বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্কে জড়াতে চান? তা হলে এই বিশেষ অ্যাপটির হাত ধরতে পারেন

জীবনের আশার আলোর মতো জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে

0
Gleeden
প্রতীকী ছবি

নয়াদিল্লি: অনেকেই আক্ষেপ করে বলে থাকেন, বৈবাহিক জীবনের এক ঘেয়েমি আজকাল অনেককেই ক্লান্ত করে তুলেছে। এমন ঘটনা সমাজের এক-দু’জনের নয়। ভারতের প্রায় পাঁচ লক্ষ দম্পতির সমস্যা। তাই সেই সুযোগ নিয়েই এখন জীবনের আশার আলোর মতো জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে ‘গ্লিডেন’ অ্যাপ। এটি দাম্পত্যের মরুভূমিতে তৃষ্ণার জলের মতো। এর হাত ধরেই বহু দম্পতি জড়িয়ে পড়ছেন বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্কে।

‘গ্লিডেন’ – এটি হল ফ্রান্সের একটি অনলাইন ডেটিং প্ল্যাটফর্ম। তা ছাড়া এটি বিশ্বের প্রথম বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক স্থাপনের সহযোগী ওয়েবসাইট।

ভারতীয় নারীদের কাছে এই অ্যাপের জনপ্রিয়তা দ্রুত বাড়ছে। গত বছরের পরিসংখ্যাণ বলছে, ‘গ্লিডেন’-এর ২৫% মহিলাই ভারতের। এই পরিমাণ বর্তমানে ৩০%। এ কথা জানিয়েছেন, ‘গ্লিডেন’-এর মার্কেটিং স্ট্রাটিজিস্ট সোলেনে পাইল্লেত।

আরও পড়ুন – পুলওয়ামা হামলায় জড়িত নয় পাকিস্তান, দাবি কুম্ভমেলায় আমন্ত্রিত পাক সাংসদের

ব্যভিচার সম্পর্কিত সুপ্রিম কোর্টের নতুন রায়ের পরই এর গ্রাহক হু হু করে বেড়েছে। গত বছরে ১ লক্ষ ২০ হাজার ভারতীয় গ্রাহক ছিল। এক বছরেরও কম সময়ে তা ৩৭% বেড়েছে। এর অর্থ মানুষের এই ধরণের প্ল্যাটফর্ম খুবই দরকার। ফ্রান্সের এটি শুরু হয়েছে ২০০৯ সালে।

সোলেনে বলেন, বিশ্বে এর গ্রাহক সংখ্যা চার কোটি নয় লক্ষ। মহিলারাই এটি চালায়। আর মহিলাদের জন্য এটি সম্পূর্ণ ফ্রি। এটি মহিলাদের দ্বারা মহিলাদের জন্য পরিচালিত। ভারতে এর পুরুষ আর মহিলা গ্রাহকদের বর্তমান অনুপাত ৭০:৩০।

পড়ুন – গাছে জল দেওয়ার স্বয়ংক্রিয় যন্ত্র আবিষ্কার করে তাক লাগিয়ে দিল অষ্টম শ্রেণির দুই পড়ুয়া

এই প্ল্যাটফর্মের সাহায্যে ব্যক্তিগত বার্তা পাঠানো, লাইভ চ্যাট, গিফট আর ফটো অ্যালবাম ব্যবহারের সুযোগ আছে। পুরুষদের জন্য ভারতে এটির মূল্য ৭৫০ টাকা থেকে নয় হাজার ৫০০ টাকা। ভারতে এই অ্যাপের লক্ষ্য শহর দিল্লি, মুম্বই, বেঙ্গালুরু। এটি ২৪ ঘণ্টাই ব্যবহার করা যায়। যদি কোনো সদস্য নিয়ম বিধি মেনে না চলেন, ভুয়ো পরিচয়ের দিয়ে থাকেন বা খারাপ ব্যবহার করেন, তা হলে তাঁর নাম তালিকা থেকে চিরতরে ছেঁটে ফেলা হয়।

সোলেনে বলেন, এই অ্যাপের সাহায্যে বাঁচার আনন্দ খুঁজে পেয়েছেন অনেকেই। কোনো একটি কাজ বা মূল্যবোধেই জীবন আটকে নেই। নিজের ইচ্ছা চাওয়া পাওয়ারও দাম আছে – এটি আবার অনুভব করেছেন অনেকেই।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন