মমতার নেতৃত্বে বিজেপি-বিরোধী জোট চান অখিলেশ, সায় তৃণমূলের

0

কলকাতা: উত্তরপ্রদেশের সাম্প্রতিক পুরভোটে আশানুরূপ ফল না করতে পারার জন্য ইভিএমে কারচুপির অভিযোগ এনেছেন সমাজবাদী পার্টির নেতা তথা সে রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী অখিলেশ যাদব। এ বার বিজেপির দুর্নীতি, জনবিরোধী নীতি এবং বিভাজনের রাজনীতির বিরুদ্ধে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলিকে এক ছাতার তলায় নিয়ে আসতে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্যোগ নেওয়ার আবেদন জানালেন অখিলেশ। এ ব্যাপারে যে তৃণমূল কংগ্রেসর সায় রয়েছে, তার ইঙ্গিত মিলেছে।

গতকালই সমাজবাদী পার্টির রাজ্য শাখার সম্মেলন উপলক্ষ্যে কলকাতায় এসেছিলেন অখিলেশ। সম্মেলনের পর তিনি সটান চলে যান মমতার কালীঘাটের বাড়িতে। সেখানেই তিনি তৃণমূল নেত্রীকে এ বিষয়ে নিজের মতামত জানান। অখিলেশ মনে করেন, এ মুহূর্তে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরোধিতায় সব থেকে কার্যকরী মুখ তৃণমূল নেত্রী। তিনি যে ভাবে লাগাতর ভাবে কেন্দ্রের একের পর এক জনবিরোধী নীতির প্রতিবাদ করছেন, তা এক কথায় সাধুবাদযোগ্য। সারা দেশের মানুষ এখন চরম অস্থিরতার মধ্যে দিয়ে দিনযাপন করছেন। শিল্প থেকে শুরু করে অর্থনৈতিক দিক দিয়ে কেন্দ্র এমন সব এক পেশে নীতির প্রয়োগ করে চলেছে তাতে সাধারণ মানুষের রুটি-রুজির জোগাড় শিকেয় উঠতে চলেছে। তার উপর রয়েছে সাম্প্রদায়িক বিভাজনের নীতি। উত্তরপ্রদেশে ক্ষমতায় আসার পর-ইস্তক সে রাজ্যের যোগী-সরকার যে ভাবে এই ইস্যু নিয়ে এগোচ্ছে তা চলতে থাকলে সমূহ বিপদ। তাই আগামী ২০১৯-এর সাধারণ নির্বাচনকে সামনে রেখে এখন থেকেই ঘর গোছানোর কাজ শুরু করতে চান অখিলেশ।

সেই কাজে যে মমতাই হাল ধরতে পারেন, সে কথা অকপটে স্বীকার করে নেন তিনি। অতীতে তাঁর পিতা মুলায়ম সিংহ যাদবের সঙ্গে বিভিন্ন ক্ষেত্রে রাজনৈতিক মতান্তর থাকলেও বর্তমান রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে এই জোটবন্ধন একান্ত জরুরি। যার অন্যতম একটি কারণ সর্ব ভারতীয় স্তরে মমতার গ্রহণযোগ্যতা এবং অন্যান্য রাজনৈতিক দলগুলিকে নিয়ে আন্দোলন সংগঠন করার অভিজ্ঞতা। মমতা কেন্দ্রীয় রাজনীতিতে যে ভাবে কংগ্রেস বা বামপন্থীদলগুলিকে কাছে টেনে নিতে পারেন, তা অন্য কারোর জন্য প্রযোজ্য নয়।

কালীঘাট সূত্রে জানা গিয়েছে, বিজেপি-বিরোধী জোট গড়ার বিষয়টি ভেবে দেখা হচ্ছে। কারণ, এ ছাড়া মোদী-সরকারের অবসান কোনো ভাবেই সম্ভব নয়। উত্তরপ্রদেশের পুরভোটে ইভিএমে কারচুপি হয়েছে কি না, সে বিষয়ে সরাসরি কোনও মন্তব্য না করলেও মমতা বলেছেন, এ ব্যাপারে সমস্ত রাজনৈতিক দলগুলিকে নিয়ে নির্বাচন কমিশন কথা বলুক। নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে তিনি অখিলেশের সঙ্গে সাক্ষাৎপর্বকে ফলপ্রসূ বলে উল্লেখ করেছেন।

আরো পড়ুন: ইভিএম নয়, আগামী লোকসভা নির্বাচন ‘ব্যালটে’ হোক: বিএসপি, এসপি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.