দিদির গয়নার উপর ছিল নজর! বেহালা জোড়া খুনের জট খুলল পুলিশ

0

কলকাতা: বেহালার পর্ণশ্রীতে মা ও ছেলের জোড়া খুনকাণ্ডে জট খুলল পুলিশ। এই ঘটনায় পুলিশের জালে নিহত মহিলার দুই মাসতুতো ভাই। পুলিশ জানিয়েছে, দিদির গয়নার লোভেই তাদের হাতে পুত্র-সহ খুন হয়েছেন ওই মহিলা।

গত সোমবার রাতে কাজ থেকে বাড়িতে ফিরে গৃহকর্তা তপন মণ্ডলই প্রথম দেখেন স্ত্রী ও ছেলের নিথর দেহ। নিহতরা হলেন সুস্মিতা মণ্ডল (৪৫) এবং তাঁর ছেলে তমোজিৎ মণ্ডল (১৪)। মা-ছেলের দেহের ময়নাতদন্তের প্রাথমিক রিপোর্ট অনুয়ায়ী, বিকেল ৩টে থেকে ৪টের মধ্যেই খুন করা হয়েছে তাদের। মৃতদের পাকস্থলীতে খাবার মিলেছে। নমুনা দেখে তদন্তকারীদের অনুমান, সচেতন অবস্থাতেই ধারালো কোনো অস্ত্র দিয়েই খুন করা হয় নিহতদের। সুস্মিতার শরীরে ২০ জায়গায় ও তমোজিতের দেহে ৫টি ক্ষতচিহ্ন মিলেছে। তবে সচেতন অবস্থায় খুন করা হলেও সে অর্থে প্রতিরোধের কোনো চিহ্ন বা আঘাত মেলেনি।

পুলিশ আগেই দাবি করেছিল, এই জোড়া খুনের নেপথ্যে রয়েছে পরিবারের কোনো পরিচিত। আবাসনের বাসিন্দারা জানান, ওই আবাসনের গেট তালাবন্ধ থাকে। গোয়েন্দাদের দাবি, পরিচিত কাউকে দেখেই চাবি দেন গৃহকর্ত্রী। সেই অনুমান-ই সত্যি হল।

রবিবার কলকাতা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার (ক্রাইম) মুরলীধর শর্মা জানান, দিদির সোনার গয়নার উপর নজর ছিল ধৃত সন্দীপ ও সঞ্জয় দাসের। মাকে খুন করার ঘটনা দেখে ফেলেছিল ছেলে। তাই ছেলেকেও খুন করে ধৃতরা।

Shyamsundar

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃত দুই সন্দীপ এবং সঞ্জয় মহেশতলা থানার অন্তর্গত ঘোষপাড়া শ্যামপুরের বাসিন্দা। আর্থিক অনটনে ভুগছিল তারা। ঋণের বোঝাও ছিল মাথার উপর। টাকার জন্যই তারা পরিকল্পনা মাফিক দিদিকে খুন করে। আর সেই দৃশ্য দেখে ফেলে তমোজিৎ। প্রমাণ লোপাট করতে তাকেও খুন করে ধৃতরা। পুলিশি জেরায় এ কথা স্বীকারও করে নিয়েছে তারা।

প্রসঙ্গত, এই ঘটনার তদন্তে নেমে মৃত মহিলার স্বামী, বেসরকারি ব্যাঙ্কের কর্মী তপন মণ্ডল ও তাঁর ছেলের গৃহশিক্ষক-সহ আরও অনেককে জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশ।

তপনবাবুর বয়ানে নানা অসঙ্গতি থাকায় তাঁর ওপরেই সন্দেহ সব থেকে বেশি ছিল। তাই দফায় দফায় তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদের পাশাপাশি আটকও করেছিল পুলিশ। কিন্তু মৃত সুস্মিতা মণ্ডলের বাবা তাঁর জামাইকে নির্দোষ বলেই জানিয়েছিলেন। তিনি সংবাদ মাধ্যমের কাছে বলেন, “কী আছে না আছে, জানি না। জামাই যদি দোষী হত, থানা ওকে গ্রেফতার করত। লালবাজার ওকে ছেড়ে দিয়েছে। দোষী কে, তাকে খুঁজে বের করা হোক। তার শাস্তি চাইছি”।

আরও পড়তে পারেন: 

বেহালায় জোড়া খুনের কারণ ঘিরে ধোঁয়াশা, খুলছে না একাধিক জট

বেহালার পর্ণশ্রীতে মা ও ছেলের নৃশংস খুনের ঘটনায় গৃহশিক্ষককে জিজ্ঞাসাবাদ

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন