himalayan spring

ওয়েবডেস্ক: হিমালয়ের গ্রামগুলিতে জলের জন্য ঝরনার ওপরেই বেশি করে ভরসা করতে হয় বাসিন্দাদের। নীতি আয়োগের একটি খসড়া রিপোর্টে সেই ঝরনার ভবিষ্যৎ নিয়ে বড়োসড়ো প্রশ্নচিহ্ন উঠে গেল। রিপোর্টে বলা হয়েছে, হিমালয়ের প্রায় ষাট শতাংশ ঝরনাই এখন শুকিয়ে যাচ্ছে।

ঝরনাগুলিকে কী ভাবে রক্ষা করা যায়, সে ব্যাপারে আগামী সোমবারের মধ্যে সব অংশীদারকে জবাব দিতে বলেছে নীতি আয়োগ। রিপোর্টে বলা হয়েছে, “হিমালয়ের অধিবাসীরা যে ঝরনাগুলির জলে জীবিকা নির্বাহ করে তার মধ্যে অন্তত ৬০ শতাংশের জলই ক্রমশ কমে যাচ্ছে।” সেই সঙ্গে বলা হয়েছে, “সময়ে এসে গিয়েছে যখন এই জল কমে যাওয়াকে খুব প্রাসঙ্গিক একটি সমস্যা বলে চিহ্নিত করা উচিত, এবং তাদের আগের অবস্থায় ফিরিয়ে আনার জন্য ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।”

সারা দেশে প্রায় ৫০ লক্ষ পাহাড়ি ঝরনা রয়েছে যার মধ্যে তিরিশ লক্ষ রয়েছে হিমালয়ে। এই তিরিশ লক্ষ ঝরনায় নির্ভরশীল প্রায় পাঁচ কোটি মানুষ। পাহাড়ি গ্রাম নয়, অনেক পাহাড়ি শহরও এই ঝরনার জলের ওপরেই ভরসা করে।

রিপোর্টে আরও বলা হয়েছে, ঝরনার জল শুকিয়ে যাওয়ার ফলে গঙ্গা, যমুনা, ব্রহ্মপুত্রর মতো নদীগুলিরও উৎসস্থলে জলের ঘাটতি দেখা যেতে পারে। ঝরনার এই সমস্যাকে মোকাবিলা করার জন্য আগামী আট বছর ধরে বিভিন্ন দীর্ঘমেয়াদী, মধ্যমেয়াদী এবং ক্ষুদ্রমেয়াদী পরিকল্পনা গ্রহণ করতে বলেছে নীতি আয়োগ।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here