Imran-Khan
ইমরান খান। ছবি: স্কাই নিউজ থেকে

ওয়েবডেস্ক: সাংবাদিক সম্মেলনে পাকিস্তানের সম্ভাব্য প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান আগামী সরকারের কর্মসূচি ঘোষণা করলেন। পাশাপাশি তিনি পাকিস্তানের সামনে চিনকে তুলে ধরে ভারত সম্পর্কে কঠোর মনোভাবের কথাই ব্যক্ত করলেন।

ইমরান বলেন, “কাশ্মীরে মানবিধার লঙ্ঘিত হচ্ছে। এত দিন এক তরফা ভাবেই পাকিস্তানের উপর দোষারোপ করা হচ্ছে। গত ৩০ বছরে কাশ্মীরের অবস্থা আরও খারাপ হয়েছে। সেখানে কষ্ট সহ্য করতে হচ্ছে সাধারণ মানুষকে। এ বার কাশ্মীরে শান্তি ফিরিয়ে নিয়ে আসার পদক্ষেপ নেওয়া হবে”।

পাশাপাশি তিনি বলেন, “ভারতীয় মিডিয়া আমাকে আক্রমণ করেছে। ভারতের সঙ্গে বাণিজ্যিক সম্পর্ক তৈরি করবে নতুন সরকার”।

পাকিস্তানের সাধারণ মানুষকে এক হওয়ার আবেদন জানিয়ে ইমরান বলেন, “আমাদের সামনে উদাহরণ চিন। চিনের সঙ্গে সম্পর্ক তৈরি করতে হবে। সে দেশের গরিবি হঠাও নীতি আমাদের নিতে হবে”।

পাকিস্তান যে দুর্নীতির আখড়া হয়ে উঠেছে, তা কার্যত স্বীকার করে ইমরান বলেন, “আমাদের সরকার দুর্নীতি রোধে সমস্ত ব্যবস্থা নেবে।  দুর্নীতির জন্যই পাকিস্তানে কোনো বিনিয়োগ আসে না। সব বিনিয়োগ চলে যায় মালয়েশিয়ায়। আমাদের সরকারের কোনো নেতা দুর্নীতি করলে তাঁকে ছাড়া হবে না। বিনিয়োগ বাড়লেই দেশে কর্মসংস্থান বাড়বে। সরকারের টাকা মানুষের উন্নয়নে ব্যবহার করা হবে। মানুষ যে কর দেবে তা মানুষের কাজেই ব্যবহার করা হবে। আফগানিস্থানে ফিরলে পাকিস্তানে ফিরবে না কেন”?

পড়তে পারেন: এক দিনে জোড়া রেকর্ড করল ভারতীয় শেয়ার বাজার

ওই সাংবাদিক বৈঠকে নতুন সরকারের নীতি নিয়ে বিশদে আলোচনা করতে গিয়ে তিনি বলেন,  “কমজোর মানুষের জন্য সমস্ত পলিসি তৈরি করব। আইনের সামনে সবাই সমান। আমরা এমন জায়গায় পাকিস্তানকে নিয়ে যাব, যা এতদিন হয়নি”।

পড়তে পারেন: ১৭৮ সেকেন্ডে বিক্রি হল রয়াল এনফিল্ডের ২৫০টি নতুন বাইক, ভাবা যায়!

নিজের উপর হামলার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “আমার উপর এতগুলো হামলা হয়েছে, আমার মনে হয় না আর কোনো নেতার উপর হয়েছে”।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here