Connect with us

কলকাতা

কলকাতায় করোনা আক্রান্ত সিনিয়র সিবিআই অফিসার

তাঁর সঙ্গে বৈঠকে অংশ নেন আরও ২২ জন অফিসার

CBI

কলকাতা: সিবিআইয়ের এক সিনিয়র অফিসারের করোনাভাইরাস (Coronavirus) নমুনা পরীক্ষায় পজিটিভ রিপোর্ট এসেছে বলে মঙ্গলবার সরকারি সূত্রে জানানো হয়েছে।

জানানো হয়েছে, কলকাতা ইউনিটে এই প্রথম কোনো সিবিআই (CBI) অফিসার করোনা আক্রান্ত হলেন। ওই অফিসার কলকাতা অফিসে দুর্নীতি দমন (anti-corruption) বিভাগের দায়িত্বে ছিলেন।

সূত্রের খবর, আক্রান্ত অফিসারের চিকিৎসা এবং তাঁর পরিবারকে সমস্ত রকমের সহযোগিতার কথা জানিয়েছে সিবিআই।

সিনিয়র অফিসারের করোনা শনাক্ত হওয়ার পরই নিজাম প্যালেসের সিবিআই দফতরের ১৪ ও ১৫তম তল সিল করে দেওয়া হয়। ওই দু’টি তল জীবাণুমুক্ত করা হবে।

সিবিআই সূত্রে খবর, গত সাত-দশ দিন ধরে ওই অফিসার নিজাম প্যালেসের দফতরে বৈঠকে অংশ নিয়েছিলেন। তাঁর সঙ্গে বৈঠকে অংশ নেন আরও ২২ জন অফিসার। আক্রান্ত অফিসারের সংস্পর্শে আসার কারণেই তাঁদের নিয়েও আশঙ্কা রয়েছে। ফলে তাঁদের প্রত্যেককেই ১৪ দিনের জন্য গৃহ-পর্যবেক্ষণে থাকতে বলা হয়েছে। তাঁদের পরীক্ষা করানো হবে। একই সঙ্গে আক্রান্ত অফিসারের পরিবারের সদস্যদেরও পরীক্ষা করা হচ্ছে।

সিবিআইয়ের এক মুখপাত্র জানান, কোভিড-১৯ নির্দেশিকা মেনেই দফতরে কাজ চলছে। কর্মী-আধিকারিকরা প্রত্যেককেই মাস্ক পরছেন, শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা হচ্ছে। পাশাপাশি অফিসে হ্যান্ড স্যানিটাইজার রাখা হয়েছে। এমনকী দফতরে ঢোকার সময় থার্মাল স্ক্রিনিংয়েরও ব্যবস্থা রয়েছে।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার পর্যন্ত রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে কোভিড-১৯ (Covid-19) আক্রান্ত হয়েছেন ৩৭২ জন। এর ফলে এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮,৯৮৫

Advertisement
Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

কলকাতা

রেড রোডে দর্শক ছাড়াই স্বাধীনতা দিবস উদ্‌যাপনের প্রস্তুতি, দেখে নিন কয়েক ঝলক

সাধারণ দর্শকের ঢোকার অনুমতি থাকছে না এ বার।

চলছে প্রস্তুতি।

কলকাতা: করোনাভাইরাস মহামারির (Coronavirus pandemic) আবহে এ বার আর রেড রোডের ৭৪তম স্বাধীনতা দিবস উদ্‌যাপনে সাধরণ দর্শকদের বসার সুযোগ থাকছে না।

[আগের ছবি ছিল এ রকমই]

কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে এ বারের স্বাধীনতা দিবস উদ্‌যাপনে বড়ো জমায়েত এড়িয়ে প্রযুক্তির ব্যবহারে জোর দেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। যে কারণে রেড রোডেও (Red Road) এ বার দর্শকের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা থাকছে। হাতে রয়েছে আর কয়েকটা দিন। এরই মধ্যে চলছে প্রস্তুতি।

[এ বছরের প্রস্তুতি]

অনুষ্ঠানে পতাকা উত্তোলন করেন মুখ্যমন্ত্রী। সঙ্গে থাকে আরও বেশ কিছু অনুষ্ঠান। সেই সমস্ত অনুষ্ঠানে কাটছাঁট চলছে।

তবে কেন্দ্রের পরামর্শ মতো স্বাধীনতা দিবস (Independence Day 2020) উদ্‌যাপন অনুষ্ঠানে কোভিড যোদ্ধা যেমন, চিকিৎসক, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশ এবং পুরসভার প্রথমসারির কর্মীদের বিশেষ স্মারক দিয়ে সম্মানিত করা হবে। মোট ২৫ জনকে সম্মানিত করা হবে বলে জানা গিয়েছে।

[হাতে আর কয়েকটা দিন, চলছে প্রস্তুতি]

একটি সূত্রের মতে, কয়েকজন সেনা আধিকারিক-সহ রেড রোডের এ বারের স্বাধীনতা দিবস উদ্‌যাপনে থাকবেন রাজ্যের মন্ত্রী, আমলা এবং উচ্চপর্যায়ের পুলিশ আধিকারিকরা।

[শারীরিক দূরত্ব মেনেই বসার ব্যবস্থা থাকবে অতিথিদের জন্য]

ওই সূত্রটি জানিয়েছে, খুব বড়োজোর শ’খানেকের আশেপাশে থাকবে অতিথির সংখ্যা। করোনা পরিস্থিতিতে শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখেই তাঁদের জন্য বসার আসন নির্দিষ্ট হবে।

স্বাধীনতা দিবস সংক্রান্ত অন্যান্য খবর পড়ুন এখানে: Independence Day 2020

Continue Reading

কলকাতা

অক্সিজেন সিলিন্ডার দিয়ে জানলার কাচ ভেঙে মেডিক্যালের কার্নিশে করোনা রোগী!

ওই করোনা রোগী উত্তর ২৪ পরগনার অশোকনগরের বাসিন্দা।

মেডিক্যালের সুপার স্পেশ্যালিটি বিল্ডিংয়ের চারতলায় এই ঘটনাটি ঘটেছে। প্রতীকী ছবি

কলকাতা: শনিবার সকালে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজের (Kolkata Medical Collage) চার তলা থেকে ঝাঁপ দেওয়ার চেষ্টা করলেন এক করোনাভাইরাস (Coronavirus) আক্রান্ত রোগী। তবে স্বাস্থ্যকর্মীদের তৎপরতায় ওই রোগীকে শেষপর্যন্ত ঝাঁপ দেওয়া থেকে বিরত করা হয়।

ঘটনায় প্রকাশ, সুপার স্পেশ্যালিটি বিল্ডিংয়ের চারতলায় এই ঘটনাটি ঘটেছে। সেখানেই ছ’নম্বর বেডে গত দু’সপ্তাহ ধরে ভরতি রয়েছেন ওই রোগী। অক্সিজেন সিলিন্ডার দিয়ে জানলার কাচ ভেঙে তিনি পৌঁছে গিয়েছিলেন কার্নিশে। লাফ দেওয়ার আগেই তাঁকে ধরে ফেলেন হাসপাতালের গ্রুপ ডি’র কর্মীরা। তাতেই অল্পের জন্য রক্ষা!

জানা গিয়েছে, ওই করোনা রোগী উত্তর ২৪ পরগনার অশোকনগরের বাসিন্দা। এর আগে আলিপুরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে তিনি ভরতি ছিলেন। সেখানেই তাঁর করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে।

চিকিৎসকেরা জানান, নিউমোনিয়া ফুসফুসে সংক্রমণ হয়ে তাঁর শারীরিক পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে। ওই বেসরকারি হাসপাতালে লক্ষাধিক টাকার বেশি বিল হওয়ায় তাঁকে শেষপর্যন্ত মেডিক্যালে স্থানান্তরিত করেন পরিবারের সদস্যরা।

সব মিলিয়ে মানসিক অবসাদ তাঁকে ঘিরে ধরেছে। যে কারণ অসংলগ্ন আচরণ করতে শুরু করেন বলেও জানা যায়।

