কলকাতা: পুরভোটে অশান্তি নিয়ে অভিযোগ জানাতে রাজ্য নির্বাচন কমিশনে গিয়েছে বাম, বিজেপি এবং কংগ্রেস। জেলায় বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন বিজেপি-র নেতা-কর্মীরা। শাসকদলের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে এক সঙ্গে পথে নেমেছে বিরোধীরা। তবে তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মতে, এটা নিছক নাটক।

এ দিন পুরভোটকে কেন্দ্র করে বিক্ষিপ্ত ভাবে অশান্তির খবর পাওয়া গিয়েছে বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে। বোমাবাজি এবং রক্ত ঝরার ঘটনাও ঘটেছে। বুথ দখল, ভোটারদের ভয় দেখানোর মতো গুরুতর অভিযোগ নিয়ে উত্তর কলকাতার বড়তলা থানার সামনে মিলিত ভাবে বিক্ষোভ দেখায় বাম, কংগ্রেস এবং বিজেপি।

এ দিন মিত্র ইনস্টিটিউশনে নিজের বুথে ভোট দেন অভিষেক। তিনি ৭৩ নম্বরের ভোটার। ভোট দিয়ে বেরিয়ে আসার সময় অভিষেক বলেন, “অজুহাত চাই তো। যখন ভোটের ফল ঘোষণার পর তৃণমূলের জয় দেখে কিছু তো একটা বলতে হবে মুখ বাঁচাতে, কিছু একটা করতে হবে। সে কারণেই এ সব করে বেড়াচ্ছে। গণতন্ত্রে মানুষ ভোট দিয়েছেন। বিজেপির কাছে যদি কিছু প্রমাণ থাকে জনসমক্ষে আনুক। নাটক না করে, মানুষকে বিভ্রান্ত না করে প্রমাণ সবার সামনে আনুন”।

একই সঙ্গে তাঁর হুঁশিয়ারি, “আমাদের কেউ জড়িত আছে এমন প্রমাণ দিতে পারেন, দলীয় ও প্রশাসনিক স্তরে কড়া ব্যবস্থা নেব। নজিরবিহীন ব্যবস্থা নেওয়া হবে। দলমত নির্বিশেষে কেউ যদি জড়িত থাকে তাহলে প্রশাসনকে বলব কঠোর ব্যবস্থা নিতে। কোনো ফুটেজ থাকলে, তৃণমূলের কোনো নেতা কোনো ঘটনায় জড়িত কিংবা মানুষের ভোটাধিকার প্রয়োগে আটকানো হয়েছে, তার প্রমাণ দিন। আমি দায়িত্ব নিয়ে দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক হিসাবে বলছি ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ব্যবস্থা নেব”।

আরও পড়তে পারেন: 

কলকাতা পুরভোট লাইভ: অশান্তির অভিযোগে কমিশনে বাম, বিজেপি ও কংগ্রেস

সমুদ্র সৈকতে হাতজোড়া মেহেন্দি, তবে কি মধুচন্দ্রিমার ঠিকানা বলে দিলেন ক্যাটরিনা কাইফ?

দৈনিক আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যায় পতন, ক্রমশ বাড়ছে সুস্থতা

কোভিড আক্রান্ত সিপিএম সাধারণ সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র, নেই গুরুতর শারীরিক সমস্যা

দৈনিক করোনা সংক্রমণ প্রায় একই রকম, শনিবার ২০টি জেলা মৃত্যুহীন

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন