শীত ফিরল দক্ষিণবঙ্গে, আরও পারদ-পতনের সম্ভাবনা

0

ওয়েবডেস্ক: শুক্রবার কলকাতায় ছিল ১৫.৭, শনিবার তা নেমে দাঁড়াল ১২.৫-এ। অর্থাৎ ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমল তিন ডিগ্রি। ফের ফিরল শীত। দক্ষিণবঙ্গের বেশ কিছু জায়গায় তাপমাত্রা দশের নীচে নেমে গিয়েছে।

পশ্চিমী ঝঞ্ঝার প্রভাবে গত কয়েক দিন ধরে শীতের প্রভাব কমে গিয়েছিল দক্ষিণবঙ্গে। বুধবার রাত ও বৃহস্পতিবার সারা দিন দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় দফায় দফায় হালকা বৃষ্টি হয়। সেই বৃষ্টির মেঘ কাটতেই শুক্রবার সকাল থেকেই দক্ষিণবঙ্গের বায়ুমণ্ডলে ঢুকে পড়ে কনকনে ঠান্ডা হাওয়া।

Loading videos...

সেই হাওয়ার তেজ এতটাই বেশি ছিল, যে শুক্রবার দুপুরেও শীতবস্ত্র চাপাতে হয়েছে সাধারণ মানুষকে। তখনই বোঝা গিয়েছিল যে শনিবার তাপমাত্রার বড়োসড়ো পতন ঘটতে চলেছে। আর ঠিক সেটাই হল।

এ দিন দক্ষিণবঙ্গের শীতলতম স্থান ছিল কাঁথি (৮ ডিগ্রি)। প্রবল ঠান্ডা ছিল পুরুলিয়া (৮.৪) আর কৃষ্ণনগরে (৮.৬)। বর্ধমানে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে দশের নীচে (৯.৮)। শ্রীনিকেতনে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৯.১ ডিগ্রি।

তবে তুলনায় কিছুটা বেশি রেকর্ড করা হয়েছে বাঁকুড়া আর আসানসোলের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। ওই জায়গাগুলিতে এখনও তাপমাত্রা দশের নীচে নামেনি।

তবে এখানেই পারদ-পতন থামবে না। বরং আগামী ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টায় তা আরও কমবে। মনে করা হচ্ছে রবিবার এবং সোমবার সকালে কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রির কাছাকাছি চলে যেতে পারে।

শহরতলি এবং শহরের উপকণ্ঠের জায়গাগুলিতে তাপমাত্রা নেমে যেতে পারে ৮-৯ ডিগ্রির ঘরে। ফলে পৌষের শেষে জব্বর শীতের জারিজুরি জারি থাকবে কলকাতায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.