Connect with us

দেশ

নবম দফার বৈঠকেও কাটল না জট, ফের কৃষকদের সঙ্গে আলোচনায় বসবে কেন্দ্র

১৯ জানুয়ারি প্রথম বৈঠক করবে সুপ্রিম কোর্টের গঠিত কমিটি।

Published

on

কেন্দ্রের সঙ্গে বৈঠকে কৃষক প্রতিনিধিরা। ছবি: এএনআই

নয়াদিল্লি: বিতর্কিত তিন কৃষি আইন নিয়ে শুক্রবার কেন্দ্র-কৃষক নবম দফার বৈঠক শেষ হল বিজ্ঞান ভবনে। তবে এ দিনেও কাটল না জট!

কৃষি আইন বাতিলের দাবি অনড় কৃষকরা, কেন্দ্র স্থির রয়েছে নিজের অবস্থানে। কেন্দ্রীয় কৃষিমন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর একাধিক বার জানিয়েছেন, সংশোধনের প্রস্তুত থাকলেও আইন বাতিলের পথে যাবে না কেন্দ্র।

Loading videos...

এ দিন বৈঠক শুরুর আগে মন্ত্রী বলেন, আজকের বৈঠকে তিনটি কৃষি আইন নিয়ে আলোচনা হবে এবং সরকার আলোচনার মাধ্যমে বিষয়টি সমাধানের চেষ্টা করবে।

কৃষি আইন খতিয়ে দেখতে চার সদস্যের কমিটি গঠন করেছে সুপ্রিম কোর্ট (এক জন নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন)। সেই কমিটির প্রথম বৈঠক হবে ১৯ জানুয়ারি। ওই একই দিনে কেন্দ্র এবং কৃষকদের মধ্যে ফের বৈঠক হবে বেলা ১২টায়।

কেন্দ্রীয় কৃষিমন্ত্রী বলেন, “ভারত সরকার সুপ্রিম কোর্টের রায়কে স্বাগত জানিয়েছে। যখন সুপ্রিম কোর্টের গঠিত কমিটি সরকারকে ডাকবে, আমরা তখন আমাদের মতামত তাদের কাছে জানাব”।

বৈঠকে উপস্থিত কৃষক সংগঠনের প্রতিনিধিরা

[এ দিনের বৈঠকে উপস্থিত কৃষক সংগঠনের প্রতিনিধিরা]

আলোচনায় যা উঠে এল

হরিয়ানার করনালের কাছে একটি গ্রামে গত রবিবার কৃষকদের উপর আক্রমণ এবং তাঁদের বিরুদ্ধে পুলিশের মামলা দায়েরের ঘটনা নিয়ে সরব হলেন কৃষক প্রতিনিধিরা।

বৈঠকে অবধারিত ভাবেই কৃষক ইউনিয়নগুলি কৃষি আইন বাতিল করার জন্য চাপ অব্যাহত রাখে। অন্যদিকে কেন্দ্র জানায়, অচলাবস্থার কাটিয়ে ওঠার জন্য সরকার কৃষকদের কাছ থেকে পরামর্শ চাইছে। তবে ইউনিয়নগুলির নিজেদের অবস্থানে অনড় থাকলে সরকার “আরও আলোচনার জন্য চাপ দিতে পারে না”।

কৃষক নেতা রকেশ টিকাইত জানান, কৃষক সংগঠনগুলি এ দিনের বৈঠকে সরকারকে বলেছে, তারা সুপ্রিম কোর্টের গঠিত কমিটিকে গ্রহণ করবে না। এক মাত্র সরকারের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমেই সমঝোতায় পৌঁছানো সম্ভব।

আরও পড়তে পারেন: দিল্লি যাচ্ছেন শতাব্দী রায়, জিইয়ে রাখলেন অমিত শাহের সঙ্গে সাক্ষাতের সম্ভাবনা

Advertisement
Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

দেশ

নরেন্দ্র মোদীর নামে স্টেডিয়াম! এক দিকে আদানি, অন্য প্রান্তে রিলায়েন্স, কটাক্ষ রাহুল গান্ধীর

ফের ‘হম দো হমারে দো’ কটাক্ষ রাহুল গান্ধীর!

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: বুধবার গুজরাতের অমদাবাদের মোতেরা স্টেডিয়ামের (Motera cricket stadium) নাম হল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর (Narendra Modi) নামে। এর পরেই ফের এক বার নিজের বহুচর্চিত ‘হম দো হমারে দো’ কটাক্ষ ছুড়ে দিলেন রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi)।

মোতেরার বদলে এখন থেকে স্টেডিয়ামটি নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়াম হিসেবে পরিচিত হবে। ক্রিকেট স্টেডিয়াম-সহ গোটা স্পোর্টস কমপ্লেক্সের নামকরণ করা হয় সর্দার বল্লভভাই পটেলের (Sardar Vallabhbhai Patel) নামে।

Loading videos...

নিজের টুইটে বিসিসিআই সচিব জয় শাহের (কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের ছেলে) কথা উল্লেখ করে রাহুল লিখেছেন, “সত্য কত সুন্দর ভাবে নিজেকে প্রকাশ করে। নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়াম। জয় শাহের সভাপতিত্বে আদানি এন্ড এবং রিলায়েন্স এন্ড” (সঙ্গে হ্যাশট্যাগে লিখেছেন HumDoHumareDo)।

এ দিন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ (Ram Nath Kovind) স্টেডিয়ামটি উদ্বোধন করেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও ক্রীড়ামন্ত্রী কিরেন রিজিজু-সহ আরও অনেকই উপস্থিত ছিলেন। স্টেডিয়ামে আজ ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যে টেস্ট ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এই স্টেডিয়ামটিতে ১ লক্ষ ৩২ হাজার দর্শকাসন রয়েছে।

এ দিন একই সঙ্গে স্টেডিয়ামের স্পোর্টস কমপ্লেক্স নির্মাণের উদ্বোধনেও অংশ নিয়েছিলেন রাষ্ট্রপতি। যেটির নাম হবে সরদার পটেল স্পোর্টস কমপ্লেক্স এবং সেখানে ফুটবল, হকি, বাস্কেটবল, কাবাডি, বক্সিংয়ের মতো খেলাধুলার সুবিধা থাকবে।

উল্লেখযোগ্য ভাবে, এ বারের বাজেটের উপর আলোচনার সময় রাহুল কৃষকদের সমস্যার কথা বলতে গিয়ে মোদী সরকারের ঘনিষ্ঠ শিল্পপতিদের নিয়েও সরব হয়েছিলেন। সে সময়েও তিনি ‘হম দো হমারে দো’ স্লোগানটি উল্লেখ করেছিলেন।

আরও পড়তে পারেন: বিশ্বের সর্ববৃহৎ ক্রিকেট স্টেডিয়াম নামাঙ্কিত নরেন্দ্র মোদীর নামে

Continue Reading

দেশ

১ মার্চ থেকে প্রবীণদের জন্য শুরু হচ্ছে বিনামূল্যে করোনা টিকাকরণ

১০ হাজার সরকারি এবং ২০ হাজার বেসরকারি হাসপাতালে চলবে টিকাকরণ!

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: প্রবীণ নাগরিকদের জন্য কোভিড-১৯ টিকাকরণ শুরু হচ্ছে আগামী মার্চ মাসেই।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভাড়েকর বুধবার বলেন, আগামী মাস থেকে ৬০ বছরের বেশি বয়সিদের করোনা টিকাকরণ শুরু হবে দেশ জুড়ে। পরবর্তী পদক্ষেপে টিকা পারেন স্থায়ী রোগে আক্রান্ত ৪৫ বছরের বেশি বয়সিরা।

Loading videos...

জাভাড়েকর জানান, কোভিড -১৯ ভ্যাকসিনটি সরকারি কেন্দ্রগুলিতে বিনামূল্যে দেওয়া হবে। আগামী ১ মার্চ থেকে ১০ হাজার সরকারি এবং ২০ হাজার বেসরকারি হাসপাতালে এই টিকাকরণ কর্মসূচি শুরু হয়ে যাবে।

বেসরকারি হাসপাতালে বিনামূল্যে নয়

যাঁরা বেসরকারি হাসপাতাল থেকে করোনা টিকা নেবেন, তাঁদের টাকা দিয়েই নিতে হবে। বেসরকারি হাসপাতালগুলি করোনা টিকার জন্য কত টাকা নেবে, সেটা আগামী ৩-৪ দিনের মধ্যেই কেন্দ্রীয় সরকার নির্দিষ্ট করে দেবে বলে এ দিন জানান মন্ত্রী।

গত ১৬ জানুয়ারি থেকে বৃহত্তম করোনা টিকাকরণ কর্মসূচি শুরু হয় ভারতে। টিকার প্রথম জোড দেওয়ার পর স্বাস্থ্যকর্মী এবং প্রথমসারির করোনাযোদ্ধাদের দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার কাজ চলছে।

দু’টি ভ্যাকসিন

বর্তমানে দু’ধরনের করোনা টিকা দেওয়া হচ্ছে। একটি তৈরি করেছে সেরাম ইনস্টিটিউট (কোভিশিল্ড) এবং অন্যটি ভারত বায়োটেক (কোভ্যাক্সিন)।

সম্প্রতি সেরাম কর্ণধার আদর পুনাওয়ালা বলেন, করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে কোভিশিল্ড অত্যাধিক কার্যকরী। নীতি আয়োগের সদস্য ডা. ভিকে পাল বলেছেন, উভয় ভ্যাকসিন-ই কয়েক হাজার মানুষের উপর পরীক্ষা করা হয়েছে এবং এগুলির পার্শ্ব-প্রতিক্রিয়াও নগণ্য। তেমন কোনো ঝুঁকিও নেই”।

আরও পড়তে পারেন: টেস্ট ব্যাপক ভাবে বাড়ায় দেশে ফের বাড়ল নতুন সংক্রমণ, তবে তাকে ছাপিয়ে গেল সুস্থতা

Continue Reading

দেশ

টেস্ট ব্যাপক ভাবে বাড়ায় দেশে ফের বাড়ল নতুন সংক্রমণ, তবে তাকে ছাপিয়ে গেল সুস্থতা

গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমণের হার ছিল ১.৭০ শতাংশ।

Published

on

সংক্রমিতের সংখ্যা বাড়লেও, সংক্রমণের হার খুব একটা বাড়েনি। ছবি: টুইটার।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ব্যাপক ভাবে বেড়ে গিয়েছে দৈনিক টেস্টের সংখ্যা। আর সে কারণে মঙ্গলবারের থেকে অনেকটাই বাড়ল দেশের দৈনিক সংক্রমণ। যদিও সেই সংখ্যাকেও ছাপিয়ে গিয়েছে সুস্থতার সংখ্যা। ফলে, দেশের সক্রিয় রোগীর সংখ্যাটি ফের কমতে শুরু করায় অস্বস্তির বাতাবরণ একটু হলেও কমেছে।

নতুন আক্রান্ত ১৩ হাজারের ঘরে

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের (Ministry of Health and Family Welfare) তথ্য অনুযায়ী বুধবার ভারতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১ কোটি ১০ লক্ষ ৩০ হাজার ১৭৬। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১৩ হাজার ৭৪২ জন।

Loading videos...

এ দিন ভারতে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ১ লক্ষ ৪৬ হাজার ৯০৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে সক্রিয় রোগী কমেছে ৩৯৯ জন। বর্তমানে দেশে ১.৩৩ শতাংশ কোভিডরোগী চিকিৎসাধীন।

দৈনিক সংক্রমণের হারের ওঠানামা

দেশে সামগ্রিক ভাবে সংক্রমণ বাড়লেও এখনও সংক্রমণের হারের ব্যাপক ঊর্ধ্বগামী যাত্রা লক্ষ করা যায়নি। ফলে কয়েকটি রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি উদ্বেগজনক হলেও ভারতের পরিস্থিতি ঠিকঠাকই রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৮ লক্ষ ৫ হাজার ৮৪৪টি। ফলে গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমণের হার ছিল ১.৭০ শতাংশ।

এ দিকে, ২৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ভারতে মোট ২১ কোটি ৩০ লক্ষ ৩৬ হাজার ২৭৫টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এর বিপরীতে এখন ৫.১৭ শতাংশ মানুষ আক্রান্ত হচ্ছেন। এই সংক্রমণের হার আগামী দিনে আরও কমবে এই আশা করাই যায়।

সংক্রমণ কোথায় কেমন?

গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে আক্রান্ত হয়েছেন ৬,২১৮ জন। সোমবারের থেকে সংক্রমণ ফের অনেকটাই বেড়েছে এই রাজ্যে। অন্য দিকে, দ্বিতীয় স্থানে থাকা কেরলে (৪,০৩৪) সংক্রমণ ফের বাড়লেও সংক্রমণের হার কিন্তু আরও কিছুটা কমেছে।

এ দিকে সংক্রমণের নিরিখে আরও যে দুই রাজ্যের পরিস্থিতি উদ্বেগজনক হয়ে উঠেছে, তার মধ্যে পঞ্জাবে (৪১৪) সংক্রমণ আগের দিনের তুলনায় বাড়লেও মধ্যপ্রদেশে (২৪৬) দৈনিক সংক্রমণ কমেছে। ছত্তীসগঢ় (২৭৬) এবং গুজরাতে (৪১৪) পরিস্থিতি মোটের ওপরে স্থিতিশীল।

এ ছাড়া, সংক্রমণের নিরিখে প্রথম থেকেই আরও যে কয়েকটা রাজ্য ওপরের সারিতে রয়েছে সেই তামিলনাড়ু (৪৪২), কর্নাটক (৩৮৩), পশ্চিমবঙ্গ (১৮৯), দিল্লি (১৪৫) এবং অন্ধ্রপ্রদেশে (৭০) কোভিড পরিস্থিতির ইতিবাচক পরিবর্তনই হয়েছে।

সুস্থ হলেন ১৪ হাজারের বেশি

দৈনিক সুস্থতার সংখ্যাটি অনেকটাই কমেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ১৪ হাজার ৩৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে ৫,৮০০ রোগী সুস্থ হয়েছেন। সেটাই প্রতিফলিত হয়েছে দেশের দৈনিক পরিসংখ্যানে।

