syria-2

ওয়েবডেস্ক: অব্যাহত রইল গুলিগোলার আওয়াজ। রাশিয়া বিদ্রোহীদের কাছে ‘মানবিক করিডর’ হিসাবে চিহ্নিত জনবসতিগুলিকে ছেড়ে দেওয়ার কথা বললেও মানবাধিকার কর্মীদের দাবি, ওই রকম কিছু এলাকাতেও চলল গুলি। বোমা পড়ল পূর্ব ঘাটার কয়েকটি এলাকাতেও।

যার জেরে রাষ্ট্রপুঞ্জের চিকিৎসা সংক্রান্ত কাজকর্মও থমকে গেল ওই এলাকাগুলিতে।

আরও পড়ুন: এক সপ্তাহে সিরিয়ায় মৃত ১২১ শিশু-সহ মোট ৫০০ : দাবি মানবাধিকার সংগঠনের

২০১৩ থেকে দামাস্কাসের কাছাকাছি ছিটমহলগুলিতে বসবাসকারী ৩৯৩,০০০ মানুষ আটকে পড়েছেন বলে দাবি করেছেন মানবাধিকার কর্মীরা। চিকিৎসক দলের অভিযোগ, গত ন’দিন ধরে ক্রমাগত বোমাবর্ষণের ফলে পাঁচশোর বেশি মানুষের প্রাণ গিয়েছে।

Syria's war

যদিও ফ্রান্স রাশিয়ার কাছে আহ্বান জানিয়েছে, সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদকে দেশের শান্তি ও সার্বভৌমত্ব রক্ষায় ৩০ দিন সময় দিতে।

আরও পড়ুন: পৃথিবীর মধ্যে নরক! বিদ্রোহী অঞ্চলে বোমাবর্ষণ থামানোর জন্য সিরিয়াকে চাপ আন্তর্জাতিক মহলের

অন্য দিকে রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদ সর্বসম্মতভাবে একটি প্রস্তাব পাস করে বলেছে, যে যুদ্ধবিগ্রহের অবসানে সব ক’টি দেশ সহমত পোষণ করুক। কিন্তু এই প্রস্তাবে যুদ্ধাবাসনের নির্দিষ্ট কোনো তারিখ উল্লেখ না থাকায় ধোঁয়াশা সৃষ্টি হয়েছে।মঙ্গলবারেও পূর্ব ঘাটার একটি এলাকায় বোমার আঘাতে দু’জনের মৃত্যু হয়েছে এবং অসংখ্য সাধারণ নাগরিক আহত হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here