গোয়া : জেলারের ওপর এক সঙ্গে ৪৫ জন কয়েদি আচমকা হামলা করল। ঘটনায় নিহত এক কয়েদি। আহত জেলার, দু’ জন পুলিশ কর্মী-সহ অনেকে। বুধবার মাঝরাতে গোয়ার ভাস্কোর সদা সাবজেলের ঘটনা। এ দিন তুচ্ছ কারণেই বন্দিরা হামলা করে বলে দাবি কারাগারের কর্মকর্তাদের। আক্রমণের পর বন্দিরা জেল থেকে পালানোর চেষ্টাও করে। পরিস্থিতি সামাল দিতে পার্শ্ববর্তী থানার পুলিশ অফিসারেরা বাহিনী নিয়ে সেখানে আসেন। ঘটনায় গোটা এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়। ডিজিপি মুক্তেশ চন্দের জানান, নিহত কয়েদির নাম বিনায়ক কোরবাটকারহো। এই বন্দি এক জন অসামাজিক দলনেতা, খুনের আসামি।

ডেপুটি সুপারিন্টেনডেন্ট অব পুলিশ লরেন্স ডিসুজা জানান, গুরুতর ভাবে আহত জেলারকে গোয়া মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করা হয়েছে। ৪৫ বন্দি এক সঙ্গে জেলার, নিরাপত্তারক্ষী, জেলের সম্পত্তির ওপর হামলা করে। তিনি আরও বলেন, ঠিক কী কারণে এই হামলা করা হয়েছে তা এখনও সামনে আসেনি। বর্তমানে এই জেলে কিছু মেরামতির কাজ চলছে। তাই অনেক কয়েদিকে ইতিমধ্যেই অন্য জেলে সরানো হয়েছে। বাকিদেরও আগামী মাসে সরানোর কথা। তার মধ্যেই এই ঘটনা। 

জেলকর্তারা বলছেন, প্রথম হামলা করা হয় কয়েদিদের তরফ থেকেই। কিন্তু অন্য দিকে এক কয়েদির দাবি, রাতের খাবার খাওয়ার সময় হঠাৎই জেলকর্মীরা এসে তাঁদের ওপর হামলা করেন। 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here