দেশে এখনও পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১ কোটি ৭ লক্ষ ২৬ হাজার ৭০২ জন। দেশে এখন সুস্থতার হার রয়েছে ৯৭.২৪ শতাংশ।

মহারাষ্ট্র ফের বাড়ল দেশের মৃতের সংখ্যা

গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতের সংখ্যায় অনেকটাই বেড়ে গিয়েছে এবং সেটা হয়েছে মহারাষ্ট্রের কারণেই। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে মৃত্যু হয়েছে ১০৪ জনের, এর মধ্যে ৫১ জনের মৃত্যু হয়েছে মহারাষ্ট্রে। ভারতে এখন মোট মৃতের সংখ্যা ১ লক্ষ ৫৬ হাজার ৫৬৭। মৃত্যুহার ১.৪২ শতাংশের আশেপাশে রয়েছে।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

সংক্রমণ বৃদ্ধির জন্য কোভিডের নতুন স্ট্রেন দায়ী নয়, সাফ জানাল কেন্দ্র

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
ফুটবল2 hours ago

বিপিন সিংয়ের হ্যাটট্রিক, ওড়িশাকে আধ ডজন গোল মুম্বইয়ের

ক্রিকেট3 hours ago

স্টেডিয়ামে অদ্ভুত কিছু বিপত্তির পর অমদাবাদ টেস্টের প্রথম দিন চালকের আসনে ভারত

LPG
প্রযুক্তি4 hours ago

রান্নার গ্যাসের ভরতুকির টাকা অ্যাকাউন্টে ঢুকেছে কি না, কী ভাবে দেখবেন

রাজ্য5 hours ago

ভোটের আগে ভ্যাকসিন নিয়ে নরেন্দ্র মোদীকে পাল্টা চাপ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের

রাজ্য6 hours ago

নতুন সংক্রমণ দুশো পার করলেও রাজ্যে সংক্রমণের হার ফের ১ শতাংশের নীচে

শিল্প-বাণিজ্য6 hours ago

‘সরকারের ব্যবসা করার দরকার নেই’, রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার বেসরকারিকরণে জোর সওয়াল নরেন্দ্র মোদীর

দেশ7 hours ago

নরেন্দ্র মোদীর নামে স্টেডিয়াম! এক দিকে আদানি, অন্য প্রান্তে রিলায়েন্স, কটাক্ষ রাহুল গান্ধীর

ক্রিকেট7 hours ago

আধ ডজন উইকেট অক্ষরের, মাত্র ১১২-তেই গুটিয়ে গেল ইংল্যান্ড

LPG
প্রযুক্তি4 hours ago

রান্নার গ্যাসের ভরতুকির টাকা অ্যাকাউন্টে ঢুকেছে কি না, কী ভাবে দেখবেন

প্রযুক্তি2 days ago

এ ভাবেই তৈরি করুন সদ্যোজাত শিশুর আধার কার্ড, জানুন কী কী লাগবে

বিনোদন2 days ago

পর্ন ‘লাইভ স্ট্রিমিং’ থেকে আয় কোটি টাকা, অ্যাপের মাধ্যমে চিত্রনাট্য-সহ পরিবেশিত হচ্ছে অশ্লীলতা

রাজ্য2 days ago

দেড় ঘণ্টা পর অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়ি ছাড়লেন সিবিআই আধিকারিকরা

দেশ2 days ago

প্রতিষ্ঠান-বিরোধিতার হাওয়া নেই, কেরলে মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে এখনও জনপ্রিয় পিনারাই বিজয়ন

ফুটবল2 days ago

দশ জনে খেলা হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে পিছিয়ে থেকেও শেষ মুহূর্তের গোলে মান বাঁচাল এটিকে মোহনবাগান

ফুটবল2 days ago

কোনো রকমে হার বাঁচানো এটিকে মোহনবাগানের খেলায় বেজায় ক্ষুব্ধ আন্তোনিও লোপেজ আবাস

শিল্প-বাণিজ্য3 days ago

পশ্চিমবঙ্গ-সহ ৪ রাজ্যে পেট্রোল, ডিজেলের দামে ছাড়! জানুন কোথায় কমল কত

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 weeks ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা3 weeks ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা1 month ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা1 month ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা1 month ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা1 month ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা1 month ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা1 month ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা1 month ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

কেনাকাটা1 month ago

৯৯ টাকার মধ্যে ব্র্যান্ডেড মেকআপের সামগ্রী

খবর অনলাইন ডেস্ক : ব্র্যান্ডেড সামগ্রী যদি নাগালের মধ্যে এসে যায় তা হলে তো কোনো কথাই নেই। তেমনই বেশ কিছু...

নজরে