়গা ছেড়ে চলে যেতে হবে।”

অস্ট্রেলিয়ার বিদেশ বিষয়ক বিভাগ বলেছে, জঙ্গি হামলার বড়োসড়ো হুমকি রয়েছে। বলা হয়েছে, “কাবুলের হামিদ কারজাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে কাছে থাকবেন না। যদি আপনি বিমানবন্দরের এলাকায় থাকেন, তা হলে নিরাপদ স্থানে চলে যান এবং আরও পরামর্শের জন্য অপেক্ষা করুন।”

লন্ডনও একই ধরনের সতর্কতা জারি করে বলেছে, “যদি আপনি অন্য উপায়ে নিরাপদে আফগানিস্তান ছেড়ে যেতে পারেন, তা হলে সেটা অবিলম্বে করা উচিত”।

খবর অনলাইন-এর আরও খবর পড়ুন এখানে:

কেরলের কারণে আগের দিনের থেকে সংক্রমণ বাড়ল ২২.৭ শতাংশ

কেরলে যে দিন সংক্রমিত ৩১ হাজার, সে দিনই দিল্লি-সহ ১১টি রাজ্যে মোট সংক্রমিত ২৬৯

একদিনে কোভিডে সংক্রমিত ৩১ হাজারের বেশি, ওনামই কি ফের কাল হল কেরলের?

পর পর দু’দিন মৃত্যুহীন কলকাতা, তবে পশ্চিমবঙ্গে দৈনিক সংক্রমণ ফের সাতশো পার

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন