চুল কাটিয়ে, গায়ে রঙ মাখিয়ে, খালি পায়ে ঘোরানো হল মেয়রকে

0

ওয়েবডেস্ক: সরকারবিরোধী বিক্ষোভে জ্বলছে লাতিন আমেরিকার বোলিভিয়া। এই বিক্ষোভের মধ্যেই চরম হেনস্থা করা হল সে দেশের একটি ছোট্ট শহরের মেয়রকে। খালি পায়ে রাস্তায় হাঁটিয়ে, জোর করে চুল কাটিয়ে গায়ে রঙ মাখানো হল তাঁর। সেই সঙ্গে বিক্ষোভকারীরা সমস্বরে তাঁর উদ্দেশে বলে উঠল, ‘খুনি খুনি।’

গত ২০ অক্টোবর রাষ্ট্রপতি নির্বাচন হয় বোলিভিয়ায়। সেই নির্বাচনে জিতে পুনরায় মসনদ দখল করেন এভো মোরালেস। এর পরেই বিক্ষোভে রাস্তায় নেমে পড়েন বিরোধী দলের সমর্থকরা। বিরোধীদের দাবি, ওই নির্বাচনে চরম রিগিং হয়েছে।

বিবিসির দাবি, এখনও পর্যন্ত বিক্ষোভে বোলিভিয়ায় মৃত্যু হয়েছে তিন জনের।

সেই বিক্ষোভের আঁচ গিয়ে লাগে মোরালেসের দল মাস পার্টির নেত্রী তথা বোলিভিয়ার বিন্তো শহরের মেয়র পাত্রিসিয়া আর্সের ঘরেও।

আরও পড়ুন শক্তি বাড়িয়ে অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় হল বুলবুল, গতিপথ অপরিবর্তিত

বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, এই বিন্টো শহরেই মোরালেসের দলের সমর্থকদের হাতে খুন হয়েছে বিরোধী দুই সমর্থক। বিক্ষোভকারীদের অভিযোগ, পাত্রিসিয়া নিজে এই খুনের সঙ্গে যুক্ত।

বুধবার তাঁর অফিসে মুখোশ পরা কয়েক জন ঢুকে পড়ে। তার পর টেনে হিঁচড়ে রাস্তায় টেনে তোলা হয়। বিক্ষোভকারীদের ‘খুনি খুনি’ চিৎকারের মধ্যেই জোর করে তাঁর চুল কাটিয়ে দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে লাল রঙ ঢেলে দেওয়া হয় তার পুরো শরীরে।

এর পাশাপাশি বিক্ষোভকারীরা পাত্রিসিয়ার অফিসেও আগুন লাগিয়ে দেয়। তবে ঘটনাস্থলে পুলিশ চলে আসায় রক্ষা পেয়ে পাত্রিসিয়া। পুলিশ তাঁকে একটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভরতি করেছে।

সব মিলিয়ে নির্বাচন-পরবর্তী অহিংসায় বোলিভিয়ায় কার্যত অচলাবস্থা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.