ভারতের লালকেল্লা লাহোরে, বেজিং-এ এসসিও-র অনুষ্ঠানে বিভ্রান্তি

0
300

বেজিং : সাংহাই কোঅপারেশন অর্গানাইজেশন (এসসিও)-এর অনুষ্ঠানে বিভ্রান্তি। অস্বস্তিতে এসসিও-র আয়োজকরা। অনুষ্ঠানে পাকিস্তানের ট্যাবলোয় লাহোরের শালিমার গার্ডেন হিসাবে দেখানো হল ভারতের জাতীয় পতাকা সমেত লালকেল্লা।  প্রসঙ্গত সন্ত্রাসবাদ, বিচ্ছিন্নতাবাদ এবং চরমপন্থার বিরুদ্ধে কাজ করে এই এসসিও গোষ্ঠী।

বেজিং-এ এসসিও-র প্রধান কার্যালয়ে বৃহস্পতিবার একটি অনুষ্ঠানে নতুন সদস্য হল ভারত ও পাকিস্তান। সেই অন্তর্ভুক্তি অনুষ্ঠানেই এই বিভ্রান্তি। চিনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই, চিনে ভারতের রাষ্ট্রদূত বিজয় গোখলে, পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত মাসুদ খালিদ এবং অন্যান্য এসসিও সদস্য এ দিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে এই বিভ্রান্তির দিকে দৃষ্টি আকর্ষণ করেন ভারত ও পাক দূত দু’জনেই।

এই বিভ্রান্তির জন্য ক্ষমা চেয়ে নেন আয়োজকরা। বলেন, ভারত ও পাকিস্তানকে জড়িয়ে এই প্রথম অনুষ্ঠান হচ্ছে। তাঁদের কাছে যে সব ছবি এসেছিল সে সব খতিয়ে না দেখার জন্যই এই বিভ্রান্তি।

এসসিও-তে ভারত ও পাকিস্তানের অন্তর্ভুক্তি উপলক্ষে দু’টি দেশের রাষ্ট্রদূতদের উপস্থিতিতে বেজিং-এ এসসিও-র প্রধান কার্যালয়ে দু’ দেশের পতাকা উত্তোলন করা হবে। উল্লেখ্য, গত সপ্তাহেই আস্তানা সম্মেলনে ভারত ও পাকিস্তানকে এই গোষ্ঠীর সদস্য করা হয়। এখন এই গোষ্ঠীর সদস্যরা হল চিন, কাজাখস্তান, কিরগিজস্তান, রাশিয়া, তাজিকস্তান, উজবেকিস্তান, পাকিস্তান ও ভারত।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here