fire in gariahat
গড়িয়াহাটে আগুন।

নিজস্ব সংবাদদাতা: গড়িয়াহাট মোড়ে শনিবার মধ্যরাতে লাগা আগুন নিয়ন্ত্রণে এক রবিবার বেলার দিকে। আগুনে ফলে একটি জনপ্রিয় বস্ত্র বিপণি-সহ বেশ কিছু দোকান ও একটি বহুতল ব্যাপক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। আগুন কী ভাবে লাগল সে নিয়ে এখনও ধন্দে পুলিশ এবং দমকল।

attempt to recover some items
কিছু উদ্ধারের চেষ্টা।

রাত সাড়ে ১২টা নাগাদ গড়িয়াহাট মোড়ে একটি বহুতলে আগুন লাগে। আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়তে থাকে। আতঙ্কের সৃষ্টি হয় ওই বহতলের আবাসিকদের মধ্যে। যে যে অবস্থায় ছিলেন প্রাণ হাতে করে নীচে নেমে আসেন। ওই বহুতলের নীচেই রয়েছে জনপ্রিয় বস্ত্র বিপণি-সহ বেশ কিছু দোকান ও রেস্তোরাঁ। আগুনের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে যায় দমকলের ১৫টি ইঞ্জিন। পরে আরও ৪টি ইঞ্জিন ঘটনাস্থলে আসে। আসে একটি স্কাই-ল্যাডারও। গড়িয়াহাট ফ্লাইওভার থেকে জল ছোড়া হয়। অতি দ্রুততার সঙ্গে আবাসিকদের উদ্ধার করে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। বয়স্কদের মই দিয়ে নামিয়ে আনা হয়। রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু স্বয়ং উদ্ধারকাজে হাত লাগান। ঘটনাস্থলে পৌঁছে গিয়েছিল কলকাতা পুলিশের বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী।

আরও পড়ুন গড়িয়াহাটে বিধ্বংসী আগুন, ক্ষতিগ্রস্ত বহু দোকান ও বহুতল

আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে বেশ বেগ পেতে হয় দমকলকে। দমকলের পক্ষ থেকে জানানো হয়, বহুতলের  ভিতরে ভিতরে এমন অনেক জায়গা রয়েছে, যেখানে পৌঁছোতে খুব অসুবিধা হয়েছে। গ্যাসকাটার দিয়ে গ্রিল কেটে ভিতরে ঢোকেন। শেষ পর্যন্ত ঘণ্টা দশেকের চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

signs of destruction
সব পুড়ে খাক।

কী ভাবে আগুন লাগল তা এখনও বোঝা যাচ্ছে না। তবে দমকলের অনুমান, নীচে কাপড়ের দোকান থেকেই আগুন লেগেছে। ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণই বা কত তা-ও সঠিক ভাবে এখনই বলা যাচ্ছে না।

ছবি রাজীব বসু

 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here