এ ব্যাপারে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজের সুপার ইন্দ্রনীল বিশ্বাস জানান, হাসপাতালের তরফে ওই ব্যক্তির কাউন্সেলিং করা হয়েছে। পরিবারের লোকজনকেও খবর দেওয়া হয়েছে।

ঘটনার কথা জানার পর পরিবারের লোকজন এসে তাঁর সঙ্গে দেখা করেন। তাঁরা বলেন, রোগী হাসপাতালে থাকতে চাইছেন না। বাড়িতে পালিয়ে যাওয়ার জন্যই এই কাজ করেছিলেন।

অন্য দিকে হাসপাতালের পক্ষ থেকে জানানো হয়, উনি অনেকটাই সুস্থ হয়ে উঠেছেন। যে কারণে তাঁকে জেনারেল ওয়ার্ডে স্থানান্তর করা হয়েছে। এমনকী এই ঘটনার পর হাসপাতালে নিরাপত্তার বিষয়ে আরও জোর দেওয়া হচ্ছে। 

Continue Reading

কলকাতা

ঢাকায় পথদুর্ঘটনায় নিহত পর্বতারোহী, শোকস্তব্ধ কলকাতার পাহাড়প্রেমীরা

শুক্রবার সকাল ৯টা নাগাদ ঢাকায় সংসদ ভবন এলাকার চন্দ্রিমা উদ্যান সংলগ্ন লেক রোড দিয়ে সাইকেল চালিয়ে যাওয়ার সময় একটি গাড়ি তাঁকে চাপা দিয়ে চলে যায়।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: স্বপ্ন ছিল এভারেস্ট জয় করার। কিন্তু সে স্বপ্ন অধরা রেখেই অকালে চলে গেলেন বাংলাদেশের পর্বতারোহী রেশমা নাহার রত্না। ৩৩ বছর বয়সি রত্নার অকালমৃত্যুতে শোকস্তব্ধ কলকাতার পর্বতারোহীমহলও।

শুক্রবার সকাল ৯টা নাগাদ ঢাকায় সংসদ ভবন এলাকার চন্দ্রিমা উদ্যান সংলগ্ন লেক রোড দিয়ে সাইকেল চালিয়ে যাওয়ার সময় একটি গাড়ি তাঁকে চাপা দিয়ে চলে যায়। গুরুতর আহত অবস্থায় রত্নাকে শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। 

ঘাতক গাড়িটিকে এখনও উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

পেশায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা ছিলেন রত্না। শিক্ষকতার পাশাপাশি পর্বতারোহণ ছিল তাঁর নেশা। গত বছর, উত্তরাকাশীতে নেহরু ইনস্টিটিউট অব মাউন্টেনিয়ারিং থেকে উচ্চতর পর্বতারোহণ কোর্স সম্পন্ন করেন।

২০১৬ সালে রত্নার অ্যাডভেঞ্চারের সূচনা হয় বাংলাদেশের কেওক্র্যাডং পাহাড় চূড়া (৩,২৩৫ ফুট) আরোহণ করে। এর পর তিনি পাড়ি জমান আফ্রিকায়। ২০১৮-এ আফ্রিকার সর্বোচ্চ শৃঙ্গ মাউন্ট কিলিমাঞ্জারো আরোহণ করেন তিনি। এর ঠিক পরেই আফ্রিকা মহাদেশের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ শৃঙ্গ মাউন্ট কেনিয়াও আরোহণ করেন তিনি।

গত বছর লাদাখে অবস্থিত স্টক কাঙরি (৬১৫৩ মিটার) এবং কাং ইয়াতসে-২ (৬২৫০ মিটার) সফল ভাবে আরোহণ করেন তিনি। তাঁর এ বার স্বপ্ন ছিল এভারেস্টের চূড়ায় পৌঁছোনো। কিন্তু সেই স্বপ্ন যে অধরা থেকে গেল, সেটাই ভেবে বিহ্বল হয়ে পড়ছেন কলকাতার পর্বতারোহীরা।

বাংলার প্রবীণা পর্বতারোহী দীপালি সিনহা তাঁর ফেসবুক পোস্টে লেখেন, “মেয়েটির সঙ্গে আমার খুব অল্প দিনের পরিচয়। সাক্ষাৎ হয়নি, কিন্তু বহু বহুক্ষণ ধরে ফোনে কথা হত, চ্যাট চলত। ওর টক-শো তে আমি অংশগ্রহণ করেছি, আমার টক-শো তে ও অংশগ্রহণ করেছে। সম্ভাবনাময় একটি প্রাণের মর্মান্তিক এই পরিণতি মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে। ওর আত্মার শান্তি কামনা করি।”

অন্য দিকে, পর্বতারোহী পিয়ালি বসাক তাঁর ফেসবুক পোস্টে লেখেন, “ভারতের পর্বতারোহীদের নিয়ে ওর (রত্না) খুব উৎসাহ ছিল, তাদের নিয়ে লাইভ প্রোগ্রামও করছিল। ভারতের মেয়ে পর্বতারোহীদের প্রতি বিশেষ উৎসাহ নিয়ে লাইভ প্রোগ্রাম শুরু করে, আমারও করেছিল, আরও করবে বলে বারে বারে বলত, আরও অন্যান্য পর্বতারোহীদেরও খোঁজ করত। মাত্র কয়েক দিনের পরিচয়ে ভীষণ আপন হয়ে গিয়েছিল, প্রথম দিন থেকেই আমার সাথে এমন ভাবে কথা বলছিল যেন কত দিনের চেনা।”

তিনি আরও লেখেন, “এত কম বয়সে কত কাজ কত স্বপ্ন অসম্পূর্ণ রেখে চলে গেলে। কিন্তু এত মানুষের ভালোবাসা তুমি পেয়েছ তাতে আমি সত্যিই অভিভূত। তাই বিশ্বাস আছে তোমার স্বপ্নগুলো পূরণ হবে, সবার ভালো বাসার মাঝেই তুমি বেঁচে থাকবে। এই ক’দিনের মাত্র পরিচয়, কিন্তু এই ঘটনার প্রভাব আমার জীবনটাকেও সারা জীবনের জন্য বদলে দিল।”

Continue Reading
Advertisement

বিশেষ প্রতিবেদন

Advertisement
শিল্প-বাণিজ্য1 hour ago

লকডাউনেও ২২ শতাংশ নিট মুনাফা বাড়ল বিপিসিএলের

রাজ্য1 hour ago

আক্রান্তের সংখ্যায় রেকর্ড, তবে দীর্ঘদিন পর রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার নামল দশ শতাংশের নীচে

বিজ্ঞান2 hours ago

অক্সফোর্ড করোনা ভ্যাকসিন আপডেট: নভেম্বরের মধ্যে শেষ হবে হিউম্যান ট্রায়াল

গাড়ি ও বাইক3 hours ago

ব্যাটারি ছাড়াই কেনা যাবে ইলেকট্রিক গাড়ি, নির্দেশ কেন্দ্রের

অনুষ্ঠান3 hours ago

রবীন্দ্রনাথের সৃষ্টির হাত ধরে প্রয়াত অমলা শঙ্করের প্রতি অনলাইন অনুষ্ঠানে শ্রদ্ধাঞ্জলি অগ্নিবীণা ডান্স অ্যাকাডেমির

দেশ3 hours ago

ভারত-বাংলাদেশের সম্পর্ক রক্তের, বললেন নৌপ্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী

রাজ্য3 hours ago

পেশাগত রোগ সিলিকোসিসে ঝরছে শ্রমিকের প্রাণ! দায় নেবে কে?

