kolkata wife beaten by husband

কলকাতা: বিবাহ-বহির্ভুত সম্পর্কের জেরে আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে স্ত্রীকে মারধর করার অভিযোগ উঠল স্বামীর বিরুদ্ধে। এবং এই ঘটনাটি ঘটেছে স্বামীর প্রেমিকা ও এক বন্ধুর সামনেই। এরপর আহত স্ত্রী থানায় অভিযোগ জানালে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পূর্ব যাদবপুর থানার পুলিশ। আজ তাকে আলিপুর এসিজেএম আদালতে তোলা হলে ১৯ তারিখ পর্যন্ত পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দেন বিচারক।

ন’বছর আগে প্রসেন ওরফে তারক সর্দারের সঙ্গে বিয়ে হয়েছিল ওই মহিলার। তাঁদের একটি সাত বছরের পুত্র সন্তানও রয়েছে। এলাকায় ইমারতি দ্রব্য সরবারহের কাজ করত তারক। অভিযোগ, বিয়ের দু’বছর ঘুরতেই স্ত্রীকে মারধর করত তারক। শেষ প্রায় আড়াই বছর আলাদা থাকত সে। তাদের আলিপুর আদালতে বিবাহ বিচ্ছেদের মামলাও চলছে। তার স্ত্রীর অভিযোগ, অন্য এক মহিলার প্রতি তার আসক্তি ছিল।

বৃহস্পতিবার গভীর রাতে প্রায় দেড়টা নাগাদ তারক, নিজের বান্ধবী প্রিয়া মণ্ডল ও শক্তি নামের আরও একজনকে নিয়ে স্ত্রীর উপর চড়াও হয়। তার মাথায় আগ্নেয়াস্ত্র ঠেকায় বলেও অভিযোগ। পাশাপাশি মারধর করা হয়। ঘটনায় পূর্ব যাদবপুর থানায় অভিযোগ করেন তিনি। ঘটনার তদন্তে নেমে  গভীর রাতেই প্রেমিকা প্রিয়ার বাড়ি থেকে তারককে গ্রেফতার করে পুলিশ। তবে এখনো উদ্ধার করা যায়নি আগ্নেয়াস্ত্র। স্ত্রীর টাকা, মোবাইল ফোনও নিয়ে সে পালিয়েছিল বলে অভিযোগ।

নির্যাতিতা জানান, ‘ঘটনার পর আতঙ্কের মধ্যে ছেলেকে নিয়ে দিন কাটাচ্ছি। তারককে পুলিশ গ্রেফতার করলেও অজানা বিপদের আশঙ্কায় ঘর থেকে বের হতে পারছি না।’

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here