প্রতি বছরের মতো এ বারও স্বাধীনতা দিবসের প্রাক্কালে জঙ্গি হামলার হুমকি। ভারত-লাগোয়া ওয়াঘা সীমান্ত ও গন্দা সিং সীমান্ত এলাকায় দু’টি তালিবানি আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণের জন্য সতর্ক থাকতে বলল পাকিস্তানের শীর্ষস্থানীয় সন্ত্রাস-বিরোধী সংস্থা।

পাকিস্তানের ন্যাশনাল কাউন্টার-টেররিজম অথরিটি জানিয়েছে, ‘তেহেকিক ই তালিবান’-এর ফাজালুল্লাহ গোষ্ঠী ১৩, ১৪, ১৫ আগস্ট লাহোরের ওয়াঘা সীমান্তে ও কাসুরের গন্দা সিং সীমান্ত এলাকায় স্বাধীনতা দিবসের প্যারাডে  হামলার ছক করেছে। এর জন্য দু’ জন আত্মঘাতী মানববোমাকে পাঠানো হয়েছে ওই এলাকায়। জনগণ ও নিরাপত্তাবাহিনীকে রক্ষা করার জন্য পাকিস্তান রেঞ্জার্সের ডিরেক্টর জেনারেল (পঞ্জাব), পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্র দফতর এবং পাকিস্তানের পঞ্জাব প্রদেশের পুলিশপ্রধানকে কড়া সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিতে বলেছে পাক সন্ত্রাস-বিরোধী সংস্থা।      

পঞ্জাব প্রদেশের স্বরাষ্ট্র দফতর একটি আলাদা সতর্কতা জারি করে জানিয়েছে, ১৬ জন আত্মঘাতী হামলাকারী ইতিমধ্যেই এই প্রদেশে ঢুকে পড়েছে। এদের লক্ষ্য হল স্বাধীনতা দিবসের যে কোনও জমায়েতে হামলা চালানো। লাহোর পুলিশের মুখপাত্র নিয়াব হায়দার জানান,  এই পরিস্থিতি মোকাবিলা করার জন্য পঞ্জাব পুলিশ কঠোর ব্যবস্থা নিয়েছে। ৫০ জন সন্দেহভাজনকে গ্রেফতার করেছে তারা।  সীমান্তের পাশাপাশি গোটা এলাকাতেই নিরাপত্তা ব্যবস্থা বাড়ানো হয়েছে। সীমান্ত এলাকা ঘিরে রেখেছে পুলিশ।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here