ক্রিকেট4 hours ago

কোহলি-স্মিথ-উইলিয়ামসনরা অভিষেক করার আগে শেষ টেস্ট খেলেছিলেন তিনি, ফের সুযোগ পেলেন বৃহস্পতিবার

কেনাকাটা

care care
কেনাকাটা10 hours ago

চুল ও ত্বকের বিশেষ যত্নের জন্য ১০০০ টাকার মধ্যে এই জিনিসগুলি ঘরে রাখা খুবই ভালো

খবরঅনলাইন ডেস্ক : পার্লার গিয়ে ত্বকের যত্ন নেওয়ার সময় অনেকেরই নেই। সেই ক্ষেত্রে বাড়িতে ঘরোয়া পদ্ধতি অনেকেই অবলম্বন করেন। বাড়িতে...

কেনাকাটা1 week ago

ঘর ও রান্নাঘরের সরঞ্জাম কিনতে চান? অ্যামাজন প্রাইম ডিলে রয়েছে ৫০% পর্যন্ত ছাড়

খবরঅনলাইন ডেস্ক : অ্যামাজন প্রাইম ডিলে রয়েছে ঘর আর রান্না ঘরের একাধিক সামগ্রিতে প্রচুর ছাড়। এই সেলে পাওয়া যাচ্ছে ওয়াটার...

কেনাকাটা1 week ago

এই ১০টির মধ্যে আপনার প্রয়োজনীয় প্রোডাক্টটি প্রাইম ডে সেলে কিনতে পারেন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : চলছে অ্যামাজনের প্রাইমডে সেল। প্রচুর সামগ্রীর ওপর রয়েছে অনেক ছাড়। ৬ ও ৭  তারিখ চলবে এই সেল।...

কেনাকাটা1 week ago

শুরু হল অ্যামাজন প্রাইম ডে সেল, জেনে নিন কোন জিনিসে কত ছাড়

খবরঅনলাইন ডেস্: শুরু হল অ্যামাজন প্রাইম ডে সেল। চলবে ২ দিন। চলতি মাসের ৬ ও ৭ তারিখ থাকছে এই অফার।...

things things
কেনাকাটা2 weeks ago

করোনা আতঙ্ক? ঘরে বাইরে এই ১০টি জিনিস আপনাকে সুবিধে দেবেই দেবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনা পরিস্থিতিতে ঘরে এবং বাইরে নানাবিধ সাবধানতা অবলম্বন করতেই হচ্ছে। আগামী বেশ কয়েক মাস এই নিয়মই অব্যাহত...

কেনাকাটা2 weeks ago

মশার জ্বালায় জেরবার? এই ১৪টি যন্ত্র রুখে দিতে পারে মশাকে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: একে করোনা তায় আবার ডেঙ্গুর প্রকোপ শুরু হয়েছে। এই সময় প্রতি বারই মশার উৎপাত খুবই বাড়ে। এই বারেও...

rakhi rakhi
কেনাকাটা3 weeks ago

লকডাউন! রাখির দারুণ এই উপহারগুলি কিন্তু বাড়ি বসেই কিনতে পারেন

সামনেই রাখি। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে মনের মতো উপহার কেনা একটা বড়ো ঝক্কি। কিন্তু সেই সমস্যা সমাধান করতে পারে অ্যামাজন। অ্যামাজনের...

কেনাকাটা3 weeks ago

অনলাইনে পড়াশুনা চলছে? ল্যাপটপ কিনবেন? দেখে নিন ৪০ হাজার টাকার নীচে ৬টি ল্যাপটপ

ইনটেল প্রসেসর সহ কোন ল্যাপটপ আপনার অনলাইন পড়াশুনার কাজে লাগবে জেনে নিন।

কেনাকাটা3 weeks ago

করোনা-কালে ঘরে রাখতে পারেন ডিজিটাল অক্সিমিটার, এই ১০টির মধ্যে থেকে একটি বেছে নিতে পারেন

শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা বুঝতে সাহায্য করে এই অক্সিমিটার।

কেনাকাটা4 weeks ago

লকডাউনে সামনেই রাখি, কোথা থেকে কিনবেন? অ্যামাজন দিচ্ছে দারুণ গিফট কম্বো অফার

খবরঅনলাইন ডেস্ক : সামনেই রাখি। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে দোকানে গিয়ে রাখি, উপহার কেনা খুবই সমস্যার কথা। কিন্তু তা হলে উপায়...

নজরে

Click To Expand