যুক্তরাষ্ট্রে খুন হয়ে গেলেন শিখ পুলিশ অফিসার

টেক্সাস: ট্র্যাফিক চেকিং করার সময়ে খুন হয়ে গেলেন এক শিখ পুলিশ অফিসার। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস শহরে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

মার্কিন পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, ‘ঠান্ডা মাথায়’ পেছন থেকে গুলি চালানো হয়েছে ওই সন্দীপ ধালিওয়াল নামক ওই পুলিশ অফিসারকে লক্ষ্য করে।

ওই আধিকারিক এড গোঞ্জালেস জানিয়েছেন, দশ বছরের অভিজ্ঞতাসম্পন্ন সন্দীপ ট্র্যাফিক চেকিং করছিলেন। একটি গাড়িকে আটকান তিনি। আচমকা গাড়ি থেকে এক মহিলা-সহ দু’ জন বেরিয়ে আসে। এর পর সন্দীপের ওপরে গুলি চালিয়ে দেয় ওই পুরুষ সঙ্গীটি।

গুলি চালানোর পরেই ঘটনাস্থল থেকে চম্পট দেয় আততায়ী। তার সন্ধানে জোর তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে গোয়েন্দাদেরও।

পুলিশ কমিশনার আদ্রিয়ান গার্সিয়া বলেন, “একজন অসাধারণ এবং দক্ষ অফিসার ছিলেন সন্দীপ। নিজের কর্তব্যের প্রতি অত্যন্ত দায়িত্বশীল এবং নিজের সম্প্রদায়ের প্রতি অনুগত ছিলেন তিনি।”

২০১৫ সালে ইতিহাস সৃষ্টি করেন সন্দীপ। নিজের ধর্মের প্রতি আনুগত্য রেখে এবং পাগড়ি আর দাড়ি রেখেও যে মার্কিন পুলিশে অফিসার হওয়া যায়, সেই দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছিলেন তিনি। ধর্মীয় সহিষ্ণুতা এবং সাংস্কৃতিক বিভেদের মধ্যে ঐক্য তুলে ধরার জন্য তাঁকে পাগড়ি এবং দাড়ি রাখার অনুমতি দিয়েছিল মার্কিন পুলিশ।

এর পাশাপাশি সমাজসেবামূলক কাজও করতেন তিনি। ‘ইউনাইটেড শিখ’ নামক একটি সমাজসেবী সংগঠনের সদস্য ছিলেন তিনি। কোথাও কোনো প্রাকৃতিক দুর্যোগ হলেই ট্রাকে করে ত্রাণসামগ্রী পৌঁছোতে যেতেন তিনি।

আরও পড়ুনরাষ্ট্রনায়কোচিত নয়,’ রাষ্ট্রপুঞ্জে ইমরানের বক্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ ভারতের

এ হেন অফিসারের আচমকা মৃত্যুতে শোকের ছায়া পুলিশ মহলে। আততায়ীকে খুঁজে বার করা হবেই বলে আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.