করোনা সংকটে দেড় কোটি টাকার অনুদান ‘সেনকো’র

করোনা মোকাবিলায় চলছে লকডাউন। সংকটে পড়েছেন দেশের লক্ষ লক্ষ মানুষ। প্রতীকী ছবি

কলকাতা: কোভিড-১৯ (Covod-19) মহামারীর বিরুদ্ধে কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকারের লড়াইয়ে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিল সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস গ্রুপ। কলকাতা-ভিত্তিক সংস্থা জানিয়েছে, এই মহামারীর বিরুদ্ধে জাতির লড়াইয়ে প্রধানমন্ত্রী-কেয়ারস ফান্ড এবং পশ্চিমবঙ্গ সরকারে জরুরি ত্রাণ তহবিলে দেড় কোটি টাকার অনুদান দেওয়া হচ্ছে। একই সঙ্গে জানানো হয়েছে, সংস্থার কোনো কর্মীরই বেতন কাটা হবে না, প্রত্যেককেই সম্পূর্ণ বেতন দেওয়া হবে না।

করনো সংকট মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী পিএম কেয়ারস ফান্ড (PM CARES Fund) গঠন করেছেন। বিশেষ জরুরি ত্রাণ তহবিল গঠন করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। এই দুই তহবিলে সংস্থা দেড় কোটি টাকার অর্থসাহায্যের অঙ্গীকার করেছে। একই সঙ্গে জানিয়েছে, গ্রুপের প্রায় আড়াই হাজার কর্মীও এই মহতী উদ্যোগে শামিল হয়ে নিজেদের একদিনের বেতন তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

সংস্থা জানিয়েছে, দেশ এখন এক অভূতপূর্ব সংকটের মুখোমুখি হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস গ্রুপ এই মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ের উদ্দেশে সরকারের নেওয়া সমস্ত উদ্যোগকে প্রবল ভাবে সমর্থনে এগিয়ে এসেছে।

এ ব্যাপারে সেনকো গোষ্ঠীর (Senco Gold & Diamonds Group) চেয়ারম্যান শংকর সেন বলেন, “বর্তমান পরিস্থিতিতে লক্ষ লক্ষ মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাপনে প্রভাব পড়েছে। আমরা আমাদের গ্রাহক, কর্মচারী, সম্প্রদায় এবং দেশকে সাধ্যমতো সহযোগিতা করব। বিভিন্ন রকমের প্রতিবন্ধকতা থাকলেও এর জন্য আমাদের যে ধরনের পদক্ষেপ নেওয়া দরকার, আমরা সেটাই করব”।

আরও পড়ুন: কেন্দ্র, রাজ্যের নির্দেশ অমান্য, লকডাউনের হপ্তা মেলেনি জুটমিল শ্রমিকদের

সেনকো গোষ্ঠী জানিয়েছে, প্রায় একশোর বেশি শোরুম-সহ সংস্থার সমস্ত কর্মীকেই সম্পূর্ণ বেতন দেওয়া হবে। লকডাউনের কারণে সংস্থার ব্যবসায় সার্বিক ভাবে প্রভাব পড়লেও কারও বেতন কাটা হবে না।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.