ron-dona valentines day

অ্যালবারকার্ক (যুক্তরাষ্ট্র): ভারত বা উপমহাদেশে ভ্যালেন্টাইন্স ডে পালন মূলত কমবয়সিদের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকলেও পশ্চিমী দুনিয়ায় এই দিনটিকে বিশেষ ভাবেই পালন করেন স্বামী-স্ত্রীরা। নিজেদের মধ্যে বিশেষ উপহার বিনিময় তো থাকেই। সেই সঙ্গে একে অপরকে ফুল চকোলেট-সহ আরও কত কীই বা দেন।

কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের এই বৃদ্ধ দম্পতির মতো বিশ্বে আর একটাও দম্পতি আছে কি না সে প্রশ্ন উঠতেই পারে। কারণ গত ৩৯ বছর ধরে একই ট্র্যাডিশন রক্ষা করে আসছেন বৃদ্ধ। কী সেই ট্র্যাডিশন?

তাঁর স্ত্রীকে একই বাক্সে ভ্যালেন্টাইন্স ডে-র উপহার দেওয়া। ১৯৭৯ সালে প্রথম ভ্যালেন্টাইন্স ডে-তে স্ত্রী ডোনাকে যে বাক্সে উপহার দিয়েছিলেন সে দিনের যুবক রন, আজও সেই বাক্সেই উপহার দেন।

এটা কী ভাবে সম্ভব হল?

প্রথম ভ্যালেন্টাইন্স ডে-তে কী উপহার তিনি চান, এই ব্যাপারে রন প্রশ্ন করতেই ডোনা উত্তর দিয়েছিলেন, তিনি ডার্ক চকোলেট উপহার হিসেবে পেতে চান। রন একটি মুহূর্ত অপেক্ষা না করে পাড়ার একটি দোকানে ছুটে যান। দোকানে চকোলেট কেনার সময়ে দোকানি জানান, পরের বছর এই বাক্সটা নিয়ে এলে বিশেষ ছাড় পাওয়া যাবে। প্রথমে এই ব্যাপারে কিছু না ভাবলেও, ধীরে ধীরে এটাই ট্র্যাডিশনে পরিণত হয়ে যায় রনের।

কিন্তু রনের জীবনে দুঃখও রয়েছে বিস্তর। ডোনা এখন ডিমেনশিয়ার রোগী। বাড়ির বদলে তাঁর আস্তানা এখন হাসপাতালে। রন জানেন, ধীরে ধীরে তাঁকে ভুলে যাবেন ডোনা, কিন্তু তিনি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। যত দিন তিনি বেঁচে থাকবেন, এই ট্র্যাডিশন তিনি ভাঙবেন না।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন