Connect with us

কলকাতা

কংগ্রেস নেতা সন্ময় বন্দ্যোপাধ্যায় গ্রেফতারি মামলায় হাইকোর্টের নির্দেশ

kolkata High Court

কলকাতা: কংগ্রেস নেতা সন্ময় বন্দ্যোপাধ্যায়ের গ্রেফতারি মামলায় নয়া মোড়। সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্বের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের অভিযোগে প্রদেশ কংগ্রেস নেতা সন্ময় বন্দ্যোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করে পুলিশ। সেই মামলার শুনানিতে মঙ্গলবার কলকাতা হাইকোর্ট জানিয়ে দেয়, পরবর্তী নির্দেশ জারি না হওয়া পর্যন্ত পুলিশ তাঁর বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ করতে পারবে না।

গত অক্টোবর মাসে সোশাল মিডিয়ায় সরকারের ভাবমূর্তি নষ্টের চেষ্টা ও অশালীন মন্তব্যের অভিযোগে আগরপাড়ার বাড়ি থেকে গ্রেফতার করা হয় পানিহাটি পুরসভার প্রাক্তন কাউন্সিলর ও কংগ্রেস নেতা সন্ময়কে। তাঁর গ্রেফতারি নিয়ে উত্তাল হয়ে ওঠে রাজ্য-রাজনীতি। বিরোধী দল সিপিএম-কংগ্রেস, এমনকী বিজেপি নেতৃত্বও তাঁর পাশে দাঁড়ানোর কথা ঘোষণা করেন।

মামলা গড়ায় হাইকোর্টে। এ দিন বিচারপতি সব্যসাচী ভট্টাচার্য নির্দেশ দেন এই মামলায় পরবর্তী নির্দেশ জারি না হওয়া পর্যন্ত পুলিশ কোনো পদক্ষেপ নিতে পারবে না সন্ময়ের বিরুদ্ধে। পাশাপাশি সন্ময়কে গ্রেফতারের সময় খড়দহ থানার সিসিটিভি ফুটেজ সংরক্ষণের নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি।

Sanmoy Bandyopadhyay
ছবি: সোশ্যাল মিডিয়া থেকে

উল্লেখ্য, মুখ্যমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রী সম্পর্কে সোশ্যাল মিডিয়ায় মানহানিকর মন্তব্য করার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয় সন্ময়কে। গ্রেফতারের পর তাঁর উপর মানসিক শারীরিক হেনস্থার অভিযোগও উঠেছিল। জামিন পাওয়ার পর তিনি নিজেও অভিযোগ জানিয়েছিলেন, থানায় নিয়ে গিয়ে তাঁকে মারধর করা হয়। এই ঘটনার জেরে খড়দহ থানার আইসি অনিমেষ সিংহ রায়কে অপসারণও করা হয় বলে জানা যায়। তাঁর জায়গায় খড়দহ থানায় নিয়ে আসা হয় ব্যারাকপুরের আইসি সুজিত ভট্টাচার্যকে।

[ আরও পড়ুন: অযোধ্যা মামলা থেকে সরানো হল মুসলিম দলগুলির আইনজীবী রাজীব ধাওয়ানকে ]

হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়ে সন্ময় সেই দাবিতে অনড় রয়েছেন। সম্ভবত সেই কারণেই থানার সিসিটিভি ফুটেজ সংরক্ষণের নির্দেশ দিল উচ্চ আদালত।

কলকাতা

রবিবার রাতের প্রবল বৃষ্টিতে কলকাতার বিস্তীর্ণ অঞ্চল জলমগ্ন

মাত্র এক ঘণ্টার মধ্য কলকাতার বেশ কিছু অঞ্চলে গড়ে ১০০ মিলিমিটারের বেশি বৃষ্টি হয়।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গের দুই প্রান্তেই সক্রিয় হয়ে উঠেছে বর্ষা। উত্তরবঙ্গ তো বৃষ্টিতে এক্কেবারেই নাজেহাল। এ বার প্রবল বর্ষণে ভাসল কলকাতাও। রবিবার রাতে ঘণ্টা দুয়েকের প্রবল বৃষ্টিতে জল জমে যায় শহরের বিস্তীর্ণ অঞ্চলে।

রবিবার সন্ধ্যার পর থেকেই বজ্রগর্ভ মেঘ তৈরি হয় কলকাতা ও তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে। কমবেশ বৃষ্টি ও হালকা ঝড় চলছিলই। কিন্তু রাত ১১টার পর যেন আকাশ ভেঙে পড়ে।

মাত্র এক ঘণ্টার মধ্য কলকাতার বেশ কিছু অঞ্চলে গড়ে ১০০ মিলিমিটারের বেশি বৃষ্টি হয়। আলিপুরে বৃষ্টি হয়েছে ৬৬ মিলিমিটার। উত্তর কলকাতায় অবশ্য বৃষ্টির দাপট কিছুটা কম ছিল। কলকাতার পাশাপাশি, প্রবল বৃষ্টি হয়েছে হাওড়া, হুগলি, দুই ২৪ পরগণার বেশ কিছু জায়গাতেও।

উল্লেখ্য, গত এক সপ্তাহ ধরে রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চলে জোর বৃষ্টি হলেও, কলকাতায় কিছুটা নিষ্ক্রিয় হয়ে গিয়েছিল বর্ষা। শনিবার থেকে তা আবার সক্রিয় হয়ে ওঠে।

ওড়িশা থেকে উত্তরবঙ্গ পর্যন্ত একটি অক্ষরেখা বিস্তৃত রয়েছে। সেই সঙ্গে বিহারের ওপরে একটি ঘূর্ণাবর্ত রয়েছে। এই দুইয়ের জেরে এই প্রবল বর্ষণ। আগামী দু’-তিন দিন বৃষ্টির এই দাপট দক্ষিণবঙ্গে বহাল থাকতে পারে বলেই মনে করা হচ্ছে।

Continue Reading

কলকাতা

সক্রিয় রোগীর নিরিখে এই মুহূর্তে কলকাতার অবস্থান কত নম্বরে?

কলকাতা পঞ্চদশ স্থানে।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: গত কয়েক দিন ধরে পশ্চিমবঙ্গের উদ্বেগজনক ভাবে বাড়ছে করোনা-আক্রান্তের সংখ্যা। এর পেছনে কলকাতার অবদান সব থেকে বেশি। এই শহরে দৈনিক তিনশো জন করে করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। আবার একই সঙ্গে সুস্থও হচ্ছে দু’শোর বেশি। এর ফলে সক্রিয় রোগীর সংখ্যাটা এখনও সে ভাবে বাড়েনি।

সক্রিয় রোগীর নিরিখে দেখা যাবে এই মুহূর্তে ভারতে ১৫তম জায়গায় রয়েছে কলকাতা। অর্থাৎ, কলকাতাবাসীরা কিছুটা হলেও স্বস্তির নিঃশ্বাস নিতেই পারেন। তবে কোনো ভাবেই সতর্কতায় ঢিলে দিলে চলবে না।

দেখে নিন, সক্রিয় রোগীর নিরিখে ভারতে কার অবস্থান কত নম্বরে

১) ঠানে (মহারাষ্ট্র) – ৩০,০০৭

২) মুম্বই (মহারাষ্ট্র) – ২৩,৭৯৯

৩) হায়দরাবাদ (তেলঙ্গানা) – ২৩,৭৮৬

৪) দিল্লি – ২১,১৮৬

৫) চেন্নাই (তামিলনাড়ু) – ১৮,৬১৬

৬) পুনে (মহারাষ্ট্র) – ১৭,২২৬

৭) বেঙ্গালুরু (কর্নাটক) – ১১,৬৮৭

8) পালঘর (মহারাষ্ট্র) – ৪,২৬২

৯) মাদুরাই (তামিলনাড়ু) – ৪,১৩১

১০) ঔরঙ্গাবাদ (মহারাষ্ট্র) – ৩,৬৯১

১১) রায়গড় (মহারাষ্ট্র) – ৩,৬৪৮

১২) অমদাবাদ (গুজরাত) – ৩,৫৭১

১৩) কামরূপ মেট্রো/ গুয়াহাটি (অসম) – ৩,৪৮০

১৪) চেঙ্গলপট্টু (তামিলনাড়ু) – ৩,১২৭

১৫) কলকাতা (পশ্চিমবঙ্গ) – ৩,০৬৭

Continue Reading

কলকাতা

করোনার পাশাপাশি কলকাতা মেডিক্যাল কলেজে শুরু হচ্ছে অন্যান্য রোগের চিকিৎসা

তবে দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর ফের অন্যান্য রোগীর চিকিৎসাও এ বার শুরু হচ্ছে।

কলকাতা: করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসায় ‘কোভিড হাসপাতাল’ (Covid Hospital) হিসাবে ঘোষণা করা হয়েছিল কলকাতা মেডিক্যাল কলেজকে (Kolkata Medical Collage)। তবে দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর ফের অন্যান্য রোগীর চিকিৎসাও এ বার শুরু হচ্ছে।

শুধুমাত্র করোনার (Coronavirus) চিকিৎসা হওয়ায় তাঁদের প্রশিক্ষণ অসম্পূর্ণ থেকে যেতে পারে বলে অভিযোগ তুলে আন্দোলনে নেমেছিলেন হাসপাতালের ইন্টার্ন এবং পিজিটিরা। নন-কোভিড রোগীদের পরিষেবা শুরুর দাবিতে আন্দোলনকে সমর্থন জানিয়ে শিক্ষক-চিকিৎসকদের একাংশ প্রশ্ন তুলেছিলেন, পঠনপাঠনকে ক্ষতিগ্রস্ত করে কেন পুরো হাসপাতালে শুধুমাত্র কোভিডের চিকিৎসা হবে?

গত বুধবার হাসপাতালের অধ্যাপক এবং সিনিয়র ডাক্তারদের সঙ্গে বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, “বিশেষজ্ঞ কমিটি যে রিপোর্ট দিয়েছে, তা মেনে চলবেন কি না দেখুন। সিনিয়রেরা জুনিয়রদের দিয়ে কাজ করালেই সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে”। একই সঙ্গে তিনি জুনিয়র চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলে সমস্যা মিটিয়ে নেওয়ার নির্দেশ দেন।

অন্য দিকে মেডিক্যাল কলেজে রয়েছে একাধিক সুপার স্পেশালিটি বিভাগ। ‘কোভিড হাসপাতালে’র তকমা মিলে যাওয়ার পর অন্য রোগীরা দূর থেকে এসে ভোগান্তির শিকার হচ্ছিলেন। সব মিলিয়ে পরিস্থিতি বিবেচনা করে দ্রুত সমস্যা সমাধানের সিদ্ধান্ত নিলেন কর্তৃপক্ষ।

জানা গিয়েছে, শীঘ্রই আউটডোর বিভাগ চালু হয়ে যাবে। পাশাপাশি অন্যান্য সমস্ত বিভাগেও রোগী ভরতি করা হবে।

এ দিন অধ্যক্ষের জারি নোটিফিকেশনে আন্দোলনকারী জুনিয়র চিকিৎসকদের দাবিকে মান্যতা দিয়েই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে জানা গিয়েছে। স্বাভাবিক ভাবেই এই ঘোষণাকে নিজেদের জয় বলে দাবি করেছেন আন্দোলনকারীরা।

Continue Reading
Advertisement

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 days ago

হ্যান্ডওয়াশ কিনবেন? নামী ব্র্যান্ডগুলিতে ৩৮% ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস বা কোভিড ১৯ এর সঙ্গে লড়াই এখনও জারি আছে। তাই অবশ্যই চাই মাস্ক, স্যানিটাইজার ও হ্যান্ডওয়াশ।...

কেনাকাটা5 days ago

ঘরের একঘেয়েমি আর ভালো লাগছে না? ঘরে বসেই ঘরের দেওয়ালকে বানান অন্য রকম

খবরঅনলাইন ডেস্ক : একে লকডাউন তার ওপর ঘরে থাকার একঘেয়েমি। মনটাকে বিষাদে ভরিয়ে দিচ্ছে। ঘরের রদবদল করুন। জিনিসপত্র এ-দিক থেকে...

কেনাকাটা7 days ago

বাচ্চার জন্য মাস্ক খুঁজছেন? এগুলোর মধ্যে একটা আপনার পছন্দ হবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিউ নর্মালে মাস্ক পরাটাই দস্তুর। তা সে ছোটো হোক বা বড়ো। বিরক্ত লাগলেও বড়োরা নিজেরাই নিজেদেরকে বোঝায়।...

কেনাকাটা1 week ago

রান্নাঘরের টুকিটাকি প্রয়োজনে এই ১০টি সামগ্রী খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক : লকডাউনের মধ্যে আনলক হলেও খুব দরকার ছাড়া বাইরে না বেরোনোই ভালো। আর বাইরে বেরোলেও নিউ নর্মালের সব...

নজরে